বাংলা নিউজ > ময়দান > I-League: হার দিয়েই আইলিগ অভিযান শেষ করল মহামেডান
মহমেডান টিম।
মহমেডান টিম।

I-League: হার দিয়েই আইলিগ অভিযান শেষ করল মহামেডান

  • রিয়েল কাশ্মীরের বিরুদ্ধেও মুখ থুবড়ে পড়ল মহমেডান। ২-১ হারতে হল তাদের। লিগ তালিকার ছয়ে শেষ করল তারা।

স্বপ্ন দেখিয়েই এ বারের আই লিগটা শুরু করেছিল মহমেডান। কিন্তু শেষে সঙ্গী শুধুই হতাশা। বৃহস্পতিবার আই লিগের শেষ ম্যাচেও রিয়েল কাশ্মীরের সঙ্গেও ১-২ হারল সাদা-কালো ব্রিগেড। নিট ফল, লিগ তালিকার ছ'নম্বরে শেষ করল মহমেডান।

রিয়েল কাশ্মীরের বিরুদ্ধে একেবারেই ভাল ছন্দে ছিল না মহমেডান। বরং জেতার মরিয়া তাগিদটা কাশ্মীরেরই বেশি দেখা গিয়েছে। ম্যাচের ৩৩ মিনিটে ডানিশ ফারুখ ভাট রিয়েল কাশ্মীরকে এগিয়ে দেন। তারা ব্যবধান বাড়ায় দ্বিতীয়ার্ধের একেবারে শুরুতে। পেনাল্টি থেকে। মেসন রবার্টসনের নিখুঁত শট জালে গিয়ে জড়ায়। ২-০ রিয়েল কাশ্মীর এগিয়ে যাওয়ার পর শঙ্করলাল চক্রবর্তীর ছেলেদের উপর চাপ আরও বাড়ে। যদিও ৭২ মিনিটে পেড্রো মানজি ১-২ করেন। কিন্তু এর পর আরও গোলের মুখ খুলতে পারেনি মহমেডান।

আই লিগে মহমেডানের এই খারাপ পারফরম্যান্স যদি আতসকাঁচের তলায় ফেলে দেখা হয়, তা হলে চৌম্বকে কতকগুলি কারণ উঠে আসে--

১) দলের মধ্যে পেশাদারিত্বের চূড়ান্ত অভাব ছিল।

২) আইএসএলে এ বার বাংলা থেকে দু'টি দল খেলেছে। তা ছাড়া অনেকগুলি দল এই টুর্নামেন্টে খেলে। প্রথম সারির প্লেয়াররা আইএসএল খেলতে চলে যায়। যাঁরা আই লিগের জন্য থেকে যান, তাঁদের প্রস্তুতিটাও ভাল করে হওয়া দরকার, যেটার ঘাটতি মহমেডানে দেখা গিয়েছে।

৩) প্লেয়ার বাছাই করাটাও বড় কাজ। মহমেডানের টিম নির্বাচনটাও সঠিক হয়নি।

৪) লিগের মাঝে  কিনসলে চোট পেয়ে ছিটকে গিয়েছেন। সেই সঙ্গে দেশের হয়ে খেলতে চলে গিয়েছেন জামাল ভুঁইয়া। স্বভাবতই এই দুই প্লেয়ারের না থাকাটাও মহমেডানের পারফরম্যান্স খারাপ হওয়ার বড় কারণ।

৫) শেষ ছয়ে টিম জায়গা করে নেওয়ার পরেও ফুটবলারদের মধ্যে ভাল কিছু করার তাগিদ দেখা যায়নি। ফোকাসটাই সরে গিয়েছিল বলে মনে হয়েছে।

৬) আই লিগের মাঝে ফুটবলারদের বেতন নিয়ে ঝামেলা  হওয়াটাও ফোকাস নষ্ট হওয়ার একটা বড় কারণ।

বন্ধ করুন