বাংলা নিউজ > ময়দান > এ যেন স্রোতের প্রতিকূলে হাঁটা, টেস্ট খেলার জন্য দরকারে T20 WC-ও খেলবেন না স্মিথ
স্টিভ স্মিথ।
স্টিভ স্মিথ।

এ যেন স্রোতের প্রতিকূলে হাঁটা, টেস্ট খেলার জন্য দরকারে T20 WC-ও খেলবেন না স্মিথ

  • বাঁ হাতের কনুইয়ের চোটের জন্য ওয়েস্ট ইন্ডিজ এবং বাংলাদেশ সফর থেকে ছিটকে গিয়েছেন স্মিথ। ৯ জুলাই মাসে ক্যারিবিয়ানদের বিরুদ্ধে পাঁচটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ এবং তিনটি একদিনের ম্যাচ খেলবে অস্ট্রেলিয়া। এর ঠিক পরে অগস্টেই বাংলাদেশের বিরুদ্ধে তাদের পাঁচটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলার কথা।

বিশ্বের সব দেশের ক্রিকেটাররাই এখন টি-টোয়েন্টি খেলতে বেশি আগ্রহ দেখান। সেখানে একেবারে স্রোতের প্রতিকূলে হেঁটে অন্য সিদ্ধান্ত নেওয়ার কথা ভাবছেন স্টিভ স্মিথ। অ্যাসেজে নিজের সেরাটা দেওয়ার জন্য এবং নিজেকে পুরো ফিট রাখতে প্রয়োজনে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ না খেলার কথা ভাবছেন স্টিভ স্মিথ।

আসলে বাঁ হাতের কনুইয়ের চোটের জন্য ওয়েস্ট ইন্ডিজ এবং বাংলাদেশ সফর থেকে ছিটকে গিয়েছেন স্মিথ। চলতি জুলাই মাসের ৯ তারিখ থেকে ক্যারিবিয়ানদের বিরুদ্ধে পাঁচটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ এবং তিনটি একদিনের ম্যাচ খেলবে অস্ট্রেলিয়া। এর ঠিক পরে অগস্টেই বাংলাদেশের বিরুদ্ধে তাদের পাঁচটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলার কথা।

এ দিকে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগে চোট নিয়ে সমস্যা পুরোপুরি না মিটলে স্টিভ স্মিথ কোনও রকম ঝুঁকি নিতে রাজি নন। বরং তাঁর কাছে পুরো ফিট হয়ে অ্যাসেজে নিজের সেরাটা দেওয়াই আসল লক্ষ্য। ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার ওয়েবসাইটে একটি সাক্ষাৎকার দেওয়ার সময়ে স্মিথ বলেছেন, ‘টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগে বেশ কিছুটা সময় রয়েছে। আমি ঠিক পথেই এগোচ্ছি। কিছুটা সময় লাগছে। কিন্তু আমি একেবারে ঠিকঠাক এগোচ্ছি।’

এর সঙ্গেই স্মিথ যোগ করেছেন, ‘আমি অবশ্যই বিশ্বকাপ খেলতে চাই, এটা নিয়ে কোনও সন্দেহ নেই। তবে আমার দৃষ্টিকোণ থেকে দেখতে গেলে, টেস্ট ক্রিকেটই হল আমার আসল লক্ষ্য। আর অ্যাসেজ তো নিঃসন্দেহে আমার কাছে খুবই গুরুত্বপূর্ণ। শেষ কয়েক বছরে অ্যাসেজে যা পারফরম্যান্স করেছি, সেটাই ধরে রাখতে চাই।’

আর এই অ্যাসেজ খেলার জন্য যদি প্রয়োজন পড়ে, তিনি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপেও খেলবেন না বলে জানিয়ে দিয়েছেন। স্মিথ বলেছেন, ‘শেষ কয়েক সপ্তাহ ধরে আমার ধীরে ধীরে উন্নতি হয়েছে। আমি ব্যাট করতেও শুরু করেছি। দশ মিনিটের জন্যে হলেও। আমি নিজেকে সেই জায়গায় নিয়ে যেতে চাই, যেখানে আমার পারফরম্যান্স প্রভাব ফেলবে। আর তার জন্য যদি আমাকে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ না খেলার পথ বেছে নিতে হয়, সেটাই আমি করব। তবে মনে হয় না তার দরকার পড়বে।’ প্রসঙ্গত, ১৭ অক্টোবর টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ শুরু হবে। শেষ হবে ১৪ নভেম্বর।

বন্ধ করুন