বাংলা নিউজ > ময়দান > আইপিএল-2022 > IPL 2022: শ্রেয়স সাবধান, সামনে গম্ভীরের লখনউ! LSG vs KKR ম্যাচে কলকাতার কী কী করা উচিত?
কলকাতা নাইট রাইডার্স (ছবি: পিটিআই) (PTI)
কলকাতা নাইট রাইডার্স (ছবি: পিটিআই) (PTI)

IPL 2022: শ্রেয়স সাবধান, সামনে গম্ভীরের লখনউ! LSG vs KKR ম্যাচে কলকাতার কী কী করা উচিত?

শনিবার ২০২২ আইপিএল-এর ডাবল হেডারের দ্বিতীয় ম্যাচে মাঠে নামবে শ্রেয়স আইয়ারের কলকাতা। ২০২২ আইপিএল-এর ৫৩তম ম্যাচে সন্ধ্যায় লখনউ সুপার জায়ান্টসের মুখোমুখি হবে কলকাতা নাইট রাইডার্স। দেখে নিন LSG ম্যাচ জিততে KKR-এর কোন পাঁচটি বিষয়ের দিকে নজর দেওয়া উচিত?

শনিবার ২০২২ আইপিএল-এর ডাবল হেডারের দ্বিতীয় ম্যাচে মাঠে নামবে শ্রেয়স আইয়ারের কলকাতা। ২০২২ আইপিএল-এর ৫৩তম ম্যাচে সন্ধ্যায় লখনউ সুপার জায়ান্টসের মুখোমুখি হবে কলকাতা নাইট রাইডার্স। চলতি মরশুমে এখনও পর্যন্ত ১০ ম্যাচ খেলে চারটি ম্যাচে জিতে ও ছয়টি ম্যাচে হেরে ৮ পয়েন্ট নিয়ে লিগ তালিকার আট নম্বরে রয়েছে কলকাতা নাইট রাইডার্স। অন্যদিকে কেএল রাহুলের লখনউ সুপার জায়ান্টস রয়েছে লিগ তালিকার দুই নম্বরে। ১০ ম্যাচের শেষে সাতটি ম্যাচ জিতে লিগ তালিকা ১৪ পয়েন্ট দখল করেছে লখনউ।

ফলে বলা যেতেই পারে এদিনের ম্যাচে ধারে ভারে কলকাতার থেকে বেশ শক্তিশালী লখনউ। এমন অবস্থায় গৌতম গম্ভীরের ছেলেদের বিরুদ্ধে মাঠে নামার আগে বেশ সতর্ক থাকতে হবে কলকাতাকে। বেশ কিছু বিষয় মাথায় রাখতে হবে শ্রেয়স আইয়ারকে। দেখে নেওয়া যাক সেই বিষয় গুলি।

১) প্রথমত টানা পাঁচ ম্যাচ হারার পরে রাজস্থানের বিরুদ্ধে জয়ে ফিরেছে কলকাতা নাইট রাইডার্স। তাই রাজস্থান ম্যাচের উইনিং কম্বিনেশনকে যেন কোনও ভাবেই না ভাঙেন শ্রেয়স আইয়ার। কারণ ১০ ম্যাচের পরেও এখনও দলের সঠিক কম্বিনেশন তৈরি করতে পারেনি কলকাতা। যেহেতু আগের ম্যাচে রাজস্থানকে হারিয়েছে, তাই গত ম্যাচের কম্বিনেশনের উপর ভরসা করতে হবে কেকেআর টিম ম্যানেজমেন্টকে।

২) টস জিতে অবশ্যই ফিল্ডিং-এর দিকে যেতে হবে। কারণ পুণের এমসিএ মাঠে পরে ব্যাট করে রান তাড়া করাটা বুদ্ধিমানের কাজ হবে। যেহেতু সন্ধ্যে বেলায় ম্যাচ, তাই পরে বল করতে গেলে হয়তো বোলাররা সমস্যায় পড়তে পারেন। তাই সেই দিকটা দেখা উচিত। তবে অবশ্যই দল সেই মুহূর্তে পিচ ও আবহাওয়া বুঝে সঠিক সিদ্ধান্ত নেবে।

৩) যদি কলকাতা আগে ব্যাট করতে নামে, তাহলে প্রথম পাওয়ার প্লেকে ব্যবহার করা উচিত এবং স্কোর বোর্ডে বড় রান করতে হবে। কারণ লখনউ-এর ব্যাটিং শক্তি অনেক গভীর পর্যন্ত রয়েছে। বড় রান করার জন্য ভাল পার্টনারশিপের দরকার। আর অবশ্যই দলের ওপেনিং জুটিকে ভাল করতে হবে।

৪) প্রথমে বল করলে কলকাতাকে কুইন্টন ডি'কক ও কেএল রাহুলকে টার্গেট করতে হবে। কেএল রাহুলকে আগে তুলে ওপেনিং জুটি ভাঙতে হবে উমেশ যাদবদের। এছাড়াও দীপক হুডা, মার্কাস স্টোইনিস, আয়ুষ বাদোনি, ক্রুণাল পান্ডিয়াদের বেশি রান করতে দেওয়া চলবে না।

৫) রবি বিষ্ণোই-এর ওভার দেখে খেলতে হবে। কারণ রবি বিষ্ণোই ম্যাচের চরিত্র বদলে দেওয়া ক্ষমতা রাখেন। অন্যদিকে রাসেল, শ্রেয়স, নীতিশ রানাকে ব্যাট হাতে বাড়তি দায়িত্ব নিতেই হবে। এদিনের ম্যাচে সুনীল নারিনকে বিশেষ কিছু করতে হবে।

বন্ধ করুন