বাংলা নিউজ > ময়দান > শেষ ৮ ম্যাচে দু' অঙ্কের ঘরে পৌঁছতে পারেননি, অধিনায়কের রানের খরা ডোবাল আফগানদের?
পাকিস্তানের বিরুদ্ধে গোল্ডেন ডাক করে সাজঘরে ফেরেন মহম্মদ নবি।

শেষ ৮ ম্যাচে দু' অঙ্কের ঘরে পৌঁছতে পারেননি, অধিনায়কের রানের খরা ডোবাল আফগানদের?

  • শেষ ৮টি আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি ম্যাচে ব্যাট হাতে শোচনীয় অবস্থা মহম্মদ নবির। ৮টি ম্যাচের একটিতেও করতে পারেননি দুই অঙ্কের রান। এখানেই শেষ নয় । এর মধ্যে দু'টি ইনিংসে আবার তিনি করেছেন গোল্ডেন ডাক। বুধবার পাকিস্তানের বিরুদ্ধে ১০০তম টি-টোয়েন্টি খেলতে নেমেছিলেন তিনি। কিন্তু দিনটি স্মরণীয় হয়ে থাকল না।

শুভব্রত মুখার্জি

বিশ্ব ক্রিকেটে এই মুহূর্তে যে টিমগুলো তথাকথিত শক্তিধর দেশগুলোকে কঠিন লড়াইয়ে ফেলছে, তাদের মধ্যে অন্যতম আফগানিস্তান দল। মহম্মদ নবির নেতৃত্বাধীন আফগান দল চলতি এশিয়া কাপে শুরুটা দুর্দান্ত ভাবে করেছিল। শ্রীলঙ্কাকে হারিয়ে তারা অভিযান শুরু করে। যদিও পরবর্তীতে খেই হারিয়ে ফেলে তারা। তবে আফগান দলের সব থেকে বড় সমস্যা তাদের অধিনায়ক মহম্মদ নবির ব্যাটে রানের খরা। আর সেই রানের খরা চলছে দীর্ঘ দিন ধরে। নবি এতটাই অবস্থা খারাপ অবস্থার মধ্যে রয়েছেন যে, দুই অঙ্কের ঘরেই তিনি পৌঁছতে পারেননি শেষ ৮টি ম্যাচে।

শেষ ৮টি আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি ম্যাচে ব্যাট হাতে শোচনীয় অবস্থা মহম্মদ নবির। ৮টি ম্যাচের একটিতেও করতে পারেননি দুই অঙ্কের রান। এখানেই শেষ নয় । এর মধ্যে দু'টি ইনিংসে আবার তিনি করেছেন গোল্ডেন ডাক। অর্থাৎ প্রথম বলেই আউট হয়ে ফিরে গিয়েছেন প্যাভিলিয়নে। পাকিস্তানের বিরুদ্ধে বুধবার এশিয়া কাপের ম্যাচেও তাঁর অন্যথা হল না। এ দিন তিনি ১০০তম টি-টোয়েন্টি খেলতে নেমেছিলেন। কিন্তু দিনটি স্মরণীয় হয়ে থাকল না। দল যখন ব্যাটিং করতে গিয়ে রীতিমতো বিপদে, তখন তিনি ব্যাট হাতে ব্যর্থ হলেন। নূন্যতম লড়াইটুকুও করতে পারলেন না।

আরও পড়ুন: পরপর ২টি ছয় মেরে জেতালেন নাসিম, ফাইনালে পাকিস্তান, আশা শেষ ভারতের

এ দিন নাসিম শাহের বলে নিজের ইনিংসের প্রথম বলেই বোল্ড হয়ে গেলেন নবি। বুধবার প্রথমে ব্যাট করতে নেমে বেশ চাপে পড়ে যায় আফগানিস্তান। ২০ ওভারে ৬ উইকেট হারিয়ে তারা ১২৯ রান করতে সমর্থ হয় পাকিস্তানের বিরুদ্ধে। হরিশ রউফ ২৬ রান দিয়ে নেন ২টি উইকেট। আফগানদের হয়ে সর্বোচ্চ ৩৫ রান করেন ইব্রাহিম জাদরান। ইনিংসের শেষ দিকে ১৫ বলে ১৮ রান করে অপরাজিত থাকেন রশিদ খান।

আরও পড়ুন: গ্রুপের সেকেন্ড বয়দের দাপটে সুপার ফোর থেকেই ছিটকে গেল টপাররা

রান তাড়া করতে নেমে ৪ বলে বাকি থাকতে ১ উইকেটে ম্যাচ জিতে ফাইনালে পৌঁছে গেল পাকিস্তান। পাকিস্তানের হয়ে সর্বোচ্চ রান করেছেন শাদাব খান। ২৬ বলে ৩৬ করেন তিনি। ৩৩ বলে ৩০ করেন ইফতিকার আহমেদ। এ ছাড়া ২৬ বলে ২০ করেছেন মহম্মদ রিজওয়ান। ৮ বলে ১৬ করেছেন আসিফ আলি। শেষে ৪ বলে ১৪ রান করে বাজিমাত করেন নাসিম শাহ। ৯তম ওভারের প্রথম ২ বলে ২টি ছক্কা হাঁকিয়ে ম্যাচ জিতিয়ে দেন নাসিম। এ দিন পাকিস্তান জিতে যাওয়ায় ছিটকে গেল আফগানিস্তান এবং ভারত।

বন্ধ করুন