রবিবার ভারত-অস্ট্রেলিয়া টি-টোয়েন্টি ফাইনালে স্ত্রীকে উত্সাহ দেবেন মিচেল স্টার্ক (সৌজন্য-cricket.com.au)
রবিবার ভারত-অস্ট্রেলিয়া টি-টোয়েন্টি ফাইনালে স্ত্রীকে উত্সাহ দেবেন মিচেল স্টার্ক (সৌজন্য-cricket.com.au)

ICC Women's T20 World Cup-ফাইনালে স্ত্রী'র সমর্থনে গলা ফাটাতে দল ছাড়লেন স্টার্ক

  • ঘরের মাঠে স্ত্রীকে বিশ্বকাপ ফাইনালে খেলতে দেখার সুবর্ণ সুযোগ হাতছাড়া করতে চাননি মিচেল স্টার্ক। তাই শনিবার দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে তৃতীয় একদিবসীয় ম্যাচ না খেলেই দেশে ফিরছেন অস্ট্রেলিয়ার এই তারকা পেসার।

বিশ্বকাপের মঞ্চে ফাইনাল ম্যাচে দেশের প্রতিনিধিত্ব করবে স্ত্রী, আর সেই ঐতিহাসিক মূহূর্তের সাক্ষী থাকবেন না স্বামী! তাও কী হয়? কিন্তু কর্তব্য বড় বালাই! সাত সমুদ্র পারে জাতীয় দলের হয়ে ডিউটিতে রয়েছেন স্বামী। কথা হচ্ছে অস্ট্রেলীয় ক্রিকেটের তারকা দম্পতি মিচেল স্টার্ক এবং অ্যালিসা হিলির। রবিবারের মহারণে অস্ট্রেলিয়ার মহিলা ক্রিকেট দলের উইকেট-কিপার ব্যাটসম্যানের ২২ গজের লড়াইটা চাক্ষুস দেখতে চেয়েছিলেন তাঁ স্বামী মিচেল স্টার্ক। তাই ছুটি চেয়ে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার কাছে আবেদন জানিয়েছিলেন এই অজি পেসার। আপতত দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে রয়েছে অস্ট্রেলিয়ার পুরুষ দল। শনিবার পচেস্ট্রুমে প্রোটিয়াদের সঙ্গে তৃতীয় একদিবসীয় ম্যাচে মুখোমুখি ডেবিড ওয়ার্নার-স্টিভ স্মিথরা। ২-০ আগেই সিরিজ জিতে নিয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা, তাই এটা নেহাত নিয়মরক্ষার ম্যাচ। স্টার্কের আবেদনে শুক্রবারই শিলমোহর দিয়ে দেয় অস্ট্রেলিয়ার টিম ম্যানেজমেন্ট। অস্টেলিয়ার কোচ জাস্টিন ল্যাঙ্গার জানান, ‘সারা জীবনে একবারই হয়ত এইরকম স্বর্নিম সুযোগ এসেছে মিচের কাছে, অ্যালিসাকে ঘরের মাঠে বিশ্বকাপ ফাইনাল খেলতে দেখার সুযোগ তাই আমরা খুব খুশি হয়েই ওকে ফিরে যাওয়ার অনুমতি দিয়েছি। স্ত্রীর সমর্থনে গলা ফাটাতে চায় ও। সেই একটা দারুণ ব্যাপার’।

দক্ষিন আফ্রিকা ছাড়ার আগে সাংবাদিকদের মিচেল স্টার্ক জানান, আমি আজকাল নিজে খেলার সময় যত না নার্ভাস থাকি তার চেয়ে বেশি নার্ভাস হয়ে পড়ি অ্যালিসাকে খেলতে দেখে। সেমিফাইনালের ম্যাচের দিন আমরা একসঙ্গে ট্রাভেল করছিলাম বাসে, অন্য ছেলেরাও(অজি ক্রিকেটার) ওদের সমর্থনে গলা ফাটাচ্ছিল। ম্যাচ যত এগিয়েছে আমার টেনশন বেড়েছে তবে বৃষ্টি যে দূরে থেকেছে সেটাই বড় কথা। মেয়েদেরও বেশ শান্ত লাগছিল। তবে অ্যালিসা সব সময়ই শান্ত থাকে। আমাদের বাসের পরিবেশটা বরং বেশি উদ্বেগজনক ছিল।

বিশ্বকাপে দুর্দান্ত ছন্দে রয়েছেন অস্ট্রেলিয়ার উইকেট কিপার ব্যাটসম্যান অ্যালিসা হিলি। ভারতের বিরুদ্ধে প্রথম ম্যাচে অস্ট্রেলিয়া হারলেও ৫১ রানের ইনিংস খেলেছিলেন হিলি। বাংলাদেশের বিরুদ্ধেও ৮৩ রান করেন স্টার্ক পত্নী। তাই ভারতের বিশ্বকাপ জয়ের বড় কাঁটা হতে চলেছেন অ্যালিসা। বিশ্বকাপের মঞ্চে গ্যালারিতে স্বামীর উপস্থিতি যে অ্যালিসার মনোবল আরও খানিকটা বাড়িয়ে দেবে তা বলাই যায়।



বন্ধ করুন