বাংলা নিউজ > ময়দান > আইপিএল ২০২০ > RR vs CSK: বাটলার ও স্টোকসের বিকল্প খোঁজাই চ্যালেঞ্জ রাজস্থানের
রাজস্থান রয়্যালস ও চেন্নাই সুপার কিংসের লোগো। ছবি- আইপিএল।
রাজস্থান রয়্যালস ও চেন্নাই সুপার কিংসের লোগো। ছবি- আইপিএল।

RR vs CSK: বাটলার ও স্টোকসের বিকল্প খোঁজাই চ্যালেঞ্জ রাজস্থানের

  • সিএসকে ইতিমধ্যেই টুর্নামেন্টর একটি ম্যাচে জয় তুলে নিয়েছে।

সুরেশ রায়না ও হরভজন সিং নেই। দুই ভারতীয় তারকাকে ছাড়া আইপিএলের উদ্বোধনী ম্যাচে ইতিমধ্যেই জয় তুলে নিয়েছে চেন্নাই সুপার কিংস। তবে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়র লিগে রাজস্থান রয়্যালসকে সমাধান খুঁজতে হবে এক জটিল সমস্যার।

(আইপিএলের যাবতীয় আপডেট ও লাইভ স্কোর জানতে ক্লিক করুন এখানে।)

অন্য সময় হলে প্লেয়িং ইলেভেনে রাজস্থানের ৪ বিদেশি ক্রিকেটারের নাম অনুমান করতে বিন্দুমাত্র অসুবিধা হওয়ার কথা নয়। তবে এবার চেনা ছকের বাইরে বেরোতে হবে রাজস্থানকে। কেননা, দলের নির্ভরযোগ্য ব্রিটিশ অল-রাউন্ডার বেন স্টোকস এখনও পরিবারের সঙ্গে নিউজিল্যান্ডের রয়েছেন। তারকা উইকেটকিপার-ব্যাটসম্যান জোস বাটলার পরিবারকে সঙ্গে নিয়ে এসেছেন বলে তাঁকে বাড়তি সময় কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হচ্ছে। নাহলে দ্বি-পাক্ষিক সিরিজ খেলে আইপিএলের জন্য আমিরশাহিতে আসা ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ার অন্যান্য ক্রিকেটাররা ৩৬ ঘণ্টার কোয়ারান্টাইনেই মাঠে নামার ছাড়পত্র পেয়েছেন।

এই অবস্থায় রাজস্থান বাটলারের জায়গায় টম কারানকে মাঠে নামাতে পারে। সেক্ষেত্রে রবিন উথাপ্পার সঙ্গে ওপেন করতে পারেন তরুণ যশস্বী জসওয়াল। স্টোকসের পরিবর্তে রাজস্থান দলে জায়গা করে নিতে পারেন ডেভিড মিলার।

চেন্নাই শারজায় বাড়তি বোলার খেলাতে চাইলে শার্দুল ঠাকুরকে প্রথম একাদশে জায়গা করে দিতে পারে বিজয়কে বসিয়ে। তবে ধোনি মাত্র এক ম্যাচ পরেই কম্বিনেশন বদলাতে চাইবে বলে মনে হয় না।

রাজস্থানের সম্ভাব্য প্রথম একাদশ: রবিন উথাপ্পা, যশস্বী জসওয়াল, সঞ্জু স্যামসন (উইকেট কিপার), স্টিভ স্মিথ (অধিনায়ক), ডেভিড মিলার, রিয়ান পরাগ, শ্রেয়স গোপাল, জোফ্রা আর্চার, জয়দেব উনাদকাট, বরুণ অ্যারন ও টম কারান।

চেন্নাই এর সম্ভাব্য প্রথম একাদশ: শেন ওয়াটসন, মুরলি বিজয়, ফ্যাফ ডু'প্লেসি, আম্বাতি রায়াডু, মহেন্দ্র সিং ধোনি (ক্যাপ্টেন ও উইকেটকিপার), কেদার যাদব, রবীন্দ্র জাদেজা, স্যাম কারান, পীযূষ চাওলা, দীপক চাহার ও লুঙ্গি এনগিদি।

উল্লেখযোগ্য তথ্য: আইপিএলের অন্যান্য মাঠগুলির তুলনায় শারজায় হাই-স্কোরিং ম্যাচ হওয়ার সম্ভাবনা। ২০১৮ থেকে এই মাঠে ইনিংস প্রতি গড়ে ১৬১ রানে উঠেছে। স্কোরবোর্ডে ১৭৫-এর বেশি রান তুলতে পারলে জয়ের সম্ভাবনা তুলনায় বেশি।

রেকর্ড বলছে শারজায় টি-২০ ম্যাচে রান তাড়া করে জয়ের সম্ভাবনা বেশি। ২০১৮ থেকে এই মাঠে ৪৬টি টি-২০ ম্যাচ খেলা হয়েছে। যার মধ্যে ২৬টি ম্যাচে জয় পেয়েছে পরে ব্যাট করা দল।

শারজায় স্পিনারদের তুলনায় পেসারদের দাপট বেশি দেখা গিয়েছে। ২০১৮ থেকে এখানে ৬৪ শতাংশ উইকেট দখল করেছেন পেসাররা।

নির্বাসন থেকে দু'দল ফিরে আসার পর রাজস্থান ও চেন্নাই একে অপরের মুখোমুখি হয়েছে মোট চারবার। তিনটি ম্যাচে জয় তুলে নিয়েছে সিএসকে।

বন্ধ করুন