বাংলা নিউজ > ময়দান > উইম্বলডন আর অলিম্পিক্সে অংশ নেবেন না, জানিয়ে দিলেন নাদাল
রাফায়েল নাদাল। ছবি: রয়টার্স
রাফায়েল নাদাল। ছবি: রয়টার্স

উইম্বলডন আর অলিম্পিক্সে অংশ নেবেন না, জানিয়ে দিলেন নাদাল

  • ফ্রেঞ্চ ওপেন সেমিফাইনালের মাঝপথেই চোট সমস্য়ায় তাঁকে জেরবার হতে হয়েছিল। নোভক জকোভিচের বিরুদ্ধে শেষের দিকে ঠিক করে পারফরম্যান্সই করতে পারেননি রাফায়েল নাদাল।

রাফায়েল নাদালের অনুরাগীদের জন্য একটা বড় দুঃসংবাদ। এই বছর উইম্বলডন এবং টোকিয়ো অলিম্পিক্সে অংশ নেবেন না রাফা। এমনটাই তিনি ঘোষণা করেছেন।

ফ্রেঞ্চ ওপেন সেমিফাইনালের মাঝপথেই চোট সমস্য়ায় তাঁকে জেরবার হতে হয়েছিল। নোভক জকোভিচের বিরুদ্ধে শেষের দিকে ঠিক করে পারফরম্যান্সই করতে পারেননি রাফায়েল নাদাল। প্রথম বার রোলাঁ গারোর সেমিফাইনালে হারের যন্ত্রণা ভোলার আগেই, নাদালের অনুরাগীদের কাছে এটা নিঃসন্দেহে আরও একটা বড় ধাক্কা। নাদাল নিজে টুইট করে উইম্বলডন এবং টোকিয়ো অলিম্পিক্সে যোগ না দেওয়ার সিদ্ধান্তের কথা জানিয়েছেন।

রাফা এ দিন প্রায় একগুচ্ছ টুইট করেছেন। সেখানে তিনি নিজের শারীরিক সমস্য়ার কথা জানিয়েছেন। একটি টুইটে নাদাল লিখেছেন, ‘হায় অল, আমি সিদ্ধান্ত নিয়েছি, এ বারের উইম্বলডন এবং টোকিয়ো অলিম্পিক্সে অংশ গ্রহণ করব না। এটা কখনও-ই সহজ সিদ্ধান্ত ছিল না। কিন্তু আমার শারীরিক সমস্যার কথা ভেবে এবং আমার টিমের সঙ্গে আলোচনা করে আমি বুঝেছি এটাই সঠিক সিদ্ধান্ত।’

আরও একটি টুইটে নাদাল লিখেছেন, ‘আমি নিজের টেনিস জীবন আরও দীর্ঘায়িত করতে চাই। এবং সর্বোচ্চ পর্যায়ে টেনিস খেলে নিজেকেও আনন্দ দিতে চাই।’ তিনি অন্য একটি টুইটে লিখেছেন, ‘রোলাঁ গারো আর উইম্বলডনের মাধে মাত্র ২ সপ্তাহের গ্যাপ রয়েছে।  ক্লে কোর্টে খেলার ধকল নেওয়ার পর আমার শারীরিক অবস্থার উন্নতি হতে কিছুটা সময় লাগবে। শেষ দু’মাস অনেক ধকল গিয়েছে। তাই ভবিষ্যতের কথা ভেবেই এই সিদ্ধান্ত।’

রজার ফেডেরার বৃহস্পতিবারই হ্যাল ওপেনের প্রি-কোয়ার্টার ফাইনালে হেরে গিয়েছেন। তার পর থেকে তাঁর ভবিষ্যৎ নিয়ে অনেকেই প্রশ্ন তুলেছেন। এর পর নাদাল শারীরিক ক্লান্তির কারণে হলেও, উইম্বলডন এবং অলিম্পিক্স থেকে সরে দাঁড়ালেন। ধীরে ধীরে কি দুই কিংবদন্তি ফুরিয়ে আসছেন? জল্পনা শুরু হয়ে গিয়েছে টেনিস মহলে।

বন্ধ করুন