বাংলা নিউজ > ময়দান > Ranji Trophy Final: যশ-শুভমের শতরান, ছন্দে পতিদার, ট্রফির স্বপ্ন দেখছে MP, চাপে মুম্বই
যশ দুবে-শুভম শর্মার জোড়া শতরানে ইতিহাস রচনার স্বপ্ন মধ্যপ্রদেশের চোখে।

Ranji Trophy Final: যশ-শুভমের শতরান, ছন্দে পতিদার, ট্রফির স্বপ্ন দেখছে MP, চাপে মুম্বই

  • শুক্রবার যশ দুবে-শুভম শর্মা জুটি দ্বিতীয় উইকেটে ২২২ রান যোগ করে। যার উপর ভিত্তি করে নিজেদের জায়গা মজবুত করে মধ্যপ্রদেশ। লাঞ্চের পর ১১৬ করে আউট হয়ে যান শুভম। যশ করেন ১৩৩ রান। রজত ৬৭ করে ক্রিজে রয়েছেন। তৃতীয় দিনের শেষে মধ্যপ্রদেশের সংগ্রহ ৩ উইকেটে ৩৬৮ রান।

মুম্বইয়ের চেয়ে আর মাত্র ৬ রান পিছিয়ে। আর ৬ রান করলেই মুম্বইকে প্রথম ইনিংসে ছুঁয়ে ফেলবে মধ্য়প্রদেশ। তার পর তাদের লিড নেওয়ার পালা। মধ্যপ্রদেশের সবে ৩ উইকেট পড়েছে। তারা করে ফেলেছ ৩৬৮ রান। তাই অনেকেই আশা করছেন, লিডটা একেবারে ছোট হবে না। বরং বড় রানেরই লিড পাওয়ারই চেষ্টা করব মধ্যপ্রদেশ।

শুক্রবার যশ দুবে-শুভম শর্মা জুটি দ্বিতীয় উইকেটে ২২২ রান যোগ করে। যার উপর ভিত্তি করে নিজেদের জায়গা মজবুত করে মধ্যপ্রদেশ। লাঞ্চের পর ১১৬ করে আউট হয়ে যান শুভম। যশ করেন ১৩৩ রান। সরফরাজ খানের চেয়ে ১ রান কম করেন তিনি।

তৃতীয় দিনের শেষে ক্রিজে রয়েছেন রজত পতিদার এবং অধিনায়ক আদিত্য শ্রীবাস্তব। রজত ৬৭ করে ফেলেছেন। আদিত্য ১১ রানে অপরাজিত রয়েছেন। শনিবার সকাল থেকেই ধীরেসুস্থে ব্যাট করে বড় রানের লিড নেওয়ার চেষ্টা করবে মধ্যপ্রদেশ। মুম্বই দ্রুত উইকেট ফেলতে না পারলে আখেরে কপাল পুড়বে তাদেরই।

আরও পড়ুন: ‘বাইরের আওয়াজ শুনব না’, শতরান করে কেএল-এর মতো কানে আঙুল দিয়ে সেলিব্রেশন যশ দুবের

প্রথম ইনিংসে লিড পেয়ে যাওয়া মানেই, ট্রফির দিক এক পা বাড়িয়ে রাখা। তবে ২২ গজে তো আকছার অঘটন ঘটে। কে বলতে পারে, বাকি ২ দিনে মুম্বই ধ্বংসাত্মক হয়ে উঠে, মধ্যপ্রদেশের মুখের গ্রাস কেড়ে নেবে না! 

তবে যে স্ট্র্যাটেজিতে চন্দ্রকান্ত পণ্ডিতের টিম খেলছে, তাতে তাদের বেকায়দায় ফেলা সহজ হবে না। রজত পতিদাররা বরং এখন থেকেই ট্রফি জয়ের স্বপ্ন দেখছেন। প্রথম বার রঞ্জি চ্যাম্পিয়ন হয়ে ইতিহাস গড়ার অপেক্ষায় গোটা মধ্যপ্রদেশ। পারবে কি তারা সেই স্বপ্ন পূরণ করতে? সময়ই এর উত্তর দেবে।

আরও পড়ুন: ঘরোয়া ক্রিকেটে সর্বোচ্চ ব্যাটিং গড়ে ব্র্যাডম্যানের ঘাড়ে নিঃশ্বাস ফেলছেন সরফরাজ

দ্বিতীয় দিনের শেষে মধ্যপ্রদেশের স্কোর ছিল ১ উইকেট হারিয়ে ১২৩ রান। যশ ৪৪ এবং শুভম ৪১ করে ক্রিজে ছিলেন। সেখান থেকে শুক্রবার সকালেও একই ধারা তাঁরা বজায় রেখেছিলেন। কোনও রকম হটকারিতা না করে, মাথা ঠাণ্ডা রেখে স্কোরবোর্ডকে সচল রাখেন যশ-শুভম। সেই সঙ্গে দুই তারকাই সেঞ্চুরি করেন।

বৃহস্পতিবার সরফরাজ খানের ১৩৪ রানের হাত ধরে মুম্বইয়ের ইনিংস শেষ হয় ৩৭৪ রানে। পৃথ্বী শ' ৪৭, যশস্বী জয়সওয়াল ৭৮ রান করেন। জবাবে ব্যাট করতে নেমে তৃতীয় দিনের শেষে চালকের আসনে মধ্যপ্রদেশ।

বন্ধ করুন