বাড়ি > ময়দান > টার্গেট ISL, মহামেডানে বিনিয়োগ করতে চলেছে ব্রিটেনের স্পোর্টস ম্যানেজমেন্ট সংস্থা
অনুশীলনে মহামেডান ফুটবলাররা। ছবি- মহামেডান স্পোর্টিং।
অনুশীলনে মহামেডান ফুটবলাররা। ছবি- মহামেডান স্পোর্টিং।

টার্গেট ISL, মহামেডানে বিনিয়োগ করতে চলেছে ব্রিটেনের স্পোর্টস ম্যানেজমেন্ট সংস্থা

  • মোহনবাগান ও ইস্টবেঙ্গলের পর আইএসএলে দেখা যেতে পারে মহামেডান স্পোর্টিংকে।

বাংলার ফুটবলে রীতিমতো খুশির জোয়ার। এটিকের সঙ্গে জুটি বেঁধে আইএসএল খেলা অনেক আগেই নিশ্চিত করেছে মোহনবাগান। নতুন স্পনসর পেয়ে আইএসএলের বৃত্তে মাথা গলিয়েছে ইস্টবেঙ্গল। এবার ময়দানের তিন প্রধানের শেষ দল মহামেডান স্পোর্টিংয়েরও আইএসএল খেলার সম্ভাবনা উঁকি দিতে শুরু করল। কেননা, নতুন বিনিয়োগকারী পেতে চলেছে শতাব্দী প্রাচীন মহামেডান স্পোর্টিং।

যুক্তরাজ্যের একটি স্পোর্টস ম্যানেজমেন্ট সংস্থা মহামেডানে বিনিয়োগ করতে রাজি বলে খবর। ইস্টবেঙ্গলের সঙ্গে এই সংস্থাটিই ৫ লক্ষ টাকার বিনিময়ে আইপিএলের বিড পেপার তুলেছে বলে শোনা যাচ্ছে। যদিও এই মরশুমে মহামেডানের আইএসএল খেলার সম্ভাবনা নেই। হতে পারে পরের মরশুমের জন্য প্রস্তুতি সেরে রাখার উদ্দেশ্যেই এবার সবদিক খতিয়ে দেখতে শুরু করেছে বিনিয়োগে উদ্যত সংস্থাটি।

আইএসএল ও নতুন বিনিয়োগকারী প্রসঙ্গে এক মহামেডান কর্তা সংবাদ সংস্থা পিটিআইকে বলেন, 'সবার আগে আমাদের আই লিগের যগ্যতা অর্জন করতে হবে। তার পরে আইএসএলের কথা ভাবা যাবে। যতদূর স্পনসরের প্রসঙ্গ, আলোচনা চলছে। দেখা যাক সবকিছু কোন দিকে গড়ায়।'

মহামেডান আপাতত দ্বিতীয় ডিভিশন আই লিগের জন্য প্রস্তুতিতে ব্যস্ত। তাদের প্রধান লক্ষ্যই হল আই লিগের যোগ্যতা অর্জন করা। পরে আই লিগ জিতে আইএসএলের দাবি জানানোর কথা ভাবছে সাদা-কালো ব্রিগেড। সেই লক্ষ্য এবার শক্তিশালী দল গড়েছে মহামেডান।

ক্লাবের ফুটবল সচিব দীপেন্দু বিশ্বাস স্পনসর প্রসঙ্গে এখনই খোলসা করে কিছু জানাতে চাননি। তিনি শুধু বলেন, 'ওয়াসিমরা বিষয়টা দেখছে। ইতিবাচক কথা-বার্তা চলছে। আশা করি চার-পাঁচ দিনের মধ্যেই বিষয়টা চূড়ান্ত হয়ে যাবে।'

শোনা যাচ্ছে সংস্থাটির দিল্লিতে একটি অফিস রয়েছে, যার মাধ্যমেই স্পনসরশিপ সংক্রান্ত বিষয়ে আলোচনা চলছে দু'তরফে। যদিও টাইম অফ ইন্ডিয়া জানিয়েছে যে, এটি একটি ভারতীয় সংস্থা, যাদের অফির রয়েছে ইংল্যান্ডে।

এও শোনা যাচ্ছে যে, বিনিয়োগ করলে ক্লাবের ৪৯ শতাংশ শেয়ারের দখল নেবে সংস্থাটি। ৫১ শতাংশ অর্থাৎ, সংখ্যাগরিষ্ঠ শেয়ার থাকবে ক্লাবের হাতেই।

বন্ধ করুন