বাংলা নিউজ > ময়দান > ‘আজও দুঃস্বপ্ন দেখি’, কার প্রসঙ্গে এই কথা ভিভের রিচার্ডসের?
ভিভ রিচার্ডস। ছবি- গেটি ইমেজেস।

‘আজও দুঃস্বপ্ন দেখি’, কার প্রসঙ্গে এই কথা ভিভের রিচার্ডসের?

  • সেই উঠতি তারকার বিরুদ্ধে বেশিদিন খেলতে না হওয়ায় ঈশ্বরকে ধন্যবাদ জানান ভিভ।

ক্রিকেটের সর্বকালের সেরাদের মধ্যে একেবারে উপরের সারিতে স্যার ভিভিয়ান রিচার্ডসের নাম উচ্চারিত হয়। মতান্তরে সর্বকালের সবচেয়ে ভাল হিটার ভিভের প্রতিভা নিয়ে চর্চা আজও অব্যাহত। তাঁর ভয়ে বিপক্ষ বোলাররা কাঁপত। তবে একজন বোলার বা বলা ভাল একটি বল এখনও ভিভের দুঃস্বপ্নে আসে।

ভিভের সময়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজ দল যে বিশ্বের সেরা দল ছিল, সেই বিষয়ে কোনও সন্দেহ নেই। একাধিক তারকা ব্যাটার থেকে হাড় হিম করা বোলিং লাইন আপ, কী ছিল না সেই দলে। গাম চিবোতে চিবোতে অবলীলায় ভিভের ব্যাট হাতে প্রতিপক্ষের বোলারদের আস্ত গিলে নেওয়াটা এখন ক্রিকেট ইতিহাসের অঙ্গ। যদিও বেশিরভাগ সেরা জোরে বোলাররা ভিভের দলে ছিলেন, তাও কয়েকজন অপর দলেও খেলতেন। জেফ থমসনকে তাঁর বিরুদ্ধে খেলা সবচেয়ে জোরে বোলারের স্বীকৃতি দিলেও, তিনি কিন্তু ভিভকে সবচেয়ে জোরে বলটি করেননি। 

বরং সেই কৃতিত্বটি এক তৎকালীন উঠতি তারকা ওয়াসিম আক্রমের। এই বিষয়ে ESPNCricinfo-কে রিচার্ডস বলেন, ‘ঈশ্বরের দয়ায় আমি বোধহয় ওই বলটা থেকে বেঁচে গিয়েছিলাম। তখনও আমার মাথায় অল্পস্বল্প চুল ছিল। ওই বলটা একেবারে হুস করে সামনে দিয়ে চলে যায়। বলটা উইকেটরক্ষকের দস্তানায় গিয়ে যে শব্দটা করেছিল, সেটা আমি স্পষ্ট শুনতে পেয়েছিলাম। এই ঘটনা আমায় বিস্মিত করেছিল। ওয়াসিম তখন একেবারেই তরুণ উঠতি একজন ক্রিকেটার। সেই সময় আমি নিজের কেরিয়ারের একেবারে শেষের পর্যায়ে। ভাগ্যক্রমে ও যখন উঠে আসছিল, সেই সময়ের আশেপাশেই আমি বিদায় নিই।’

পাকিস্তান কিংবদন্তির সেই বলের স্মৃতি আজও ভিভের স্মৃতিতে অমলিন। এমনকী সেই বলটির ভয়ানক স্মৃতি নাকি এখনও তাঁকে তাড়া করে। ‘আমার মনে আছে আমি ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলের বাকি ব্যাটসম্যানদের শুভেচ্ছা জানিয়েছিলাম। বলেছিলাম এমন এক বোলারের বিরুদ্ধে প্রতিনিয়ত ব্যাট করার জন্য অনেক শুভকামনা রইল। ওয়াসিম ভীষণ ভীষণ স্পেশাল ছিল। আজও ওই বলটির ছবি আমার মাথায় ঘুরপাক খায়। মাঝেমধ্যেও ওই দুঃস্বপ্নটা আমার মনে পড়ে।’ দাবি ভিভ রিচার্ডসের।

বন্ধ করুন