বাংলা নিউজ > ময়দান > এই নিয়ে ১১টির মধ্যে ১০টি হোম সিরিজ জিতল টাইগার্সরা, বধ হয়েছিল ভারতও
সিরিজ জেতার পরে বাংলাদেশ দলের সেলিব্রেশন (ছবি: গুগল)
সিরিজ জেতার পরে বাংলাদেশ দলের সেলিব্রেশন (ছবি: গুগল)

এই নিয়ে ১১টির মধ্যে ১০টি হোম সিরিজ জিতল টাইগার্সরা, বধ হয়েছিল ভারতও

  • ২০১৫ সালের বিশ্বকাপের পর থেকে ঘরের মাঠে ১১টা একদিনের সিরিজ খেলেছে বাংলাদেশ। যারমধ্যে তারা জিতেছে ১০টি সিরিজ। হেরেছে টিম ইন্ডিয়াও।

নিজেদের ঘরের মাঠে বেশ শক্তিশালী টাইগার্সরা। ২০১৫ সালের বিশ্বকাপের পর থেকে ঘরের মাঠে ১১টা একদিনের সিরিজ খেলেছে বাংলাদেশ। যারমধ্যে তারা জিতেছে ১০টি সিরিজ। হেরেছে টিম ইন্ডিয়াও। দেশের মাটিতে খেলা মানেই অনেকটাই এগিয়ে থাকে বাংলাদেশ। শতকরার হিসাব হোক কিমবা, সিরিজ জয়ের রেকর্ড সবতেই বাকি অনেককেই পিছনে ফেলেছে বাংলাদেশ। বাংলাদেশ শ্রীলঙ্কা একদিনের সিরিজের শেষ ম্যাচের আগে পর্যন্ত ঘরের মাঠে টানা ৯টা একদিনের ম্যাচ জিতেছিল বাংলাদেশ। তার আগে ২০১৪ সালে জিম্বাবোয়ে সিরিজ থেকে ২০১৫ সালের ভারত সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচ পর্যন্ত টানা ১০ ম্যাচ জিতেছিল মাশরাফি মোর্তাজার বাংলাদেশ।   

ফলে বর্তমানে কোনও দল যদি বাংলাদেশ সফরে যায় তাহলে তাদের বেশ সতর্ক থাকতেই হবে। পরিসংখ্যান তো তাই বলছে। টাইগার্সরা ২০১৫ সাল থেকে ঘরের মাঠে সেভাবে কোনও প্রতিপক্ষকে দাঁত ফোটাতেই দেয়নি। ২০১৫ সালে নিজেদের ঘরের মাঠে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ৩-০ সিরিজ জিতেছিল টাইগার্সরা। এরপর ভারতের বিরুদ্ধে ২-১ সিরিজ জিতেছিল। ২০১৫ থেকে ২০১৬র মধ্যে ইংল্যান্ড সিরিজ বাদ দিলে ৬টার মধ্যে ৫টা সিরিজ জিতেছিল বাংলাদেশ। তবে ২০১৮ সালের পর থেকে এখনও পর্যন্ত ঘরের মাঠে কোনও একদিনের সিরিজ হারেনি বাংলাদেশ। টাইগার্সরা যাদের হারিয়েছে সেই তালিকায় রয়েছে জিম্বাবোয়ে, ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও শ্রীলঙ্কার নাম।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও জিম্বাবোয়েকে ঘরের মাঠে দু’বার করে হারিয়েছিল বাংলাদেশ। শেষবার হারাল শ্রীলঙ্কাকে। শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে সিরিজ জিতে ঘরের মাঠে একদিনের সিরিজে নিজেদের শক্তিকে বিশ্ব দরবারে দেখিয়ে দিল বাংলাদেশ। গত পাঁচ বছরে দেশের মাটিতে বাংলাদেশ মোট ২৬টি একদিনের ম্যাচ খেলেছে। যার মধ্যে ১৯টিতেই জয় পেয়েছে বাংলাদেশ। বাংলাদেশ-শ্রীলঙ্কা সিরিজের শেষ ম্যাচের আগে পর্যন্ত জয়ের হারে সকলকে পিছনে ফেলেছিল বাংলাদেশ। তবে সিরিজের শেষ ম্যাচ হারতে নিউজিল্যান্ড ও দক্ষিণ আফ্রিকার থেকে একটু পিছিয়ে গেল তারা।

বন্ধ করুন