বাংলা নিউজ > ময়দান > আইপিএল-2021 > ধোনি-রায়াডুর ইনিংস দেখে ঘুম পাচ্ছিল বীরুর! DC বনাম CSK ম্যাচ নিয়ে সেহওয়াগের কটাক্ষ
DC বনাম CSK ম্যাচ নিয়ে সেহওয়াগের কটাক্ষ
DC বনাম CSK ম্যাচ নিয়ে সেহওয়াগের কটাক্ষ

ধোনি-রায়াডুর ইনিংস দেখে ঘুম পাচ্ছিল বীরুর! DC বনাম CSK ম্যাচ নিয়ে সেহওয়াগের কটাক্ষ

  • মহেন্দ্র সিং ধোনি ও আম্বাতি রায়াডুর ইনিংস নিয়ে কটাক্ষ করলেন বীরু। তাদের ব্যাটিং পারফরম্যান্স সম্পর্কে নিজের মতামত শেয়ার করতে গিয়ে সেহওয়াগের দাবি, সিএসকে খেলোয়াড়দের মন্থর ব্যাটিং দেখার পরিবর্তে তার ঘুমানো উচিত ছিল।

চলতি আইপিএল-এর ৫০তম ম্যাচে দিল্লি ক্যাপিটালসের বিরুদ্ধে চেন্নাই সুপার কিংসের ম্যাচ নিয়ে নিজের মন্তব্য জানালেন ভারতের প্রাক্তন ব্যাটার বীরেন্দ্র সেহওয়াগ। এদিনের ম্যাচ নিয়ে বলতে গিয়ে মহেন্দ্র সিং ধোনি ও আম্বাতি রায়াডুর ইনিংস নিয়ে কটাক্ষ করলেন বীরু। তাদের ব্যাটিং পারফরম্যান্স সম্পর্কে নিজের মতামত শেয়ার করতে গিয়ে সেহওয়াগের দাবি, সিএসকে খেলোয়াড়দের মন্থর ব্যাটিং দেখার পরিবর্তে তার ঘুমানো উচিত ছিল।

তার ফেসবুকের একটি শো বিরুগিরি ডট কমের ১৫তম পর্বে, বীরেন্দ্র সেহওয়াগ চেন্নাই সুপার কিংস এবং দিল্লি ক্যাপিটালের মধ্যে ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের ম্যাচ পর্যালোচনা করার সময় বেশ মজা করলেন। তিনি চেন্নাইয়ের ব্যাটিং-এর ইনিংসের ব্যাখ্যা দিতে গিয়ে বলেন, ‘চেন্নাই প্রথমে ব্যাট করে এবং রুতুরাজ গায়কোয়াড় এবং ফাফ ডু'প্লেসিস এবার তাদের জাদু পুনরায় তৈরি করতে পারেননি এবং যথাক্রমে ১৩এবং ১০ রান করার পর আউট হয়ে যান।’

এরপরে তিনি যুক্ত করেন, ‘তারপর রায়নার বদলি, রবিন উথাপ্পা স্ট্রাইকে এসেছিলেন এবং তিনিও ১৯ বলে ১৯ রান করেছিলেন। থালা ধোনি এবং রায়াডু চেষ্টা করেছিলেন কিন্তু রান এত ধীরে ধীরে হচ্ছিল যে আমি ভেবেছিলাম (সেহওয়াগ পরেশ রাওয়ালের মিম শেয়ার করেছেন) 'মাস্ত থোডি ডের সো জাটা হুন' (আমার কিছু সময় ঘুমানো উচিত) ।’ মহেন্দ্র সিং ধোনির ইনিংসের ব্যাখ্যা করতে গিয়ে তিনি মজা করে বলেন, ‘থালা আবার স্টেডিয়ামের বাইরে বল মারবে বলে মনে হচ্ছে কিন্তু ২৭ বলে ১৮ রান। এর পর আবেশ খান ধোনির উইকেট নিয়ে তাকে সাজঘরে ফেরত পাঠান। এবং লিগে ১২ বছরের মধ্যে প্রথমবার, থালা ২৫ টিরও বেশি বল খেলেছেন এবং একটি বাউন্ডারি বা ছক্কা মারেননি।’ 

বীরেন্দ্র সেহওয়াগ মজার ছলে হলেও এদিনের মাহির ব্যাটিং-এর ছবিটা সকলের সামনে তুলেধরেছেন। সমালোচকরা বলতে শুরু করেছেন তাহলে কি এবার মাহির যুগ শেষ হতে চলেছে। কারণ ধোনিকে এমন ব্যাটিং করতে আগে সেভাবে কখনও দেখা যায়নি। দিন্নির কাছে এদিন চেন্নাইয়ের হারটা নানা জল্পনাকে উস্কে দিয়েছে।

বন্ধ করুন