বাংলা নিউজ > ময়দান > টোকিও অলিম্পিক্স > টোকিয়োয় কাটল ৪১ বছরের পদক খরা, পিছিয়ে পড়েও অলিম্পিক্সে ব্রোঞ্জ জয় ভারতের
৪১ বছরের পদক খরা কাটার উচ্ছ্বাস। (ছবি সৌজন্য রয়টার্স)

টোকিয়োয় কাটল ৪১ বছরের পদক খরা, পিছিয়ে পড়েও অলিম্পিক্সে ব্রোঞ্জ জয় ভারতের

  • টোকিয়োয় কাটল ৪১ বছরের পদক খরা। অবশেষে হকিতে পদক পেল ভারত।

দু'মিনিটেই গোল খেতে হয়েছিল। দ্বিতীয় কোয়ার্টারে দেড় মিনিটের ব্যবধানে দুটি গোল খেয়ে কার্যত ম্যাচ থেকে ছিটকে গিয়েছিল। সেখান থেকে ফিনিক্স পাখির মতো উঠে এল ভারত। সাত মিনিটের ব্যবধানে চারটি গোল করে পুরোপুরি খেলা ঘুরিয়ে দিলেন মনপ্রীত সিংরা। সেই হার না মানা মানসিকতার সৌজন্যে অলিম্পিক্সে ৪১ বছরের পদক খরা কাটল ভারতের।  

ভারত বনাম জার্মানি ম্যাচের আপডেট :

