বাংলা নিউজ > ময়দান > টেস্ট বাতিল হওয়ায় ক্ষুব্ধ ইংল্যান্ড, IPL না খেলার কথা ভাবছেন এক ক্রিকেটার-রিপোর্ট
বাতিল হল খেলা (AP)
বাতিল হল খেলা (AP)

টেস্ট বাতিল হওয়ায় ক্ষুব্ধ ইংল্যান্ড, IPL না খেলার কথা ভাবছেন এক ক্রিকেটার-রিপোর্ট

  • দ্য সান-এ প্রকাশিত রিপোর্ট অনুযায়ী, ইংলিশ ক্রিকেটাররা দাবি করেছেন যে অনেক ভারতীয়রা হোটেলের বাইরে ঘুরছিলেন যখন তাদের ঘরবন্দি থাকার কথা ছিল। দুইজন ছিলেন জনপ্রিয় ডিপার্টমেন্টাল স্টোরে

কোভিড আতঙ্কে ম্যাঞ্চেস্টার টেস্ট খেলতে রাজি হয়নি ভারত। শেষমেশ বাতিল হয়ে গিয়েছে পঞ্চম টেস্ট। ভারতীয় বোর্ড জানিয়েছে যে দুই দেশ আলোচনা করে পরে আবার বাতিল হয়ে যাওয়া ম্যাচটি খেলার চেষ্টা করবে। কিন্তু শেষ মুহূর্তে এই ম্যাচ বাতিল হওয়ায় ইংল্যান্ড ক্রিকেটাররা যে একেবারেই ভালো চোখে দেখছেন না সেটা উঠে আসছে ব্রিটিশ মিডিয়ায়। ব্রিটিশ ট্যাবলয়েড দ্য সান জানিয়েছে যে একজন ইংলিশ ক্রিকেটার আইপিএল না খেলার কথাও ভাবছেন। 

প্রসঙ্গত ওভাল টেস্টের সময়ই রবি শাস্ত্রী সহ চার ব্যাকরুম স্টাফের কোভিড ধরা পড়ে। এরপর ম্যাঞ্চেস্টার ম্যাচের ঠিক দুইদিন আগে সহকারি ফিজিও-র কোভিড ধরা পড়ে। অন্তত পাঁচজন ভারতীয় ক্রিকেটার তাঁর সংস্পর্শে এসেছিলেন। তাই সবার নেগেটিভ রিপোর্ট এলেও ভারতীয়রা ঝুঁকি নিতে রাজি হননি। ফলে বাতিল হয়ে পঞ্চম টেস্ট। প্রায় ৪০০ কোটি টাকার ক্ষতি হয়েছে ইসিবির। প্রকাশ্যে যদিও ইসিবি কর্তারা ভারতের পাশে দাঁড়িয়েছেন। তারা বলেছেন যে ক্রিকেটারদের মানসিক স্বাস্থ্যের ওপর এখানে প্রাধান্য দেওয়া হল। কিন্তু প্রাক্তন ক্যাপ্টেন মাইকেল ভন সহ অনেকেই সাফ বলছেন যে পরের সপ্তাহ থেকে আইপিএল না থাকলে পঞ্চম টেস্ট ঠিকই হত। 

দ্য সান-এ প্রকাশিত রিপোর্ট অনুযায়ী, ইংলিশ ক্রিকেটাররা দাবি করেছেন যে অনেক ভারতীয়রা হোটেলের বাইরে ঘুরছিলেন যখন তাদের ঘরবন্দি থাকার কথা ছিল। দুইজন ছিলেন জনপ্রিয় ডিপার্টমেন্টাল স্টোরে। একজন ফোটোশ্যুটে বেরিয়েছিলেন। এছাড়া বাসে না গিয়ে লন্ডন থেকে ট্রেনে ম্যাঞ্চেস্টারে যায় ভারতীয়রা। এছাড়াও রবি শাস্ত্রীর ওই বই প্রকাশের অনুষ্ঠানটি নিয়ে বিতর্ক তো আছেই। সব মিলিয়ে ভারতীয়দের ওপর ক্ষুব্ধ কিছু ইংরেজ ক্রিকেটার। 

প্রসঙ্গত টেস্ট দলের পাঁচ জন জনি বেয়ারস্টো, স্যাম কুরান, মইন আলি, ডেভিড ওকস ও ক্রিস ওকস আইপিএল খেলে। এদের মধ্যে একজন আইপিএল না খেলার কথা ভাবছেন বলেই দ্য সান-এর দাবি। এদের সবার ভারতীয় দলের সঙ্গে আমিরশাহিতে যাওয়ার কথা যেখানে তাদের ছয় দিন কোয়ারেন্টাইন করতে হবে। 

প্রসঙ্গত জানা গিয়েছে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৬টার সময় ইংলিশ ক্রিকেটারদের বলা হয় যে নির্ধারিত সূচি অনুযায়ী খেলা হবে। কিন্তু ম্যাচের দিন ভোর আটটার সময় তাঁরা জানতে পারেন যে খেলা হবে না। কিট সংগ্রহ করতে আবার মাঠে যেতে হয় রুটদের। সব মিলিয়ে এই সব ঘটনার জেরেই দুই দেশের ক্রিকেটীয় সম্পর্কে এখন গুরুগম্ভীর পরিস্থিতির আবির্ভাব। 

 

বন্ধ করুন