বাংলা নিউজ > ময়দান > বুমরাহ ছিল না বলে হেরেছি, হার্দিকের অসহায় স্বীকারোক্তি
হার্দিক পান্ডিয়া ও জসপ্রীত বুমরাহ (ছবি-টুইটার)

বুমরাহ ছিল না বলে হেরেছি, হার্দিকের অসহায় স্বীকারোক্তি

  • হার্দিক পান্ডিয়া আরও বলেন, ‘দলে জসপ্রীতের অনুপস্থিতি বড় পার্থক্য তৈরি করছে। সে ইনজুরি থেকে ফিরে আসছে, এটা তাঁর জন্য গুরুত্বপূর্ণ যে সে ফিরে আসার পর্যাপ্ত সময় পাবে এবং নিজের উপর সে যেন খুব বেশি চাপ না দেয়।’ 

মঙ্গলবার মোহালিতে মুখোমুখি হয়েছিল ভারত ও অস্ট্রেলিয়ার। দুই দেশের চলতি টি টোয়েন্টি সিরিজের প্রথম T20I ম্যাচে টিম ইন্ডিয়াকে চার উইকেটে হারিয়েছে অস্ট্রেলিয়া। এই ম্যাচে তারকা পেসার জসপ্রীত বুমরাহকে টিম ইন্ডিয়ার প্লেয়িং ইলেভেনে সুযোগ দেওয়া হয়নি। চোট কাটিয়ে ক্রিকেট মাঠে ফিরছেন তিনি। ভারতীয় অলরাউন্ডার হার্দিক পান্ডিয়াও এই ম্যাচের পর বুমরাহকে নিয়ে কথা বলেছেন। হার্দিক বলেন, চোট কাটিয়ে উঠতে এই ফাস্ট বোলারকে যথেষ্ট সময় দেবে দল।

তারকা অলরাউন্ডার হার্দিক পান্ডিয়া বলেছেন, এই কিংবদন্তি ফাস্ট বোলারকে দল বেশি চাপ দেবে না। হার্দিক আরও বলেছেন যে টিম ইন্ডিয়া বুমরাহকে চোট থেকে ফিরে আসার জন্য যথেষ্ট সময় দেবে। পিঠের চোটের কারণে বুমরাহ ২০২২ এশিয়া কাপ-এর অংশও হতে পারেননি। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের দল ছাড়াও অস্ট্রেলিয়া ও দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে দুটি সিরিজেই ভারতীয় দলে জায়গা পেয়েছেন এই তারকা পেসার।

আরও পড়ুন… তানিয়া-সিমরনকে স্ট্যান্ডবাই রেখে এশিয়া কাপের জন্য দল ঘোষণা, স্কোয়াডে রিচা

অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে এই ম্যাচে অপরাজিত ৭১ রান করা হার্দিক পান্ডিয়া বলেছেন, ‘আমরা সবাই জানি সে (বুমরাহ) কী করতে পারে এবং একজন খেলোয়াড় আমাদের জন্য কতটা গুরুত্বপূর্ণ। কিছু উদ্বেগ থাকতে পারে (বোলিং নিয়ে) কিন্তু আমি মনে করি না এতে কোনও সমস্যা আছে। আমাদের খেলোয়াড়দের ওপর আস্থা রাখতে হবে। এরা দেশের সেরা ১৫ জন খেলোয়াড় এবং সে কারণেই তারা দলে আছে।’ 

হার্দিক পান্ডিয়া আরও বলেন, ‘দলে জসপ্রীতের অনুপস্থিতি বড় পার্থক্য তৈরি করছে। সে ইনজুরি থেকে ফিরে আসছে, এটা তাঁর জন্য গুরুত্বপূর্ণ যে সে ফিরে আসার পর্যাপ্ত সময় পাবে এবং নিজের উপর সে যেন খুব বেশি চাপ না দেয়।’

আরও পড়ুন… ভিডিয়ো: আউট হয়েও মাঠ ছাড়ছিলেন না স্মিথ! দেখুন এরপরে রোহিত কী করলেন?

মোহালিতে ঝড়ো ব্যাটিং করেছেন হার্দিক পান্ডিয়া। ৩০ বলে ৭১ রানের অপরাজিত ইনিংস খেলেছেন তিনি। হার্দিক নিজের ইনিংসে সাতটি চার ও পাঁচটি ছক্কা মেরেছেন। তিনি ছাড়াও কেএল রাহুল ৩৫ বলে ৫৫ রান যোগ করেন এবং তিনি নিজের ইনিংসে চারটি চার, তিনটি ছক্কা মেরেছিলেন। ভারত ৬ উইকেটে ২০৮ রান করলেও অস্ট্রেলিয়া দল চার বল বাকি থাকতেই সেই লক্ষ্য অর্জন করে। ওপেনার ক্যামেরন গ্রিন ৩০ বলে ৬১ রান করে ম্যাচের সেরা হয়েছেন। এদিনের জয়ের ফলে ভারত বনাম অস্ট্রেলিয়ার টি টোয়েন্টি সিরিজে ১-০ এগিয়ে গেল অ্যারন ফিঞ্চের দল।

বন্ধ করুন