বাংলা নিউজ > ময়দান > আইপিএল ২০২০ > SRH vs KXIP: চলতি IPL-এ দ্রুততম হাফ-সেঞ্চুরি পুরানের
হাফ-সেঞ্চুরির পর পুরান। ছবি- আইপিএল।
হাফ-সেঞ্চুরির পর পুরান। ছবি- আইপিএল।

SRH vs KXIP: চলতি IPL-এ দ্রুততম হাফ-সেঞ্চুরি পুরানের

  • বলের নিরিখে দ্রুততম অর্ধশতরানের সার্বিক তালিকায় যুগ্ম চতুর্থ স্থান দখল করে নেয় ক্যারিবিয়ান তারকার ইনিংস।

ফর্মে ছিলেন না, এমনটা বলা যাবে না কখনই। বরং যতটুকু সুযোগ পেয়েছেন, ব্যাট হাতে নিজের ছাপ রেখে গিয়েছেন। তা সত্ত্বেও কম্বিনেশনের স্বার্থে পঞ্জাব ম্যাচে প্লেয়িং ইলেভেন থেকে বাদ পড়ার সম্ভাবনা ছিল তাঁর। শেষমেশ ক্রিস গেইল অসুস্থ হয়ে পড়ায় আরও একটা ম্যাচে মাঠে নামার সুযোগ এসে যায়। পড়ে পাওয়া সুযোগটা যথাযথ কাজে লাগালেন নিকোলাস পুরান। হায়দরাবাদের বিরুদ্ধে দুরন্ত হাফ-সেঞ্চুরি করে পঞ্জাবের প্রথম একাদশে নিজের জায়গা আরও কিছুদিনের জন্য নিশ্চিত করলেন ক্যারিবিয়ান উইকেটকিপার-ব্যাটসম্যান।

দুবাইয়ে চলতি আইপিএলের দ্রুততম হাফ-সেঞ্চুরি করেন পুরান। ২টি চার ও ৬টি ছক্কার সাহায্যে মাত্র ১৭ বলে ৫০ রানের গণ্ডি ছুঁয়ে ফেলেন তিনি। শারজায় চেন্নাই সুপার কিংসের বিরুদ্ধে রাজস্থান রয়্যালসের সঞ্জু স্যামসন ১৯ বলে হাফ-সেঞ্চুরি করেছিলেন। আইপিএল ২০২০-তে সেটাই ছিল এতদিন দ্রুততম অর্ধশতরান। হায়দরাবাদ বনাম পঞ্জাব ম্যাচে পুরান পিছনে ফেলে দেন স্যামসনকেও।

(আইপিএলের যাবতীয় আপডেট ও লাইভ স্কোর জানতে ক্লিক করুন এখানে।)

বলের নিরিখে দ্রুততম অর্ধশতরানের সার্বিক তালিকায় যুগ্ম চতুর্থ স্থান দখল করে নেয় ক্যারিবিয়ান তারকার ইনিংস। আইপিএলের ইতিহাসে সবথেকে কম বলে হাফ-সেঞ্চুরির রেকর্ড রয়েছে লোকেশ রাহুলের দখলে। ২০১৮ সালে দিল্লি ক্যাপিটালসের বিরুদ্ধে পঞ্জাবের হয়ে ১৪ বলে হাফ-সেঞ্চুরি করেন রাহুল।

এছাড়া ১৫ বলে হাফ-সেঞ্চুরি করেছেন দুই কেকেআর তারকা ইউসুফ পাঠান ও সুনীল নারিন। ১৬ বলে হাফ-সেঞ্চুরি রয়েছে সুরেশ রায়নার। পুরান ছাড়া আইপিএলে ১৭ বলে হাফ-সেঞ্চুরি করেছেন ক্রিস গেইল, হার্দিক পান্ডিয়া, অ্যাডাম গিলক্রিস্ট, ক্রিস মরিস, ইশান কিষাণ, কায়রন পোলার্ড ও সুনীল নারিনের।

পুরান এই ম্যাচে ৫টি চার ও ৭টি ছক্কার সাহায্যে ৩৭ বলে ৭৭ রান করে আউট হন।

বন্ধ করুন