বাংলা নিউজ > ময়দান > রাজনীতির বাইশগজে লম্বা ইনিংস খেলতে চান মনোজ তিওয়ারি
রাজনীতির আঙিনায় প্রতিপক্ষ মনোজ-দিন্দা। ছবি- টুইটার।
রাজনীতির আঙিনায় প্রতিপক্ষ মনোজ-দিন্দা। ছবি- টুইটার।

রাজনীতির বাইশগজে লম্বা ইনিংস খেলতে চান মনোজ তিওয়ারি

  • ভোটের ময়দানে দিন্দাকে বাউন্ডারি হাঁকানোর জন্য মুখিয়ে রয়েছেন তারকা ব্যাটসম্যান।

এখনও প্রতিযোগিতামূলক ক্রিকেট থেকে অবসর নেননি। তার আগেই রাজনীতির আঙিনায় নতুন ইনিংস শুরু করতে চলেছেন বাংলার প্রাক্তন অধিনায়ক মনোজ তিওয়ারি। অন্যদিকে, অশোক দিন্দা ক'দিন আগেই পেশাদার ক্রিকেটকে বিদায় জানিয়েছেন। খেলা থেকে অবসর ঘোষণার পরে রাজনীতির ময়দানে নতুন খেলায় নাম লিখিয়েছেন টিম ইন্ডিয়া তথা বাংলা দলের প্রাক্তন পেসার দিন্দাও। উল্লেখযোগ্য বিষয় হল এই যে, বাংলা দলের দুই সতীর্থ বছরের পর বছর কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে লড়াই চালিয়েছেন প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে। তবে রাজনীতির বাইশগজে তাঁরা নিজেরাই এখন একে অপরের প্রতিপক্ষ।

মনোজ তিওয়ারি শিবপুর কেন্দ্র থেকে টিএমসির হয়ে বিধানসভা নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। দিন্দা বিজেপির টিকিটে ভোটে দাঁড়িয়েছেন ময়না কেন্দ্র থেকে। রাজনীতির আঙিনায় দুই বন্ধুর এই সম্মুখসমর নিয়ে মুখ খুললেন মনোজ। তিনি জানালেন, রাজনীতির বাইশগজে লম্বা ইনিংস খেলাই তাঁর লক্ষ্য। মনোজ এটা জানাতেও ভোলেননি যে, নতুন এই ইনিংসে দিন্দার বলে বাউন্ডারি হাঁকানোর জন্য মুখিয়ে রয়েছেন তিনি।

সংবাদ সংস্থা পিটিআইকে দেওয়া সাক্ষাত্কারে মনোজ বলেন, ‘এটা ঠিক যে, ভোট না মেটা পর্যন্ত আমরা বন্ধু হতে পারি না। তবে আমরা একই আবাসনে থাকি। দেখা-সাক্ষৎ নিশ্চই হবে। তবে রাজনীতি নিয়ে কোনও আলোচনা হবে না নিশ্চিত। বিজেপিতে যোগ দেওয়া দিন্দার একান্ত নিজস্ব সিদ্ধান্ত। ওর বিষয়টা ওই বলতে পারবে। তবে আমি সঠিক সিদ্ধান্ত নিয়েছি।’

মনোজ আরও বলেন, ‘আমি নিজেকে সেলিব্রিটি হিসেবে দেখি না। আমি কষ্ট করে উঠে এসেছি। মানুষের কষ্টটা বুঝি। আমি বাংলা দলকে অনেক ট্রফি জয়ে নেতৃত্ব দিয়েছি। সুতরাং, নেতৃত্ব দেওয়ার দক্ষতা আমার মধ্যে রয়েছে। রাজনীতির আঙিনাতেও আমি একইভাবে নেতৃত্ব দিতে চাই। আগের মতোই লক্ষ্যটাও থাকবে বাংলার জয়।’

উল্লেখ্য, মনোজ জাতীয় দলের হয়ে ১২টি ওয়ান ডে ও ৩টি আন্তর্জাতিক টি-২০ খেলেছেন। দিন্দা টিম ইন্ডিয়ার হয়ে ১৩টি ওয়ান ডে ও ৯টি আন্তর্জাতিক টি-২০ ম্যাচ খেলেছেন।

বন্ধ করুন