বাংলা নিউজ > ময়দান > আইপিএল-2021 > আতঙ্কিত ওয়ার্নাররা, মলদ্বীপে তাঁরা যেখানে রয়েছেন, তার কাছেই ভেঙে পড়ল চিনের রকেট
অন্য আতঙ্ক গ্রাস করেছে স্মিথ, ওয়ার্নার, কামিন্সদের।
অন্য আতঙ্ক গ্রাস করেছে স্মিথ, ওয়ার্নার, কামিন্সদের।

আতঙ্কিত ওয়ার্নাররা, মলদ্বীপে তাঁরা যেখানে রয়েছেন, তার কাছেই ভেঙে পড়ল চিনের রকেট

  • ওয়ার্নররা জানিয়েছেন, সোমবার ভোর সাড়ে পাঁচটা নাগাদ একটি বিকট শব্দে তাঁদের ঘুম ভেঙে গিয়েছিল। পরে জানতে পারে, তাদের থেকে খুব কাছেই ভারত মহাসাগরের উপর চিনের একটি রকেট ভেঙে পড়েছে।

আতঙ্ক যেন স্টিভ স্মিথ, প্যাট কামিন্স, গ্লেন ম্যাক্সওয়েল, ডেভিড ওয়ার্নারদের পিছন ছাড়ছে না। ভারতের করোনা সংক্রমণের হাত থেকে বেঁচে মলদ্বীপে গিয়েও স্বস্তিতে আর থাকা হল না আইপিএল ফেরৎ অস্ট্রেলিয়ানদের। কেন? মলদ্বীপের যে জায়গায় ওয়ার্নাররা রয়েছেন, তার খুব কাছেই চিনের একটি রকেট ভেঙে পড়ে। খুব অল্পের জন্যই রক্ষা পেয়েছেন অস্ট্রেলিয়ানরা। কিন্তু নতুন একটা আতঙ্ক তৈরি হয়েছে তাদের মধ্যে!

অস্ট্রেলিয়ার ক্রিকেটার, কোচ, সাপোর্ট স্টাফ, ম্য়াচ অফিসিয়াল, ধারাভাষ্যকর সব মিলিয়ে মোট ৩৭ জন অস্ট্রেলিয়ান এই মুহূর্তে মলদ্বীপে রয়েছেন। করোনার জেরে আইপিএল স্থগিত হয়ে যাওয়ার পর তারা ভারত থেকে মলদ্বীপে গিয়ে দেশে ফেরার জন্য অপেক্ষা করছে। এই পরিস্থিতিতে বড় একটি অঘটনের হাত থেকে তারা রক্ষা পেয়েছে।

ওয়ার্নররা জানিয়েছেন, সোমবার ভোর সাড়ে পাঁচটা নাগাদ একটি বিকট শব্দে তাঁদের ঘুম ভেঙে গিয়েছিল। পরে জানতে পারে, তাদের থেকে খুব কাছেই ভারত মহাসাগরের উপর চিনের একটি রকেট ভেঙে পড়েছে। 

মহাশূন্যের উদ্দেশ্যে একটি রকেট পাঠিয়েছিল চিন। কিন্তু সেটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ভারত মহাসাগরেই ভেঙে পড়ে যায়। এবং সেটি ওয়ার্নার, ম্যাক্সওয়েল, কামিন্সরা যেখানে রয়েছেন, তার থেকে একদমই কাছে।

একেই ভারত-অস্ট্রেলিয়ার বিমান যোগাযোগ বন্ধ করে দেওয়ার কারণে দেশে ফিরতে পারেননি আইপিএল ফেরৎ অস্ট্রেলিয়ানরা। এখন মলদ্বীপে তাঁদের কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে। তার পরে দেশে ঢোকার ছাড়প্ত্র পাবে তাঁরা। তবে এই মুহূর্তে মলদ্বীপে করোনা আতঙ্ক না থাকলেও, অন্য আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে। সময়টা সত্যিই খারাপ যাচ্ছে ওয়ার্নারদের!

বন্ধ করুন