বাংলা নিউজ > ময়দান > আইপিএল-2021 > রাজস্থানের বিরুদ্ধে একজন বিদেশি ক্রিকেটার কম নিয়েই খেলতে নামে দিল্লি, অতীতে ২ জন বিদেশি নিয়ে মাঠে নেমেছে KKR
টসের পর পন্ত ও স্যামসন। ছবি- আইপিএল।
টসের পর পন্ত ও স্যামসন। ছবি- আইপিএল।

রাজস্থানের বিরুদ্ধে একজন বিদেশি ক্রিকেটার কম নিয়েই খেলতে নামে দিল্লি, অতীতে ২ জন বিদেশি নিয়ে মাঠে নেমেছে KKR

  • ক্যাপিটালস প্রথম একাদশে জায়গা করে দেয় রাবাদা, নরকিয়া ও হেতমায়েরকে।

এমনিতে আইপিএলের দল গড়ার সময় অত্যন্ত সাহসী সিদ্ধান্ত নিয়েছিল দিল্লি ক্যাপিটালস। বেশিরভাগ ফ্র্যাঞ্চাইজি যেখানে টপ অর্ডারে বিদেশি ব্যাটসম্যান দলে নেওয়ার দিকে ঝুঁকেছিল, সেখানে দিল্লি আস্থা রাখে ভারতীয় তারকাদের দিকেই।

স্টিভ স্মিথের মতো ক্রিকেটার স্কোয়াডে থাকা সত্ত্বেও দিল্লি তাঁকে রিজার্ভ বেঞ্চে বসিয়ে রাখার সাহস দেখিয়েছে অনায়াসে। এবার আরও এক পা এগিয়ে ক্যাপিটালস একজন বিদেশ ক্রিকেটার কম নিয়েই মাঠে নামার সিদ্ধান্ত নেয়।

রাজস্থান রয়্যালসের বিরুদ্ধে আইপিএল ২০২১-এর গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে দিল্লি মাঠে নামে চারজনের বদলে তিনজন বিদেশি ক্রিকেটার নিয়ে। তারা প্রথম একাদশে রাখে দুই প্রোটিয়া পেসার কাগিসো রাবাদা ও এনরিখ নরকিয়াকে। সঙ্গে ক্যারিবিয়ান মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান শিমরন হেটমায়েরে আস্থা রাখে ক্যাপিটালস। মার্কাস স্টইনিস আগের ম্যাচেই বল করার সময় চোট পেয়ে মাঠ ছেড়েছিলেন। তাঁর বদলে রাজস্থান ম্যাচে দিল্লি খেলায় ললিত যাদবকে।

যদিও কোনও ফ্র্যাঞ্চাইজির তিনজন বিদেশি ক্রিকেটার নিয়ে মাঠে নামা আইপিএলে এই প্রথম নয়। এর আগেও দিল্লি তিন বিদেশি ক্রিকেটার নিয়ে মাঠে নেমেছে। ২০১৯ আইপিএলে কোটলায় দিল্লি বনাম সিএসকে ম্যাচে দু'দলই তিনজন করে বিদেশি ক্রিকেটার নিয়ে মাঠে নামে। তার আগে ২০১৭ সালে দিল্লি ও আরসিবির ম্যাচেও দু'দল তিনজন করে ক্রিকেটার খেলায়।

তবে আইপিএলের ম্যাচে ২ জন বিদেশি ক্রিকেটার নিয়ে মাঠে নামার সাহস দেখিয়েছিল কলকাতা নাইট রাইডার্স। ২০১১ সালে চেন্নাইয়ে কালিস ও মর্গ্যানকে প্রথম একাদশে রেখে দল নামায় কেকেআর। চেন্নাই অবশ্য চারজন বিদেশি ক্রিকেটার নিয়েই মাঠে নামে সেই ম্যাচে। যদিও শেষমেশ সেই ম্যাচে হারতে হয় কলকাতাকে।

বন্ধ করুন