বাংলা নিউজ > ময়দান > আইপিএল-2021 > পরপর চারজন ব্যাটসম্যান শূন্য রানে আউট, অল্পের জন্য IPL-এ কোচির লজ্জার নজির ছোঁয়া থেকে বেঁচে গেল KKR
পরপর শূন্য রানে আউট কলকাতার চার ব্যাটসম্যান। ছবি- আইপিএল।
পরপর শূন্য রানে আউট কলকাতার চার ব্যাটসম্যান। ছবি- আইপিএল।

পরপর চারজন ব্যাটসম্যান শূন্য রানে আউট, অল্পের জন্য IPL-এ কোচির লজ্জার নজির ছোঁয়া থেকে বেঁচে গেল KKR

  • দিল্লির বিরুদ্ধে খাতা খোলার আগেই পরপর সাজঘরে ফেরেন কার্তিক, মর্গ্যান, শাকিব ও নারিন।

দিল্লির বিরুদ্ধে আইপিএল ২০২১-এর দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ারে কেকেআর উত্তেজক জয় ছিনিয়ে নেয় বটে, তবে হতাশাজনক একটি নজিরও গড়েন নাইট তারকারা। ইনিংসের মাঝে পরপর ব্যাটসম্যানদের শূন্য রানে আউট হওয়ার ক্ষেত্রে এক লজ্জাজনক অধ্যায় রচনা করে কলকাতা।

শারজায় কলকাতার প্রথম চারজন ব্যাটসম্যান শুভমন গিল ৪৬, বেঙ্কটেশ আইয়ার ৫৫, নীতিশ রানা ১৩ ও রাহুল ত্রিপাঠী অপরাজিত ১২ রান করেন। তবে ঠিক তার পরের চার ব্যাটসম্যান দীনেশ কার্তিক, ইয়ন মর্গ্যান, শাকিব আল হাসান ও সুনীল নারিন খাতা খুলতে পারেননি। পরপর চার ব্যাটসম্যান ব্যক্তিগত শূন্য রানে আউট হন। এমনকি নবম ব্যাটসম্যান লকি ফার্গুসন অপরাজিত থাকেন শূন্য রানে। যদিও তিনি কোনও বল খেলার সুযোগ পাননি। তবে উল্লেখযোগ্য বিষয় হল, কলকাতার চার বিদেশি ক্রিকেটার মর্গ্যান, শাকিব, নারিন ও ফার্গুসন, প্রত্যেকেই শূন্য রান করেন।

অবশ্য পরপর ব্যাটসম্যানদের শূন্য রানে আউট হওয়ার ঘটনা আইপিএল এই প্রথম নয়। কলকাতার চারজন ব্যাটসম্যান এমন লজ্জার নজিরে নাম লেখালেও একটানা পাঁচজন ব্যাটসম্যানের শূন্য রানে আউট হওয়ার রেকর্ডও রয়েছে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়র লিগে।

২০১১ সালে কোচিতে ডেকান চার্জার্সের বিরুদ্ধে কোচি টাস্কার্স কেরালার প্রথম ৫টি উইকেটের ক্ষেত্রে ব্যাটসম্যানরা প্রত্যেকে শূন্য রানে আউট হন। সেবার খাতা খুলতে পারেননি ব্রেন্ডন ম্যাকালাম, পার্থিব প্যাটেল, রাইফি গোমেজ, ব্র্যাড হজ ও কেদার যাদব। উল্লেখযোগ্য বিষয় হল, সেই ইনিংসের একেবারে শেষে আরপি সিং আউট হয়েছিলেন শূন্য রানে এবং এস শ্রীসন্ত অপরাজিত ছিলেন শূন্য রান করে। অর্থাৎ, ৭ জন ব্যাটসম্যানের নামের পাশে ছিল শূন্য।

বন্ধ করুন