বাংলা নিউজ > ময়দান > T20 WC-এর আগে ফিরলেন প্রাক্তন কোচ, কেন এই পদক্ষেপ?
প্যাডি আপটন।

T20 WC-এর আগে ফিরলেন প্রাক্তন কোচ, কেন এই পদক্ষেপ?

  • আপটনের সঙ্গে দলের প্রধান কোচ রাহুল দ্রাবিড়ের সম্পর্ক ভালো। দু'জনেই একসঙ্গে অনেক দলেরই কোচ হিসেবে কাজ করেছেন। ২০১০-এর শেষদিকে যখন আপটন ভারতের প্রধান কোচ গ্যারি কার্স্টেনের সহযোগী হিসেবে যোগ দেন, তখন দ্রাবিড় একজন সিনিয়র ক্রিকেটার ছিলেন।

২০১১ সালে মহেন্দ্র সিং ধোনির নেতৃত্বে একদিনের বিশ্বকাপজয়ী দলের মেন্টাল কন্ডিশনিং বিশেষজ্ঞ ছিলেন প্যাডি আপটন। তাঁকেই ফের ফিরিয়ে আনা হচ্ছে ভারতীয় দলে। অস্ট্রেলিয়ায় আসন্ন অক্টোবর-নভেম্বর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রস্তুতিতে সহায়তা করার জন্য টিম ইন্ডিয়ার সাপোর্ট স্টাফদের সঙ্গে যুক্ত হচ্ছেন আপটন। বিশেষ করে প্লেয়ারদের মানসিক স্বাস্থ্যের কথা মাথায় রেখেই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বিসিসিআইয়ের এক কর্তা দাবি করেছেন, ‘প্যাডি ওয়েস্ট ইন্ডিজে দলের সঙ্গে মানসিক কন্ডিশনিং কোচ হিসেবে যোগ দেবেন এবং টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ পর্যন্ত দলের সঙ্গেই যুক্ত থাকবেন।’

আরও পড়ুন: রাহুলের দেখা নেই.. ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরেও পাওয়া যাবে না কেএল-কে?

আপটনের সঙ্গে দলের প্রধান কোচ রাহুল দ্রাবিড়ের সম্পর্ক ভালো। দু'জনেই একসঙ্গে অনেক দলেরই কোচ হিসেবে কাজ করেছেন। ২০১০-এর শেষদিকে যখন আপটন ভারতের প্রধান কোচ গ্যারি কার্স্টেনের সহযোগী হিসেবে যোগ দেন, তখন দ্রাবিড় একজন সিনিয়র ক্রিকেটার ছিলেন। এর পর দু'জনে আইপিএল ফ্র্যাঞ্চাইজি - রাজস্থান রয়্যালস এবং দিল্লি ডেয়ারডেভিলসে (এখন ক্যাপিটালস) যথাক্রমে মেন্টর এবং প্রধান কোচ হিসাবেকাজ করেছেন।

আরও পড়ুন: গুজরাটিতে অক্ষর-রোহিতের ব্রোম্যান্স, জাদেজা কি চাপে পড়বেন?

বছরের পর বছর ধরে, ভারতীয় প্রধান কোচেরা বিশ্বকাপের চাপ মোকাবিলা করার জন্য খেলোয়াড়দের মানসিক ভাবে সুস্থ রাখতে উদ্যোগী। যে কারণে মনোবিদদের তারা সাহায্য নিয়ে থাকেন।

আপটনের আগেও ২০০৩ বিশ্বকাপ দলের জন্য, যখন ভারতীয় দলের কোচ ছিলেন জন রাইট এবং অধিনায়ক ছিলেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়, ক্রীড়া মনোবিদ স্যান্ডি গর্ডনকে নিয়ে আসা হয়েছিল। ২০০৭ বিশ্বকাপের আগে তৎকালীন প্রধান কোচ গ্রেগ চ্যাপেল প্রখ্যাত ক্রীড়া মনোবিদ রুডি ওয়েবস্টারকে এনেছিলেন। ২০১৪ সালে রবি শাস্ত্রী দায়িত্ব নেওয়ার পর ক্রীড়া মনোবিদ কোচের আর দেখা মেলেনি।

বন্ধ করুন