বাংলা নিউজ > ময়দান > বিরাটদের মেন্টর হতে পারবেন না মাহি? বোর্ডের অ্যাপেক্স কমিটিতে জমা পড়ল অভিযোগ
বিরাট কোহলি ও মহেন্দ্র সিং ধোনি (ছবি:এএনআই) (ANI)
বিরাট কোহলি ও মহেন্দ্র সিং ধোনি (ছবি:এএনআই) (ANI)

বিরাটদের মেন্টর হতে পারবেন না মাহি? বোর্ডের অ্যাপেক্স কমিটিতে জমা পড়ল অভিযোগ

  • মহেন্দ্র সিং ধোনির বিরুদ্ধে স্বার্থের সংঘাতের অভিযোগ তোলা হয়েছে। এই মূহুর্তে ধোনি আইপিএল দল চেন্নাই সুপার কিংসের অধিনায়ক। সেই অবস্থায় কি করে ধোনি ভারতীয় দলের মেন্টর হতে পারেন, তা নিয়ে প্রশ্ন তুলে চিঠি দিয়েছেন মধ্যপ্রদেশ ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের লাইফ মেম্বার সঞ্জীব গুপ্তা।

শুভব্রত মুখার্জি: আমিরশাহিতে আর কয়েকদিন পরেই অনুষ্ঠিত হতে চলেছে টি-২০ বিশ্বকাপ। ইতিমধ্যেই সেই লক্ষ্যে বিভিন্ন দেশ তাদের জাতীয় স্কোয়াড ঘোষণা করেছে। বিরাটদের জাতীয় স্কোয়াডও ঘোষণা করা হয়েছে। যাতে রয়েছে দু'দুটি বড় চমক। প্রথমটি প্রায় বছর পাঁচেক পরে অশ্বিনের টি-২০ দলে প্রত্যাবর্তন। দ্বিতীয়টি অবশ্যই ভারতীয় দলের মেন্টর হিসেবে ধোনির নিয়োগ। তবে আদৌ ধোনি এই পদে বিশ্বকাপ চলাকালীন দায়িত্ব সামলাতে পারবেন কিনা তা নিয়ে জোর জল্পনা শুরু হয়েগিয়েছে। তার বিরুদ্ধে বিসিসিআইয়ের অ্যাপেক্স কাউন্সিলে অভিযোগ জমা পড়েছে। শুধু বোর্ডে অ্যাপেক্স কমিটি কেন, বোর্ডের সভাপতি সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় ও জয় শাহের কাছেও অভিযোগ জমা পড়েছে।

মহেন্দ্র সিং ধোনির বিরুদ্ধে স্বার্থের সংঘাতের অভিযোগ তোলা হয়েছে। লোধা কমিটির সুপারিশ অনুযায়ী এক ব্যক্তি এক সময়ে একসঙ্গে দুটি পদে থাকতে পারে না। এই মূহুর্তে ধোনি আইপিএল দল চেন্নাই সুপার কিংসের অধিনায়ক। সেই অবস্থায় কি করে ধোনি ভারতীয় দলের মেন্টর হতে পারেন, তা নিয়ে প্রশ্ন তুলে চিঠি দিয়েছেন মধ্যপ্রদেশ ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশনের লাইফ মেম্বার সঞ্জীব গুপ্তা। তার মতে, ধোনির নিয়োগ স্বার্থের সংঘাতের কোডকে অগ্রাহ্য করছে এবং তা বেআইনি।

বিসিসিআইয়ের সংবিধানের ৩৮(৪) ধারাকে উল্লেখ করে তিনি এই নিয়োগকে চ্যালেঞ্জ করেছেন। এই বিষয়ে অ্যাপেক্স কাউন্সিল তার আইনি দলের সহায়তা নেবে তারপরেই তাদের সিদ্ধান্ত জানাবে। উল্লেখ্য মাত্র একদিন আগে জয় শাহের তরফে ধোনিকে ভারতীয় টি ২০ বিশ্বকাপ দলের মেন্টর ঘোষণা করা হয়েছিল। উল্লেখ্য এই ধোনির নেতৃত্বে ভারতীয় দল ২০০৭ সালে টি ২০ এবং ২০১১ সালে ওয়ানডে বিশ্বকাপ জিতেছিল। সেই ধোনির অভিজ্ঞতাকেই কাজে লাগাতে চেয়েছে ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ড। সেখানেই এ বার স্বার্থের সংঘাতের সংকট।

বন্ধ করুন