  • রূপিন্দর পাল সিং : দুর্দান্ত মুহূর্ত। আমরা সোনার জন্য এসেছিলাম। তবে ব্রোঞ্জ জিতেও দারুণ লাগছে।
  • মস্কোয় সোনা, বেজিংয়ের টিকিট না পাওয়া, টোকিয়োয় ব্রোঞ্জ - ৪১ বছরে হকির Olympics যাত্রা – আরও পড়ুন
  • উচ্ছ্বাস ভারতের। ৪১ বছর পর অলিম্পিক্স পদক জয় ভারতীয় হকি দলের।
  •  খেলার ফাইনাল স্কোর : ভারত ৫ - জার্মানি ৪।
  • টোকিয়োয় কাটল ৪১ বছরের খরা। জার্মানিকে ৫-৪ গোলে হারিয়ে ব্রোঞ্জ জিতল ভারত।
  • পেনাল্টি কর্নার বাঁচিয়ে দিল ভারত। নিজের জীবনের সম্ভবত সবথেকে বড় সেভ করলেন শ্রীজেশ।
  • পেনাল্টি কর্নার ভারতের। ৬.৮ সেকেন্ড বাকি। উচ্ছ্বাস জার্মানির। ভারত কি পারবে রুখতে?
  •  পদক থেকে ভারতের দূরত্ব ১ মিনিটেরও কম, লিড রাখতে পারবে ভারত?
  • আর ২ মিনিট বাকি। লং কর্নার ভারতের। নিজের জীবনের সম্ভবত সবথেকে বড় সেভ করলেন শ্রীজেশ।
  • ২ মিনিট ৪৫ সেকেন্ড বাকি। পেনাল্টি কর্নার পেল ভারতের। রক্ষণাত্মকভাবে ভুল সিদ্ধান্ত টিম ইন্ডিয়ার।
  • ৫৬ মিনিট : গোলকিপারকে তুলে নিল জার্মানি। একজন বাড়তি ফিল্ড খেলোয়াড় নামাল জার্মানি। 
  • আর পাঁচ মিনিট বাকি। এগিয়ে ভারত। খেলার ফল ৫-৪।
  • ৫৫ মিনিট : চোট পেলেন ভারতীয় খেলোয়াড়।
  • দুর্দান্ত সেভ শ্রীজেশের।
  • ৫৪ মিনিট : পেনাল্টি কর্নার জার্মানির। গুরুত্বপূর্ণ মুহূর্ত। ৫-৪ গোলে এগিয়ে ভারত। তবে রীতিমতো বিতর্কিত সিদ্ধান্ত। শ্রীজেশ তেমন কাছে যাননি। কিন্তু ভারতের রেফারাল শেষ। 
  • ৫২ মিনিট : চোট পেয়েছেন মনপ্রীত সিং।
  • ৫১ মিনিট : দুর্দান্ত সুযোগ পেয়েছিল ভারত। একা গোলকিপারকে পেয়েছিলেন মনদীপ। কিন্তু বেশিক্ষণ বল হোল্ড করার মাসুল গুনতে হল। রিভার্স মারতে গিয়ে দুরূপ কোণে চলে গিয়েছিলেন মনদীপ। ভালো ইন্টারসেপ্ট করেছিলেন অমিত রুইদাস।
  • ৪৯ মিনিট : হলুদ কার্ড জার্মান অধিনায়ককে। পাঁচ মিনিট থাকতে হবে বাইরে। ১০ জনে নেমে গেল জার্মানি। ভারতের কাছে ভালো সুযোগ। নিতে পারবে ভারত?
  • ৪৮ মিনিট : গোল করল জার্মানি। শ্রীজেশের পায়ের তলা দিয়ে বল গলে গেল। ৫-৪ গোলে এগিয়ে ভারত। গোল করলেন লুকাস উইনফেডার। টোকিয়োয় তাঁর সপ্তম গোল।
  • ৪৮ মিনিট : পেনাল্টি কর্নার জার্মানির। রক্ষণের ভুলের জন্য পজেশন হাতছাড়া ভারতের। সেখান থেকে পেনাল্টি কর্নার আদায় জার্মানির।
  • রিয়োর ব্রোঞ্জজয়ীকে উড়িয়ে কোয়ার্টারে ভিনেশ, অলিম্পিক্স থেকে ছিটকে গেলেন অংশু – আরও পড়ুন
  • শুরু চতুর্থ কোয়ার্টারের খেলা। ৪১ বছরের খরা কাটানো থেকে ১৫ মিনিট দূরে ভারত।
