বাংলা নিউজ > ময়দান > ভারতীয় জাতীয় নির্বাচক হওয়ার দৌড়ে নাম লেখালেন মোঙ্গিয়া, মনিন্দর সিং, শিবসুন্দর দাস

ভারতীয় জাতীয় নির্বাচক হওয়ার দৌড়ে নাম লেখালেন মোঙ্গিয়া, মনিন্দর সিং, শিবসুন্দর দাস

ভারতীয় জাতীয় নির্বাচক হওয়ার দৌড়ে এগিয়ে কারা

প্রাক্তন ভারতীয় বাঁহাতি স্পিনার মনিন্দর সিং, উইকেট রক্ষক ব্যাটার নয়ন মোঙ্গিয়া এবং ওপেনার শিবসুন্দর দাস ইতিমধ্যেই সেই শূন্যপদের জন্য আবেদন জমা করেছেন। যাদের ভারতের হয়ে ২০টি টেস্ট খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে।

শুভব্রত মুখার্জি : সদ্য শেষ হওয়া টি-২০ বিশ্বকাপে খারাপ পারফরম্যান্সের পরেই ভারতীয় সিনিয়র জাতীয় নির্বাচকদের প্যানেলকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। সেই জায়গায় এবার নয়া নির্বাচকদের প্যানেল তৈরির কাজ শুরু করে দিয়েছে বিসিসিআই। প্রাক্তন ভারতীয় বাঁহাতি স্পিনার মনিন্দর সিং, উইকেট রক্ষক ব্যাটার নয়ন মোঙ্গিয়া এবং ওপেনার শিবসুন্দর দাস ইতিমধ্যেই সেই শূন্যপদের জন্য আবেদন জমা করেছেন। যাদের ভারতের হয়ে ২০টি টেস্ট খেলার অভিজ্ঞতা রয়েছে।

তবে প্রাক্তন পেসার অজিত আগরকর এই পদের জন্য আবেদন জমা দিয়েছেন কিনা সেই বিষয়টা এখনও নিশ্চিত নয়। বিশেষজ্ঞদের অনেকেই মনে করছেন আগরকর আবেদন করলে তাঁর জাতীয় নির্বাচক হওয়া সময়ের অপেক্ষা। এর পাশাপাশি মুম্বই থেকে প্রাক্তন উইকেটরক্ষক ব্যাটার সমীর দীঘে, মুম্বই সিনিয়র দলের নির্বাচকদের চেয়ারম্যান সলিল আঙ্কোলা, বাঁহাতি ব্যাটার বিনোদ কাম্বলি এই পদের জন্য আবেদন করেছেন।

নতুন নির্বাচক মন্ডলীর আবেদনের সময়সীমা সোমবার সন্ধ্যা ৬টাতেই শেষ হয়ে গিয়েছে। সূত্রের খবর, প্রায় ৫০ জন আবেদন জমা পড়েছে। তবে সেই ভাবে হেভিওয়েট প্রার্থী কেউ নেই। যে সমস্ত আবেদন গৃহিত হয়েছে তাঁর মধ্যে নয়ন মোঙ্গিয়া (৪৪ টেস্ট),মনিন্দর সিং (৩৫টি টেস্ট) এবং শিবসুন্দর দাস (২১) এর থেকে বেশি টেস্ট খেলার অভিজ্ঞতা কারুর নেই। ২০২১ সালেও মনিন্দর আবেদন করেছিলেন। ইন্টারভিউ রাউন্ডে পৌঁছানোর পরেও তাঁকে পিছনে ফেলে দেন চেতন শর্মা। মনিন্দর সিংয়ের তুলনায় চেতন শর্মা যদিও টেস্ট অনেকটাই কম খেলেছিলেন। মনিন্দর সিং সংবাদ সংস্থা পিটিআইকে জানিয়েছেন, ‘হ্যা আমি আবেদন করেছি।’

বর্তমানে সিনিয়র পঞ্জাব দলের ব্যাটিং কোচ শিবসুন্দর দাস। পূর্বাঞ্চলের সেই ভাবে টেস্ট খেলিয়ে কেউ না থাকার ফলে নয়া নির্বাচক প্যানেলে দাসের জায়গা প্রায় পাকা বলা যেতে পারে। তবে তাঁর রাজ্য ওড়িশা তাঁর প্রার্থীপদ অনুমোদন করবে কিনা সেই বিষয়টি নিশ্চিত নয়। গত বছর যেহেতু মুম্বই ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন আবে কুরুভিল্লার প্রার্থীপদকে সমর্থন জানিয়েছিল‌ ফলে আগরকারের নির্বাচক হওয়া হয়ে ওঠেনি। উত্তরাঞ্চল থেকে দৌড়ে রয়েছেন মনিন্দর সিং, অতুল ওয়াসন, নিখিল চোপড়া (দিল্লি), অজয় রাতরা, রীতিন্দর সিং সোধি।

পূর্বাঞ্চল থেকে দাসের পাশাপাশি এই দৌড়ে রয়েছেন প্রভঞ্জন মল্লিক, রশ্মি রজ্ঞন পারিদা, শুভময় দাস, শরদিন্দু মুখার্জি এবং সৌরাশিস লাহিড়ী। দীপ দাশগুপ্ত এবং লক্ষ্মীরতন শুক্ল এবার এই পদের জন্য আবেদন করেননি। জুনিয়র নির্বাচকদের তালিকায় রয়েছেন, এস শরথ (তামিলনাড়ু), রনদেব বসু(বাংলা), হরবিন্দর সোধি (মধ্যপ্রদেশ), কৃশান মোহন (পঞ্জাব) এবং পার্থিব প্যাটেল (গুজরাট)। ফলে সিনিয়র নির্বাচকদের ক্ষেত্রে এই এলাকা আর কাউকে বাছাই করা হবে না।

বন্ধ করুন