বাংলা নিউজ > ময়দান > WTC ফাইনালের নায়ক জেমিসনকে নিয়ে বিরাট ভবিষ্যদ্বাণী সচিন তেন্ডুলকরের
সচিন তেন্ডুলকর। (ফাইল ছবি, সৌজন্য রয়টার্স)
সচিন তেন্ডুলকর। (ফাইল ছবি, সৌজন্য রয়টার্স)

WTC ফাইনালের নায়ক জেমিসনকে নিয়ে বিরাট ভবিষ্যদ্বাণী সচিন তেন্ডুলকরের

  • চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে সাত উইকেট নেওয়ার পাশাপাশি ব্যাট হাতে গুরুত্বপূর্ণ রানও করেন জেমিসন।

বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনালে, প্রথম ইনিংসে পাঁচ এবং শেষ দিনের সকালে দ্বিতীয় ইনিংসে বিরাট কোহলি ও চেতেশ্বর পূজারাকে সাজঘরে ফিরিয়ে নিউজিল্যান্ড দলের জয়ের পথ সুগম করেন কাইল জেমিসন। পাশাপাশি ব্যাট হাতেও গুরুত্বপূর্ণ আক্রমনাত্মক একটি ইনিংস খেলে ম্যাচের সেরা নির্বাচিত হন কিউয়ি অলরাউন্ডার।

এরপরেই দীঘল চেহারার জেমিসনকে নিয়ে চর্চার অন্ত নেই। টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের সময়কালেই ব্ল্যাক ক্যাপসের হয়ে অভিষেক ঘটিয়ে, অল্প সময়ের মধ্যেই নিজের দক্ষতা প্রমাণ করতে সক্ষম হয়েছেন জেমিসন। ফাইনালের পারফরম্যান্সের পর একাধিক বিশেষজ্ঞ জেমিসনের প্রশংসায় পঞ্চমুখ। এবার সেই তালিকায় সামিল হলেন ‘ক্রিকেটের ঈশ্বর’ সচিন তেন্ডুলকরও।

নিজের ইউটিউব চ্যানেল সচিন বলেন, ‘জেমিসন একজন দারুণ বোলার এবং খুব কাজের অলরাউন্ডার। ও খুব শীঘ্রই বিশ্ব ক্রিকেটার অন্যতম সেরা অলরাউন্ডারের হয়ে উঠবে। গত বছরে নিউজিল্যান্ডে যখন আমি ওকে দেখেছিলাম (ভারতের বিরুদ্ধে সিরিজের সময়), তখনই ও আমায় প্রভাবিত করে।’

তবে এখানেই না থেমে সচিন আরও ব্যাখ্যা করে জানান কেন জেমিসন তাঁর সতীর্থ কিউয়ি বোলারদের থেকে আলাদা। ‘সাউদি, ওয়াগনারদের থেকে ও একটু পৃথক ধরণের বোলার। ও পিচে বল ফেলে সিম করানোর চেষ্টা করে। নিউজিল্যান্ড দলের বাকি বোলাররা বেশিরভাগই স্লিপের দিকে বল সুইং করানোর লক্ষ্যে থাকে। জেমিসন নিজের কব্জির বদল করে বেশ কয়েকটি বল ইনসুইং করানোর চেষ্টা করে। আমার ওর মধ্যে যেটা সবচেয়ে ভাল লেগেছে, সেটা হল ওর ধারাবাহিকতা।’ ওকে সবসময় ছন্দে দেখিয়েছে। দাবি ভারতীয় কিংবদন্তীর।

বন্ধ করুন