জাতীয় দলের দুই সতীর্থ বুমরাহ ও চাহাল। ছবি- এএফপি।
জাতীয় দলের দুই সতীর্থ বুমরাহ ও চাহাল। ছবি- এএফপি।

স্বপ্নই দেখতে থাকো, ট্রোলের জবাবে মুম্বই ইন্ডিয়ান্সকে বাস্তবের মাটিতে টেনে আনলেন চাহাল

  • এভাবে ইটের জবাবে চাহালের দিক থেকে পাথর উড়ে আসবে, তা বোধহয় স্বপ্নেও ভাবেনি পল্টনরা।

চেহারার মতোই হালকা মেজাজ। বাউন্ডারির বাইরে সদা-রসিক স্বভাবের হলেও মাঠের লড়াইয়ে দেখা যায় অন্য ছবি। তাবড় তাবড় ব্যাটসম্যানদের নিজের রিস্ট স্পিনে বিব্রত করেন যুজবেন্দ্র চাহাল। মাঝে মাঝে ব্যাটসম্যানদের চোখে চোখ রেখে স্লেজিংও করতে দেখা যায় টিম ইন্ডিয়ার তারকা স্পিনারকে।

এহেন চাহালকে সোশ্যাল মিডিয়ায় ট্রোল করার চেষ্টা করে আইপিএল ফ্র্যাঞ্চাইজি মুম্বই ইন্ডিয়ান্স। তবে এভাবে ইটের জবাবে চাহালের দিক থেকে পাথর উড়ে আসবে, তা বোধহয় স্বপ্নেও ভাবেনি পল্টনরা।

মুম্বই ইন্ডিয়ান্সের অফিসিয়াল টুইটার হ্যান্ডেলে একটি গ্রাফিক্স পোস্ট করা হয়। মুম্বইয়ের জার্সিতেই চাহাল ও বুমরাহর ছবির মাঝে VS বসিয়ে যুযুধান প্রতিপক্ষ করে তোলা হয় টিম ইন্ডিয়ার দুই সতীর্থকে। ক্যাপশনে লেখা হয়, 'আপনারা কি দেখতে চান বুমরাহ বল করছেন চাহালকে? অনুমান করুন ওভারটা কেমন হবে।'

অনুরাগীরা নিজেদের মতো করে মজাদার সব জবাব দিতে থাকেন। কেউ লেখেন, 'রোহিত আউট করতে বারণ করবেন। কারণ ওটা মেডেন ওভার হবে।' আবার কেউ বলেন 'চাহালের যা আত্মবিশ্বাস, তাতে গোটা দু'য়েক ছক্কা হাঁকিয়ে দেবেন।'

ব্যক্তিগত এই লড়াই নিয়ে আলোচনা দু'দলের সমর্থকরা দলগত প্রতিদ্বন্দ্বিতায় টেনে নিয়ে যান। একে অপরের বিরুদ্ধে পরিসংখ্যান তুলে ধরে চলতে থাকে তোপ দাগা। তবে চাহাল এসবের ধার ধারেননি। তিনি পালটা জবাব দেন নিজের ভঙ্গিতেই।

চাহাল লেখেন, 'স্বপ্নই দেখতে থাকো। আমি ব্যাট করি ১০-১১ নম্বরে। আমার আগে ফিঞ্চ, ABD স্যার, কিং কোহলি রয়েছে। আগে ওদের আউট করে দেখাও, পরে আমার ব্যাটিং নিয়ে আলোচনা করা যাবে।'

বন্ধ করুন