বাংলা নিউজ > ময়দান > আইপিএল-2022 > IPL 2022: ‘৩ বছরের অপেক্ষার পর সুযোগ পেয়ে মা-বাবার স্বপ্ন পূরণ করেছি’: মহসিন খান
মহসিন খান।
মহসিন খান।

IPL 2022: ‘৩ বছরের অপেক্ষার পর সুযোগ পেয়ে মা-বাবার স্বপ্ন পূরণ করেছি’: মহসিন খান

  • উত্তরপ্রেদেশের এই ক্রিকেটারকে একদম নূন্যতম দাম ২০ লক্ষ টাকায় কিনেছিল মহসিন। কিন্তু শুক্রবার তিনি কোটি টাকার প্লেয়ারের মতোই পারফরম্যান্স করেছেন। বল হাতে ৩ উইকেট নেওয়ার পাশাপাশি নয় নম্বরে ব্যাট করতে নেমে ৬ বলে অপরাজিত ১৩ করেন মহসিন। তাঁর এই রানই লখনউকে ১৫০ রানের গণ্ডি টপকাতে সাহায্য করে।

পঞ্জাব কিংসের বিরুদ্ধে দুরন্ত পারফরম্যান্স করে নজর কেড়েছেন লখনউ সুপার জায়ান্টসের মহসিন খান। গত ৩ বছর ধরে তিনি মুম্বই ইন্ডিয়ান্স দলের সদস্য হিসেবে থাকলেও, সুযোগ পাননি। কিন্তু ২৯ এপ্রিল পঞ্জাবের বিরুদ্ধে যেন যাবতীয় যন্ত্রণার জবাব দিয়েছেন মহসিন। বল হাতে ৩ উইকেট নেওয়ার পাশাপাশি নয় নম্বরে ব্যাট করতে নেমে ৬ বলে অপরাজিত ১৩ করেন মহসিন। তাঁর এই রানই লখনউকে ১৫০ রানের গণ্ডি টপকাতে সাহায্য করে।

উত্তরপ্রেদেশের এই ক্রিকেটারকে একদম নূন্যতম দাম ২০ লক্ষ টাকায় কিনেছিল মহসিন। কিন্তু শুক্রবার তিনি কোটি টাকার প্লেয়ারের মতোই পারফরম্যান্স করেছেন।

ম্যাচের পর দীপক হুডার সঙ্গে কথোপকথনের সময়ে আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েছিলেন মহসিন। তিনি জানান, আইপিএলে অভিষেক হওয়ায়, তাঁর মা-বাবার স্বপ্নপূরণ হয়েছে।

তিনি বলছিলেন, ‘আমি গত তিন বছর ধরে মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের সঙ্গে ছিলাম। তবে সেটি একটি বড় দল, তাই বোধহয় আমি সুযোগ পাইনি। কিন্তু অনেক কিছু শিখেছিলাম। এখন এখানে এলএসজিতে, দলটি শক্তিশালী, সাপোর্টিং স্টাফ এবং সব দিক থেকেই সত্যিই আমাকে সাহায্য করেছে। আমাকে শুধু বলা হয়েছিল, আমার যা স্ট্রং পয়েন্ট সেটা কাজে লাগাতে এবং ঘরোয়া ক্রিকেটে আমি যা করে এসেছি, এখানে সে রকমই পারফরম্যান্স করতে।’

আরও পড়ুন: বোলাররা এ যাত্রায় বাঁচিয়ে দিয়েছে, PBKS-র বিরুদ্ধে জিতে অকপট স্বীকারোক্তি ডি'ককের

আরও পড়ুন: লখনউ কি বায়ো-বাবলে বউদের ঢুকতে দেয়নি? পান্ডিয়ার বলে চুমু খাওয়ার ছবি নিয়ে রসিকতা

এখানেই থামেননি মহসিন। তিনি আরও বলেছেন, ‘তিন বছর ধরে সুযোগের জন্য অপেক্ষা করছি এবং এটি আমার বাবা-মায়ের স্বপ্ন ছিল যে আমাকে আইপিএল মঞ্চে খেলতে দেখবে এবং আমি শেষ পর্যন্ত সুযোগ পাওয়ায়, তারা খুশি। আমিও খুশি যে, ওদের স্বপ্ন পূরণ করতে পেরেছি। আমি এই সাফল্য মা-বাবাকেই উৎসর্গ করব।’

শুক্রবার টসে জিতে লখনউ-কে ব্যাট করতে পাঠিয়েছিল পঞ্জাব। প্রথমে ব্যাট করে ৮ উইকেট হারিয়ে লখনউ ১৫৩ রান করে। কুইন্টন ডি'কক করেন ৩৭ বলে ৪৬। এবং দীপক হুডা করেন ২৮ বলে ৩৪ রান। বাকিরা কেই ২০ রানের গণ্ডিই টপকাতে পারেননি। সেখানে মহসিনের ৬ বলে অপরাজিত ১৩ রান নিঃসন্দেহে বড় প্রাপ্তি।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে নির্দিষ্ট ২০ ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে ১৩৩ রানে শেষ হয়ে যায় পঞ্জাবের ইনিংস। মহসিন খান একাই ৩ উইকেট নেন। ক্রুনাল পাণ্ডিয়া এবং দুষমন্ত চামেরা ২টি করে উইকেট নেন। রবি বিষ্ণোই নেন ১টি উইকেট। ২০ রানে ম্যাচ জিতে যায় ল

বন্ধ করুন