বাংলা নিউজ > ময়দান > ইস্টবেঙ্গলের কাছে শ্রী সিমেন্টের চিঠি, আইনি পরামর্শ নিচ্ছে ক্লাব
ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের গেটের ছবি (ছবি: গুগল)
ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের গেটের ছবি (ছবি: গুগল)

ইস্টবেঙ্গলের কাছে শ্রী সিমেন্টের চিঠি, আইনি পরামর্শ নিচ্ছে ক্লাব

  • আবার শ্রী সিমেন্টের তরফ থেকে ইস্টবেঙ্গল ক্লাবে চিঠি পাঠান হল। চিঠিতে জানতে চাওয়া হয়েছে কেন ইস্টবেঙ্গল ক্লাব তাদের পাঠান চূড়ান্ত চুক্তিপত্রে সই করছে না। লাল হলুদ কর্তাদের কাছে বিনিয়োগকারী সংস্থা জানতে চেয়েছে চূড়ান্ত চুক্তিপত্রে কী কী অসঙ্গতি রয়েছে।

আবার শ্রী সিমেন্টের তরফ থেকে ইস্টবেঙ্গল ক্লাবে চিঠি পাঠান হল। চিঠিতে জানতে চাওয়া হয়েছে কেন ইস্টবেঙ্গল ক্লাব তাদের পাঠান চূড়ান্ত চুক্তিপত্রে সই করছে না। লাল হলুদ কর্তাদের কাছে বিনিয়োগকারী সংস্থা জানতে চেয়েছে চূড়ান্ত চুক্তিপত্রে কী কী অসঙ্গতি রয়েছে। বুধবারই ক্লাবকে এই চিঠি পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে।

কয়েকদিন আগেই ইস্টবেঙ্গল ক্লাব নিয়ে নিজের মনে কথা জানিয়েছিলেন শ্রী সিমেন্টের কর্ণধার হরিমোহন বাঙ্গুর। যেখানে ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের ইনভেস্টর জানিয়েছিলেন, তিনি ক্লাবের ভবিষ্যৎ নিয়ে চিন্তায় রয়েছেন। ক্লাবকে পাঠান চূড়ান্ত চুক্তি পত্র নিয়েও তিনি মুখ খুলেছিলেন। তিনি বলেছিলেন শ্রী সিমেন্টের পক্ষ থেকে যে চূড়ান্ত চুক্তিপত্র পাঠান হয়েছে তাতে সই করতে দেরি করছে ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের সাবেকি কর্তারা। যারফলে SC ইস্টবেঙ্গল নিজেদের পরবর্তী কাজ করতে পারছেনা। 

এরপরও ক্লাবের পক্ষ থেকে কোনও জবাব আসেনি। এরমাঝেই ক্লাবের ভবিষ্যৎ কী হতে চলেছে তা জানতে না পারায় বেশ কিছু ফুটবলার দল ছাড়ছেন। তাই দ্রুত এই সমস্যা থেকে মুক্তি চাইছে ক্লাব ও বিনিয়োগকারী সংস্থা। এর আগে আলোচনায় বসার আমন্ত্রণ জানিয়ে ও চূড়ান্ত চুক্তিপত্রে অসঙ্গতির কথা জানিয়ে বিনিয়োগকারী সংস্থাকে চিঠি দিয়েছিল লাল হলুদ ক্লাব। এবার তার উত্তরে কোন কোন জায়গায় অসঙ্গতি রয়েছে আর কেনই বা ক্লাব কর্তারা আলোচনায় বসতে চান, তা জানতে চাইল বিনিয়োগকারী সংস্থা।

বিনিয়গকারী সংস্থার এই চিঠি আইনজীবীদের কাছে পাঠিয়ে দিয়েছে ক্লাব। সব মিলিয়ে চিঠি আদানপ্রদান হলেও SC ইস্টবেঙ্গলের ভবিষ্যৎ কী, তা এখনও স্পষ্ট নয়। কবে ক্লাব কর্তারা চূড়ান্ত চুক্তিতে সই করবেন তাও কেউ বলতে পারছেননা।

আবার শ্রী সিমেন্টের তরফ থেকে ইস্টবেঙ্গল ক্লাবে চিঠি পাঠান হল। চিঠিতে জানতে চাওয়া হয়েছে কেন ইস্টবেঙ্গল ক্লাব তাদের পাঠান চূড়ান্ত চুক্তিপত্রে সই করছে না। লাল হলুদ কর্তাদের কাছে বিনিয়োগকারী সংস্থা জানতে চেয়েছে চূড়ান্ত চুক্তিপত্রে কী কী অসঙ্গতি রয়েছে। বুধবারই ক্লাবকে এই চিঠি পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে।

কয়েকদিন আগেই ইস্টবেঙ্গল ক্লাব নিয়ে নিজের মনে কথা জানিয়েছিলেন শ্রী সিমেন্টের কর্ণধার হরিমোহন বাঙ্গুর। যেখানে ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের ইনভেস্টর জানিয়েছিলেন, তিনি ক্লাবের ভবিষ্যৎ নিয়ে চিন্তায় রয়েছেন। ক্লাবকে পাঠান চূড়ান্ত চুক্তি পত্র নিয়েও তিনি মুখ খুলেছিলেন। তিনি বলেছিলেন শ্রী সিমেন্টের পক্ষ থেকে যে চূড়ান্ত চুক্তিপত্র পাঠান হয়েছে তাতে সই করতে দেরি করছে ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের সাবেকি কর্তারা। যারফলে SC ইস্টবেঙ্গল নিজেদের পরবর্তী কাজ করতে পারছেনা। 

এরপরও ক্লাবের পক্ষ থেকে কোনও জবাব আসেনি। এরমাঝেই ক্লাবের ভবিষ্যৎ কী হতে চলেছে তা জানতে না পারায় বেশ কিছু ফুটবলার দল ছাড়ছেন। তাই দ্রুত এই সমস্যা থেকে মুক্তি চাইছে ক্লাব ও বিনিয়োগকারী সংস্থা। এর আগে আলোচনায় বসার আমন্ত্রণ জানিয়ে ও চূড়ান্ত চুক্তিপত্রে অসঙ্গতির কথা জানিয়ে বিনিয়োগকারী সংস্থাকে চিঠি দিয়েছিল লাল হলুদ ক্লাব। এবার তার উত্তরে কোন কোন জায়গায় অসঙ্গতি রয়েছে আর কেনই বা ক্লাব কর্তারা আলোচনায় বসতে চান, তা জানতে চাইল বিনিয়োগকারী সংস্থা।

বিনিয়গকারী সংস্থার এই চিঠি আইনজীবীদের কাছে পাঠিয়ে দিয়েছে ক্লাব। সব মিলিয়ে চিঠি আদানপ্রদান হলেও SC ইস্টবেঙ্গলের ভবিষ্যৎ কী, তা এখনও স্পষ্ট নয়। কবে ক্লাব কর্তারা চূড়ান্ত চুক্তিতে সই করবেন তাও কেউ বলতে পারছেননা।|#+|

 

বন্ধ করুন