বাংলা নিউজ > ময়দান > ISL 2020-21: কৃষ্ণার গোলেও হার বাঁচল না মোহনবাগানের
গোলের পর কৃষ্ণা ও গ্যালেগো। ছবি- আইএসএল।
গোলের পর কৃষ্ণা ও গ্যালেগো। ছবি- আইএসএল।

ISL 2020-21: কৃষ্ণার গোলেও হার বাঁচল না মোহনবাগানের

  • এটিকের কাছ থেকে ৩ পয়েন্ট ছিনিয়ে নিয়ে গেল খালিদ জামিলের নর্থ-ইস্ট ইউনাইটেড।

বিপদের সঙ্গী রয় কৃষ্ণা গোল করলেন বটে, তবে হার এড়াতে পারল না এটিকে-মোহনবাগান। খালিদ জামিলের নর্থ-ইস্ট ইউনাইটেড বোধহয় জিতে তবেই মাঠ ছাড়ার সংকল্প করেছিল। শেষমেশ তারা ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়নদের কাছ থেকে ৩ পয়েন্ট কেড়ে নিয়ে তবেই ক্ষান্ত হয়।

কোচ বদলে ড্রেসিংরুমের পরিবেশ বদলাতে চেয়েছিল নর্থ-ইস্ট। খালিদের হাতে দায়িত্ব তুলে দিয়ে তারা যে ভুল করেনি, সেটা প্রমাণ হয়ে যায় এটিকে ম্যাচেই। ইস্টবেঙ্গলের হেড কোচ হিসেবে কাজ করার পর মোহনবাগান ম্যাচের চাপ সামলানোর অভ্যাস ছিল খালিদের। সেই অভিজ্ঞতাই তিনি আইএসএলে কাজে লাগালেন।

মোহনবাগানের প্রথমার্ধে সতর্ক থাকার পরিকল্পনার সঙ্গে পরিচিত ছিলেন খালিদ। তাই বাড়তি প্রচেষ্টায় শুরুতেই এটিকের ডিফেন্স ভাঙার চষ্টা করেনি নর্থ-ইস্ট। বরং দ্বিতীয়ার্ধে মোহনবাগানের আগ্রাসী রূপ ধরার অপেক্ষায় ছিলেন তিনি। ম্যাচের শেষ খালিদ নিজেই জানান যে, বিরতিতে ফুটবলারদের বলেন, ‘এবার স্বাভাবিক খেলা খেলো।’ গেম প্ল্যান সফল হয় তাতেই।

দ্বিতীয়ার্ধে গোল করে এগিয়ে যায় নর্থ-ইস্ট। ৬০ মিনিটে মাচাদোর গোলে তারা ১-০ লিড নিয়ে নেয়। যদিও প্রতিপক্ষ দলে কৃষ্ণার মতো ফুটবলার থাকলে ১ গোলের ব্যবধান কখনই নিরাপদ নয়। সেটা বোঝা যায় কিছুক্ষণের মধ্যেই। ৭২ মিনিটে কৃষ্ণার গোলেই ম্যাচে ১-১ সমতা ফেরায় এটিকে। শেষে ৮১ মিনিটে গ্যালেগো গোল করে নর্থ-ইস্টকে ২-১ গোলে পুনরায় এগিয়ে দেন। বাকি সময়ে নিজেদের দূর্গ রক্ষা করে ম্যাচ বার করে নেয় নর্থ-ইস্ট।

এই জয়ের সুবাদে নর্থ-ইস্ট ১৩ ম্যাচে ১৮ পয়েন্ট নিয়ে লিগ টেবিলের ৫ নম্বরে উঠে আসে। চার নম্বরে থাকা হায়দরাবাদের সঙ্গে তাদের পয়েন্ট সমান। সুতরাং, যে কোনও মুহূর্তে প্রথম চারে উঠে আসতে পারেন জামিলরা। অন্যদিকে, মোহনবাগান ১৩ ম্যাচে ২৪ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানেই থেকে যায়। যদিও জিতলে মুম্বই সিটি এফসির সঙ্গে পয়েন্টর ব্যবধান কমিয়ে ফেলার সুযোগ ছিল হাবাসদের সামনে। সেই সুযোগ আপাতত কাজে লাগাতে ব্যর্থ এটিকে।

বন্ধ করুন