  • শেষ তৃতীয় কোয়ার্টারের খেলা। ভারত এগিয়ে ৫-৩-তে গোলে এগিয়ে। কী দুর্ধর্ষ ১৫ মিনিট কাটল ভারতের জন্য। শেষের দিকে জার্মানি কয়েকটি আক্রমণ তুললেও মজবুত থাকল ভারতের রক্ষণ।
  • ফের অন্যরকমভাবে চেষ্টা। তবে অল্পের জন্য গোলভ্রষ্ট।
  •  অন্যরকমভাবে মারতে গিয়েছিল জার্মানি। গোল হয়নি। তবে আবারও পেনাল্টি কর্নার।
  • আবারও পেনাল্টি কর্নার।
  • ৪৩ মিনিট : পেনাল্টি কর্নার জার্মানির। গুরুত্বপূর্ণ মুহূর্ত জার্মানির জন্য।
  • তবে জার্মানির খেলোয়াড়ের হলুদ কার্ড সবুজ কার্ডে পরিণত হল। ফলে ২ মিনিট ১০ জন থাকবেন।
  • ভারত রেফারাল হারাল।
  • একই ভুল ভারতের। তবে বিপজ্জনক খেলার জন্য জার্মানিকে ফ্রি-হিট। ভারতের রেফারাল।
  • আবারও পেনাল্টি কর্নার ভারতের।
  • সুমিত কুমার ঠিকভাবে বল রাখতে পারলেন না। রূপিন্দর সুযোগই পেলেন না।
  • জার্মান খেলোয়াড়কে হলুদ কার্ড। পাঁচ মিনিট ১০ মিনিটে খেলবে জার্মানি।
  • তবে আবারও পেনাল্টি কর্নার। 
  • পেনাল্টি কর্নার থেকে এবার গোল হল না। তবে রূপিন্দরের শট সম্ভবত জার্মানদের পায়ে লেগেছে।
  • ৪২ মিনিট : পেনাল্টি কর্নার ভারতের। বুদ্ধিমানের সঙ্গে আদায় করলেন নীলকান্ত শর্মা।
  • ৩৮ মিনিট : প্রতি-আক্রমমণের দারুণ সুযোগ হাতছাড়া ভারতের। ও হো! পাস জোরে হয়ে গিয়েছিল।
  • ৩৭ মিনিট : আবারও জার্মানির গোলে ভারতের! না, গোল নয়। দিলপ্রীত সিং গোলে বল জড়িয়ে দেন। কিন্তু সেই শটের আগেই ফ্রি-হিটের জন্য বাঁশি আম্পায়ারের। 
  • হ্যাঁ! জার্মানির বিরুদ্ধেই খেলছে টিম ইন্ডিয়া। যে জার্মানি ২০১৬ সালের রিও অলিম্পিক্সে ব্রোঞ্জ জিতেছিল। টানা চারটি অলিম্পিক্সে পদক পেয়েছে।
  • ৩৪ মিনিট : গোওওওওওল! ৫ গোল ভারতের। ভারত এগিয়ে ৫-৩ গোলে। দ্বিতীয় গোল করলেন সিমরনজিত্‍ সিং।
  • চার মিনিটে তিন গোল ভারতের! আজ কি হকি দেবতা ভারতের খরা কাটানোর পক্ষে?
  • ৩১ মিনিট : গোওওওল! গোল করলেন রূপিন্দর সিং। দুর্দান্ত। ৪-৩ গোলে এগিয়ে গেল ভারত। জার্মান গোলকিপার সঠিক ঠিক বেছে নিয়েছিলেন। কিন্তু গতিতে জিতে গেলেন রূপিন্দর।
  • পেনাল্টি নেবেন রূপিন্দর সিং।
  • পেনাল্টি ভারতের। সিদ্ধান্ত পরিবর্তন হল না। রেফারাল হারাল জার্মানি।
  • ৩১ মিনিট : পেনাল্টি পেল ভারত। রেফারাল চাইল জার্মানি।
  • শুরু তৃতীয় কোয়ার্টারের খেলা। ৪১ বছরের খরা কাটাতে ৩০ মিনিট আছে ভারতের হাতে।
  • মণিপুরে খেলা দেখছেন নীলকান্ত শর্মার পরিজনরা।

