বাংলা নিউজ > ময়দান > টোকিও অলিম্পিক্স > Tokyo Olympics 2020: ‘হাউজ দ্য জোশ?', তুমুল হর্ষধ্বনির মধ্যে টোকিয়ো অলিম্পিক্সে রওনা ভারতীয় অ্যাথলিটদের
দিল্লি বিমানবন্দরে ভারতীয় অ্যাথলিটরা। (ছবি সৌজন্য টুইটার)
দিল্লি বিমানবন্দরে ভারতীয় অ্যাথলিটরা। (ছবি সৌজন্য টুইটার)

Tokyo Olympics 2020: ‘হাউজ দ্য জোশ?', তুমুল হর্ষধ্বনির মধ্যে টোকিয়ো অলিম্পিক্সে রওনা ভারতীয় অ্যাথলিটদের

  • তুমুল হর্ষধ্বনি এবং অসংখ্য শুভেচ্ছা-সহ তাঁরা অলিম্পিক্সের পোডিয়ামে দাঁড়ানোর স্বপ্ন নিয়ে টোকিয়োর উদ্দেশ রওনা দেন।

‘হাউজ দ্য জোশ? তা একেবারে শিখরে থাকতে হবে। এটাই হতে হবে ভারতীয় অ্যাথলিটদের স্পিরিট।’  প্রথম দফায় ভারতীয় দল টোকিয়ো  অলিম্পিক্সে রওনা দেওয়ার আগে বলিউড সিনেমার লাইন ধার করে খেলোয়াড়দের উদ্বুদ্ধ করলেন কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রী অনুরাগ ঠাকুর। সেইসঙ্গে তুমুল হর্ষধ্বনির মধ্যে দিল্লি বিমানবন্দরে রেড কার্পেটের উপর দিয়ে টোকিয়োর উড়ান ধরলেন ভারতীয় অ্যাথলিটরা।

করোনাভাইরাসের মেঘাচ্ছন্ন পরিস্থিতির মধ্যে শনিবার দিল্লির ইন্দিরা আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের ছবিটা একেবারে অন্যরকম ছিল। টগবগ করে ফুটছিলেন ভারতীয় অ্যাথলিট, সমর্থকরা। বিমানবন্দরের টার্মিনালে ঢুকতেই বেঙ্গালুরু থেকে আগত হকি দল এবং শরদ কমল ও মণিকা বাত্রার নেতৃত্বাধীন টেবিল টেনিল দলকে সাদর অভ্যর্থনা জানানো হয়। টার্মিনালের দু'পাশে দাঁড়িয়েছিলেন বিমানবন্দরের কর্মীরা। দু'দলের সদস্যরা হেঁটে যাওয়ার সময় হাততালি দিতে থাকেন তাঁরা। সেইসঙ্গে শনিবার দিল্লি থেকে টোকিয়োর উড়ান ধরে ভারতীয় তিরন্দাজ, ব্যাডমিন্টন জুডো, জিমন্যাসটিক্স, সাঁতার এবং ভারোত্তলন দল। পি ভি সিন্ধু, সুতীর্থা মুখোপাধ্যায়-সহ সেই দলের খেলোয়াড়দের জন্যও সমর্থনের ঢেউ ওঠে। প্রত্যেকের হাতেই ছিল তেরঙা। তুমুল হর্ষধ্বনি এবং অসংখ্য শুভেচ্ছা-সহ তাঁরা অলিম্পিক্সের পোডিয়ামে দাঁড়ানোর স্বপ্ন নিয়ে টোকিয়োর উদ্দেশ রওনা দেন।

এবার অলিম্পিক্স ঘিরে এতটাই উন্মাদনা তৈরি হয়েছে যে টোকিয়োগামী ভারতীয় অ্যাথলিটদের অভিবাসনের জন্য বিশেষ কাউন্টার খোলা হয়। বিমানবন্দরে হাজির ছিলেন কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রী, কেন্দ্রীয় ক্রীড়া মন্ত্রকের রাষ্ট্রমন্ত্রী নিশীথ প্রামাণিক, ভারতীয় অলিম্পিক্স অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি নরিন্দর বাত্রা, সাধারণ সম্পাদক রাজীব মেহতা-সহ একাধিক আধিকারিক। ভারতীয় পতাকা হাতে নিয়ে ‘জয় হিন্দ’ স্লোগান তোলেন অনুরাগ। গলা মেলান ভারতীয় অ্যাথলিট এবং সমর্থকরা। রীতিমতো গায়ে কাঁটা দেওয়ার আবহ তৈরি হয়। অনুরাগ বলেন, '১৩৫ কোটি ভারতীয় আছেন। আপনারা দেশের প্রতিনিধিত্ব করছেন, আপনাদের গর্ব হওয়া উচিত। আপনাদের সকলের সঙ্গে পুরো দেশের আশীর্বাদ আছে। আপনাদের প্রত্যেকের সাফল্যের জন্য প্রার্থনা করছেন দেশবাসীরা।'

টোকিয়ো যাওয়ার আগে সেইরকম অভ্যর্থনা পেয়ে উচ্ছ্বসিত অ্যাথলিটরাও। সংবাদসংস্থা এএনআইকে টিটি তারকা মণিকা বলেন, ‘আমি অত্যন্ত খুশি যে আমি অলিম্পিক্সের যোগ্যতা অর্জন করতে পেরেছি। নিজের দেশের প্রতিনিধিত্ব করতে পারা অত্যন্ত বড় বিষয়। সিঙ্গলস এবং ডাবলস - দুটি বিভাগেই নিজের সেরাটা দেব।’

এমনিতে এবার টোকিয়ো অলিম্পিক্সে ভারতের ২২৮ জনের দল যাচ্ছে। তাঁদের মধ্যে ১১৯ জন অ্যাথলিট আছেন। শনিবার ৫৮ জন অ্যাথলিট-সহ ৮৮ জনের দল টোকিয়োয় উড়ে গিয়েছে। টোকিয়োয় পৌঁছেও গিয়েছে সেই দল। তাছাড়া আগেই পৃথকভাবে নিজেদের অনুশীলনের ডেরা থেকে টোকিয়োয় পৌঁছে গিয়েছে ভারত্তোলক মীরাবাই চানু-সহ আরও কয়েকজন অ্যাথলিট।

বন্ধ করুন