বাংলা নিউজ > ময়দান > আইপিএল-2022 > SRH vs RCB: সেরা ফিনিশারের তকমার মাঝেই সাজঘরে কার্তিকের সামনে মাথা ঝোঁকালেন কোহলি, মুহূর্তে ভাইরাল ভিডিয়ো
কার্তিককে মাথা ঝুঁকিয়ে কুর্নিশ কোহলির। ছবি- টুইটার।

SRH vs RCB: সেরা ফিনিশারের তকমার মাঝেই সাজঘরে কার্তিকের সামনে মাথা ঝোঁকালেন কোহলি, মুহূর্তে ভাইরাল ভিডিয়ো

  • ঝোড়ো ইনিংস খেলে সাজঘরে ফেরার পরে রীতিমতো মাথা নুইয়ে কার্তিককে অভিবাদন জানান বিরাট কোহলি।

মহেন্দ্র সিং ধোনিকে ক্রিকেটের ইতিহাসে অন্যতম সেরা ফিনিশার হিসেবে বিবেচনা করা হয়। তবে দীনেশ কার্তিকের মধ্যেও যে সেই গুণটা রয়েছে, সেটা বোঝা যায় নিদাহাস ট্রফিতে। চলতি আইপিএলে কার্তিক নিজেকে সেই ভূমিকায় যেভাবে তুলে ধরেছেন, তাতে এই মুহূর্তে তাঁকে বিশ্বের সেরা ফিনিশার বলেও ডাকা শুরু হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়।

চলতি আইপিএলে কার্তিকের পারফর্ম্যান্সে মুগ্ধ বিশেষজ্ঞরাও। সাধারণ ক্রিকেটপ্রেমীরা সেখানে প্রাক্তন নাইট অধিনায়ককে নিয়ে যে উচ্ছ্বসিত হবেন, সেটা অতি স্বাভাবিক বিষয়।

আরও পড়ুন:- SRH vs RCB: একাই ৫ উইকেট ১০.৭৫ কোটির হাসারাঙ্গার, হায়দরাবাদকে হারিয়ে প্লে-অফের পথে বড়সড় পদক্ষেপ আরসিবির

টুর্নামেন্টের শুরু থেকেই ব্যাট হাতে ঝড় তুলে চলেছেন কার্তিক। সংক্ষিপ্ত অথচ কার্যকরী ইনিংস খেলে অপরাজিত থাকছেন অভিজ্ঞ উইকেটকিপার-ব্যাটসম্যান। তবে ওয়াংখেড়ে স্টেডিয়ামে ১টি চার ও ৪টি ছক্কার সাহায্যে ৮ বলে ৩০ রানের ঝোড়ো ইনিংস খেলার পরে বিরাট কোহলিকেও মোহিত দেখায় দীনেশ কার্তিকে।

ফজলহক ফারুকির শেষ ওভারে পরপর ৩টি ছক্কা ও ১টি চার মেরে সাজঘরে ফেরার পরে কার্তিককে মাথা নীচু করে কুর্নিশ জানান বিরাট কোহলি। এমন মুহূর্তের ভিডিয়োটি ভাইরাল হয়ে যায় মুহূর্তে।

আরও পড়ুন:- SRH vs RCB: ৬,৬,৬,৪, শেষ ওভারে ফের জ্বলে উঠল কার্তিকের ব্যাট, T20 বিশ্বকাপের দলে ঢোকার জোরালো দাবি, ভিডিয়ো

ব্যাট হাতে যেরকম ধারাবাহিকতা দেখাচ্ছেন কার্তিক, তাতে তাঁর টি-২০ বিশ্বকাপের দলে জায়গা পাকা বলে মনে করছেন অনেকেই। প্রাক্তন ইংল্যান্ড অধিনায়ক মাইকেল ভনও সেই দলেই নাম লিখিয়েছেন।

আইপিএল ২০২২-এ ব্যাট হাতে কার্তিকের তাণ্ডব:-
বনাম পঞ্জাব: ৩টি চার ও ৩টি ছক্কার সাহায্যে ১৪ বলে অপরাজিত ৩২ রান।
বনাম কেকেআর: ১টি চার ও ১টি ছক্কার সাহায্যে ৭ বলে অপরাজিত ১৪ রান।
বনাম রাজস্থান: ৭টি চার ও ১টি ছক্কার সাহায্যে ২৩ বলে অপরাজিত ৪৪ রান।
বনাম মুম্বই: ১টি ছক্কার সাহায্যে ২ বলে অপরাজিত ৭ রান।
বনাম চেন্নাই: ২টি চার ও ৩টি ছক্কার সাহায্যে ১৪ বলে ৩৪ রান।
বনাম দিল্লি: ৫টি চার ও ৫টি ছক্কার সাহায্যে ৩৪ বলে অপরাজিত ৬৬ রান।
বনাম লখনউ: ১টি ছক্কার সাহায্যে ৮ বলে অপরাজিত ১৩ রান।
বনাম চেন্নাই: ১টি চার ও ২টি ছক্কার সাহায্যে ১৭ বলে অপরাজিত ২৬ রান।
বনাম হায়দরাবাদ: ১টি চার ও ৪টি ছক্কার সাহায্যে ৮ বলে অপরাজিত ৩০ রান।

বন্ধ করুন