  • প্রথমার্ধে জার্মানির পজেশন ৫১ শতাংশ। ভারতের ৪৯ শতাংশ। গোলের সামনে বেশি সুযোগ পায়নি ভারত। ছ'টি সুযোগ পেয়েছেন হরমনপ্রীতরা। ৫০ শতাংশ থেকে হয়েছে গোল। অন্যদিকে, জার্মানির গোলমুখী শট ছিল ১৪ টি।
  • রক্ষণের খামতি পূরণ করে দিল ভারতের দুরন্ত আক্রমণ বিভাগ।
  • শেষ দ্বিতীয় কোয়ার্টারের খেলা। কী দুর্ধর্ষ আট মিনিট কাটল! মোট চার গোল হল। খেলার ফল ৩-৩।
  • দুর্ধর্ষ। দেড় মিনিটে দু'গোল হজম করার পর দু'মিনিটে দু'গোল শোধ। খেলার ফল ৩-৩। কয়েক মিনিট আগেই মনে হচ্ছিল, ভারতের উপরক চেপে বসছে জার্মানি। চাপে পড়ে আক্রমণে আসতেই ভেঙে পড়ল জার্মানির রক্ষণ। দুটি পেনাল্টি কর্নার হজম করল। দুটি থেকেই গোল করল ভারত।
  • ২৯ মিনিট : গোল ভারতের। পেনাল্টি কর্নার থেকে গোল করলেন হরমনপ্রীত সিং।
  • ২৮ মিনিট : পেনাল্টি কর্নার ভারতের।
  • মারাত্মক গুরুত্বপূর্ণ গোল। ব্যবধান তো কমলেই
  • ২৭ মিনিট : গোওওওল! এক গোল কমিয়ে ফেলল ভারত। গুরুত্বপূর্ণ গোল হার্দিক সিংয়ের। পেনাল্টি কর্নার থেকে ড্র্যাগ ফ্লিক করেন হরমনপ্রীত সিং। তা বাঁচিয়ে দেন জার্মান গোলকিপার। সেখান থেকে গোল করলেন হার্দিক।
  • ২৭ মিনিট : পেনাল্টি কর্নার ভারতের। ব্যবধান কমাতে পারবে ভারত?
  • ২৭ মিনিট : প্রতি-আক্রমণ ভারত। প্রাথমিকভাবে ফ্রি-হিট ভারতের।
  • স্রেফ কয়েক মিনিটে তাসের ঘরে মতো ভেঙে পড়ল ভারত।
  • ২৫ মিনিট : দেড় মিনিটের কমে জোড়া গোল হজম ভারতের। এবারও রক্ষণের ব্যর্থতার কারণে গোল হজম করতে হল। এবার গোল করলেন নিকলাস ওয়েলেন।
  • ২৪ মিনিট : গোল খেল ভারত। প্রতি-আক্রমণে উঠে আসে জার্মানি। পাল্লা দিতে পারেননি ভারতীয়রা। ২-১ গোলে এগিয়ে গেল জার্মানি। রক্ষণের ফাঁকফোকরের সুযোগ গোল করে বেরিয়ে গেলেন বেনেডিক্ট ফার্ক। রীতিমতো ক্ষুব্ধ শ্রীজেশ।
  • ২২ মিনিট : গুরুত্বপূর্ণ ট্যাকল বিবেক সাগর প্রসাদের। নাহলে বিপদ ছিল ভারতের জন্য।
  • ১৯ মিনিট : আরও একটি সেভ শ্রীজেশের।
  • ১৭ মিনিট : গোওওওওওওল! দুর্দান্ত শুরু ভারতের। দুর্ধর্ষ প্রতি-আক্রমণে গোল। রিভার্স হিটে গোল করলেন সিমরনজিত্‍ সিং। মাঝমাঠে নীলকান্ত কিছুটা হোল্ড করে বল ছেড়েছিলেন। সেটাই গুরুত্বপূর্ণ হয়ে দাঁড়াল। খেলার ফল ১-১।
  • শুরু দ্বিতীয় কোয়ার্টারের খেলা। ভারতীয় কোচের বার্তা, ‘আমরা বাজেভাবে শুরু করেছি। শেষের সাড়ে সাত মিনিট ভালো খেলেছি। এখনও হাতে ৪৫ মিনিট আছে। এবার ভালোভাবে খেলতে হবে।’
  • প্রথম কোয়ার্টারে ঢিমেগতিতে শুরু ভারতের। সেই সুযোগ দ্রুত আক্রমণে উঠে আসে জার্মানি। ক্রমশ চাপ বাড়াতে থাকে ভারতের উপর। শ্রীজেশের সৌজন্যে ভারতের চাপ বেশি বাড়ল না। প্রথম ১৫ মিনিটেই পাঁচটি সেভ করেছেন।
  • এবার সত্যিই শেষ হল প্রথম কোয়ার্টারের খেলা। জার্মানি এগিয়ে ১-০ গোলে। গোল শোধের জন্য ভারতের ৪৫ মিনিট আছে।
  • দুর্দান্ত ডিফেন্ডিং ভারতের।
  • পেনাল্টি কর্নার পেল জার্মানি।
  • কিন্তু না, খেলা শেষ হল না। আম্পায়ার নিজের সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধেই রেফারাল করলেন। তাতে বিপজ্জনক খেলার জন্য রেফারাল।
  • তৃতীয় পেনাল্টি কর্নারেও বেঁচে গেল ভারত। ভালো সেভ শ্রীজেশের। যদিও প্রতিবাদ জার্মানির।
  • তৃতীয় পেনাল্টি কর্নার জার্মানির।
  • আবারও পেনাল্টি কর্নার জার্মানির। অমিত রুইদাস ভালো বেরিয়ে পড়েন। কিন্তু পেনাল্টি কর্নার হজম করতে হল ভারতকে।
  • পেনাল্টি কর্নার জার্মানির। রেফারাল ধরে রাখল জার্মানি।
  • প্রথম কোয়ার্টারের একেবারে শেষে পেনাল্টি কর্নারের আবেদন জার্মানির। রেফারাল নেওয়া হয়েছে।
  • কী হল! ও! জার্মানরা পেনাল্টি জন্য আবেদন করছেন। রেফারাল কী নেবেন।
  • প্রথম কোয়ার্টারে দ্রুতগতিতে শুরু করেছে জার্মানি। হুড়মুড়িয়ে আক্রমণে উঠে আসছেন জার্মানরা।
  • প্রথম কোয়ার্টারের খেলা শেষ। জার্মানি এগিয়ে ১-০ গোলে। গোল শোধের জন্য ভারতের ৪৫ মিনিট আছে।
  • ১৪ মিনিট : মাঝমাঠে গুরুত্বপূর্ণ ট্যাকল রূপিন্দর সিংয়ের। দুই বনাম দুই ছিল।
  • ১১ মিনিট : সার্কেলের মধ্যে আক্রমণের ক্ষেত্রে এগিয়ে জার্মানি (৬)। ভারত মাত্র দু'বার করেছে।
  • ১০ মিনিট : বাঁচিয়ে দিলেন শ্রীজেশ। দ্রুত গোল ছেড়ে বেরিয়ে আসেন তিনি। গুরুত্বপূর্ণ ব্লক করলেন। দ্রুতগতিতে আক্রমণে উঠে আশছে জার্মানি।
  • ৮ মিনিট : ভালো সেভ শ্রীজেশের। ভারতীয় রক্ষণে ফাঁক তৈরি হচ্ছে।
  • ৬ মিনিট : গোলে বল ঢোকাল ভারত। কিন্তু বিপজ্জনক খেলার জন্য গোল বাতিল।
  • সমতা ফেরার সুযোগ হাতছাড়া ভারতের।
  • ৫ মিনিট : পেনাল্টি কর্নার ভারতের।
  • ২ মিনিট : শুরুতেই গোল খেয়ে পিছিয়ে গেল ভারত। ২ মিনিটে গোল করল জার্মানি। গোল করলেন অধিনায়ক তোবিয়াস হউকে।
  • শুরু হল ভারতের ম্যাচ।
  • অলিম্পিক্স হকিতে ৪১ বছর কি পদকের অপেক্ষা শেষ হবে ভারতের? কিছুক্ষণের মধ্যেই মিলবে সেই উত্তর। আজ (বৃহস্পতিবার) ব্রোঞ্জ পদক ম্যাচে জার্মানির বিরুদ্ধে ভারতীয় পুরুষ হকি দল।

বন্ধ করুন