বাংলা নিউজ > ময়দান > Ranji Trophy Semifinal: বাচ্চা ছেলেটা এসে ম্যাচ ঘুরিয়ে দিল, মেনে নিলেন অরুণ লাল
আগ্রাসী ব্যাটিং রঘুবংশীর। ছবি- স্ক্রিনগ্র্যাব।

Ranji Trophy Semifinal: বাচ্চা ছেলেটা এসে ম্যাচ ঘুরিয়ে দিল, মেনে নিলেন অরুণ লাল

  • মধ্যপ্রদেশকে কত রানে আটকে রাখলে ম্যাচে তাঁরা এগিয়ে থাকবেন, স্পষ্ট জানালেন বাংলার হেড কোচ। 

সেঞ্চুরিকারী হিমাংশু মন্ত্রী নন, বাংলার বিরুদ্ধে রঞ্জি ট্রফির সেমিফাইনালে মধ্যপ্রদেশকে ম্যাচে ফেরান অক্ষত রঘুবংশী। এককথায় মেনে নিলেন অরুণ লাল। অক্ষতকে স্পেশাল ট্যালেন্ট আখ্যা দিয়ে তাঁর ঝোড়ো ইনিংসের ভূয়সী প্রশংসা করেন বাংলা কোচ।

যদিও প্রথম দিনের শেষে বাংলা সেমিফাইনাল ম্যাচে ব্যাকফুটে রয়েছে বলে মনে করছেন না অরুণ লাল। বরং ব্যাটিং পিচে প্রথম দিনে বাংলার বোলারদের পারফর্ম্যান্সকে কৃতিত্ব দেন তিনি। সেই সঙ্গে এও জানান যে, আরও ৫০ রানের মধ্যে মধ্যপ্রদেশকে বেঁধে রাখতে পারলে ম্যাচের রাশ থাকবে বাংলার হাতেই।

আরও পড়ুন:- Ranji Trophy Semifinal: শেষবেলায় আকাশ দীপের জোড়া উইকেট লড়াইয়ে রাখল বাংলাকে

প্রথম দিনের খেলার শেষে অরুণ লাল বলেন, ‘টস হারায় পরিস্থিতি কঠিন হয়ে দাঁড়ায়। পিচ ব্যাট করার জন্য অসাধারণ। ৯৭ রানে ওদের ৪ জন ব্যাটসম্যানকে ফিরিয়ে শুরুতেই ম্যাচের নিয়ন্ত্রণ নেওয়ার জন্য বোলারদের প্রশাংসা প্রাপ্য। তার পরেই নতুন ছেলেটা এসে দুর্দান্ত ইনিংস খেলল। ভয়ডরহীন প্রতিআক্রমণে ম্যাচ খুলে দিয়ে যায় ও। অক্ষত রঘুবংশী দারুণ প্রতিভা। আজ ও অসাধারণ ইনিংস খেলল।’

আরও পড়ুন:- Ranji Trophy: অবিশ্বাস্য আবির্ভাব, রঞ্জিতে টানা ১টি সেঞ্চুরি ও ৩টি হাফ-সেঞ্চুরি ১৮ বছরের রঘুবংশীর

পরক্ষণেই অরুণ লাল বলেন, ‘দিনের শেষ সেশনে আমরা ২টি উইকেট তুলে নিতে পেরেছি। সুতরাং, আমরা ম্যাচে রয়েছি। আমার মনে হয় ওদের আরও ৫০ রানের মধ্যে বেঁধে রাখতে পারলে আমরাই ম্যাচে এগিয়ে থাকব। এমন পিচে উইকেট নিতে হলে স্পেশাল ডেলিভারির দরকার হয়। আমাদের পেসাররা অসাধারণ বল করেছে। তবে স্পিনারদের সাধারণ লেগেছে প্রথম দিনে। আশা করি কাল সকালেই ওদের গুটিয়ে দিতে পারব।’

বন্ধ করুন