বাংলা নিউজ > ময়দান > ১২০ টেস্টে প্রথমবার উইকেটহীন ব্রড-অ্যান্ডারসন জুটি
স্টুয়ার্ট ব্রড ও জেমস অ্যান্ডারসন। ছবি- বিসিসিআই।

১২০ টেস্টে প্রথমবার উইকেটহীন ব্রড-অ্যান্ডারসন জুটি

  • আমদাবাদ টেস্টে ব্যর্থতার নতুন অধ্যায় রচনা করেন দুই ব্রিটিশ তারকা।

শুভব্রত মুখার্জি

আধুনিক টেস্ট ম্যাচ ক্রিকেটের দুই সেরা পেসার ইংল্যান্ডের স্টুয়ার্ট ব্রড এবং জেমস অ্যান্ডারসন। তাঁদেরকে টেস্ট ক্রিকেটের জীবন্ত কিংবদন্তি আখ্যা দিলেও মনে হয় অত্যুক্তি হবে না। যেখানে ব্রড এখনও পর্যন্ত নিয়েছেন ৫০০ টেস্ট উইকেট, সেখানে জিমির উইকেট সংখ্যা ইতিমধ্যেই ছাড়িয়ে গিয়েছে ৬০০। টেস্ট ম্যাচে দেশের মাটিতে হোক কিংবা বিদেশের মাটিতে, এই দুই ক্রিকেটার জুটি বেঁধে খেলতে নামলেই একেবারে 'জুটিতে লুটি ' ফর্মে থাকেন।

বিগত কয়েক দশক ধরে এই দুই কিংবদন্তি এই কাজটিই নিখুতভাবে করে আসছেন। লাল বল হোক বা গোলাপি বল, সবক্ষেত্রেই বিপক্ষ ব্যাটসম্যানদের ত্রাস এই দুই পেসার। তবে আমেদাবাদের নবনির্মিত স্টেডিয়ামের পিচে ডাহা ফেল এই দুই পেসার। দুই ইনিংস মিলিয়ে তাঁরা একাধিক ওভার করলেও একটিও ভারতীয় ব্যাটসম্যানের উইকেট তুলে নিতে পারেননি।

প্রথম ইনিংসে ব্রডের বল গিলের ব্যাটের কানায় লেগে স্লিপে স্টোকসের কাছে যায়। তিনি ক্যাচ ধরলেও তৃতীয় আম্পায়ার কতৃক সেই ক্যাচ অবৈধ ঘোষনা করা হয়। ফলে একসাথে জুটি বেধে ১২০টি টেস্ট ম্যাচ খেলে ফেলা এই বোলিং জুটি প্রথমবার উইকেটশূন্যভাবে কোনও টেস্ট শেষ করলেন।

২০০৯ সালে মাত্র ১০ বল হওয়ার পরে পরিত্যক্ত হওয়া অ্যান্টিগা টেস্টকে এই বিচারের বাইরে রাখা হয়েছে। সেই টেস্টে অবশ্য ইংল্যান্ড বোলাররা একটি বলও করেননি। আমদাবাদ টেস্টে মোট ১৯ ওভার বল করে ৩৬ রান দিয়েছে এই বোলিং জুটি। এই প্রথম তাঁদের কারুর ঝুলিতে নেই কোনও উইকেট। এছাড়াও প্রতিটি টেস্টে এতদিন পর্যন্ত এই জুটি সর্বনিম্ন ৩৪ ওভার বল করেছে। যা আমদাবাদ টেস্টে তাঁরা জুটিবদ্ধ অবস্থায় করতে পারেননি।

বন্ধ করুন