বাংলা নিউজ > ময়দান > PAK vs NZ: একাই ১৮০ ফখর জামানের, ঢাকা পড়ল বাবর-রিজওয়ানের হাফ-সেঞ্চুরি, ৩৩৬ রান তাড়া করে ম্যাচ জিতল পাকিস্তান

PAK vs NZ: একাই ১৮০ ফখর জামানের, ঢাকা পড়ল বাবর-রিজওয়ানের হাফ-সেঞ্চুরি, ৩৩৬ রান তাড়া করে ম্যাচ জিতল পাকিস্তান

শতরানের পরে ফখর জামান। ছবি- এপি।

Pakistan vs New Zealand 2nd ODI: নিজেদের ওয়ান ডে ক্রিকেটের ইতিহাসে রান তাড়া করে দ্বিতীয় বৃহত্তম জয় পাকিস্তানের।

ডারিল মিচেলের সেঞ্চুরিতে ভর করে বড় রানের ইনিংস গড়ে নিউজিল্যান্ড। হ্যারিস রউফ বল হাতে নজর কাড়েন। ফখর জামানের পালটা শতরানে লড়াকু জয় তুলে নেয় পাকিস্তান। ব্যাট হাতে ফখরকে যোগ্য সঙ্গত করেন বাবর আজম। চলতি পাকিস্তান-নিউজিল্যান্ড ওয়ান ডে সিরিজে এই একই ছবির পুনরাবৃত্তি ঘটল পরপর ২টি ম্যাচে।

সিরিজের প্রথম ম্যাচের মতো দ্বিতীয় ওয়ান ডে ম্যাচেও নিউজিল্যান্ডের হয়ে সেঞ্চুরি করেন ডারিল মিচেল। প্রথম ম্যাচের মতো এবার দ্বিতীয় ম্য়াচেও দুর্দান্ত শতরান করে পাকিস্তানকে ম্যাচ জেতান ফখর জামান। এবার যদিও তুলনায় অনেক বড় রান তাড়া করে ম্যাচ জেতে পাকিস্তান।

শনিবার রাওয়ালপিন্ডিতে সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ান ডে ম্য়াচে টস হেরে শুরুতে ব্যাট করতে নামে নিউজিল্যান্ড। তারা নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৫ উইকেটের বিনিময়ে ৩৩৬ রানের বিশাল ইনিংস গড়ে তোলে। ডারিল মিচেল ৮টি চার ও ৩টি ছক্কার সাহায্যে ১১৯ বলে ১২৯ রানের অনবদ্য ইনিংস খেলেন। তিনি প্রথম ম্য়াচে ১১৩ রান করেছিলেন।

এছাড়া এদিন নিশ্চিত শতরান মাঠে ফেলে আসেন ক্যাপ্টেন টম লাথাম। তিনি ৮টি চার ও ১টি ছক্কার সাহায্যে ৮৫ বলে ৯৮ রান করে আউট হন। উইল ইয়ং ১৯, চাড বোয়েস ৫১, জেমস নিশাম ১৭, মার্ক চাপম্যান ১ ও হেনরি নিকোলস ৬ রানের যোগদান রাখেন। পাকিস্তানের হয়ে ৭৮ রানের বিনিময়ে ৪টি উইকেট দখল করেন হ্যারিস রউফ। ১টি উইকেট নেন নাসিম শাহ।

আরও পড়ুন:- DC vs SRH: ‘মাঝের ওভারে এত উইকেট হারালে ম্যাচ জেতা যায়!’ ওয়ার্নারের আঙুল কি মণীশ-সরফরাজদের দিকে?

পালটা ব্যাট করতে নেমে পাকিস্তান ৪৮.২ ওভারে ৩ উইকেট হারিয়ে জয়ের জন্য প্রয়োজনীয় ৩৩৭ রান সংগ্রহ করে নেয়। ১০ বল বাকি থাকতে ৭ উইকেটে ম্যাচ জেতে পাকিস্তান। ওয়ান ডে ক্রিকেটের ইতিহাসে এটি তাদের রান তাড়া করে দ্বিতীয় বৃহত্তম জয়। এর আগে ২০২২ সালে লাহোরে অস্ট্রেলিয়ার ৮ উইকেটে ৩৪৮ রানের জবাবে ব্যাট করতে নেমে পাকিস্তান ম্য়াচ জেতে ৪ উইকেটে ৩৪৯ রান তুলে।

কিউয়িদের বিরুদ্ধে এদিন ফখর জামান ১৭টি চার ও ৬টি ছক্কার সাহায্যে ১৪৪ বলে ১৮০ রানের ম্যাচ জেতানো ইনিংস খেলে অপরাজিত থাকেন। ফখর প্রথম ম্যাচে ১১৭ রান করে আউট হয়েছিলেন।

দ্বিতীয় ম্যাচে হাফ-সেঞ্চুরি করেন পাক দলনায়ক বাবর ও উইকেটকিপার রিজওয়ান। বাবর ৫টি চার ও ১টি ছক্কার সাহায্যে ৬৬ বলে ৬৫ রান করে সাজঘরে ফেরেন। রিজওয়ান নট-আউট থাকেন ৪১ বলে ৫৪ রান করে। তিনি ৬টি চার মারেন। এছাড়া ২৪ রান করে আউট হন ইমাম উল হক। ৭ রান করে মাঠ ছাড়েন আব্দুল্লা শফিক।

আরও পড়ুন:- DC vs SRH: ৪টি উইকেট, সঙ্গে ২৮ বলে হাফ-সেঞ্চুরি মিচেল মার্শের, তাও ঘরের মাঠে হারল দিল্লি ক্যাপিটালস

নিউজিল্যান্ডের হয়ে ১টি করে উইকেট নেন ম্যাট হেনরি, হেনরি শিপলি ও ইশ সোধি। সঙ্গত কারণেই ম্যাচের সেরা ক্রিকেটার নির্বাচিত হন ফখর জামান। উল্লেখ্য, দুর্দান্ত শতরানের পথে ফখর এদিন একদিনের আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ৩০০০ রানের মাইলস্টোন টপকে যান। তিনিই পাকিস্তানের একমাত্র ক্রিকেটার, যিনি এই নিয়ে তিনবার ওয়ান ডে ক্রিকেটে ১৮০ রানের গণ্ডি টপকালেন।

এই খবরটি আপনি পড়তে পারেন HT App থেকেও। এবার HT App বাংলায়। HT App ডাউনলোড করার লিঙ্ক https://htipad.onelink.me/277p/p7me4aup

বন্ধ করুন