বাংলা নিউজ > ময়দান > কঠিন শাস্তির মুখে পড়তে চলেছেন সুনীল ছেত্রীরা
সুনীলদের হয়তো কঠোর শাস্তি পেতে হবে।
সুনীলদের হয়তো কঠোর শাস্তি পেতে হবে।

কঠিন শাস্তির মুখে পড়তে চলেছেন সুনীল ছেত্রীরা

  • বেঙ্গালুরু এফসি-র কর্ণধার পার্থ জিন্দাল টুইট করে পুরো ঘটনার জন্য ক্ষমা চেয়ে নেন। একই সঙ্গে সেই টুইটেই জানিয়ে দেন, এর জন্য কঠোর ব্যবস্থা তারা নেবে।

এএফসি কাপের ম্যাচ খেলতে গিয়ে মলদ্বীপে জৈব সুরক্ষা বলয়ের নিয়ম ভেঙেছে বেঙ্গালুরু এফসি। কোভিডের নিয়ম ভাঙার জেরে এ বার বড় শাস্তির মুখে পড়তে হতে পারে বেঙ্গালুরু এফসি-কে।

রবিবারই বেঙ্গালুরুর তিন সদস্যের কোভিড বিধি ভাঙা নিয়ে তোলপাড় হয়ে গিয়েছে মলদ্বীপ। ও দেশের ক্রীড়ামন্ত্রী আহমেদ মাহলুফ বেঙ্গালুরু এফসি-কে দেশ ছাড়ার নির্দেশ দিয়েছেন। মলদ্বীপের ইগলস এফসি-র সঙ্গে ম্যাচটিও বাতিল হয়ে গিয়েছে। শুধু তাই নয়, এই পরিস্থিতিতে এএফসি কাপই শেষ পর্যন্ত স্থগিত করে দিতে হয়েছে।

এই ঘটনার পরেই বেঙ্গালুরু এফসি-র কর্ণধার পার্থ জিন্দাল টুইট করে পুরো ঘটনার জন্য ক্ষমা চেয়ে নেন। একই সঙ্গে সেই টুইটেই জানিয়ে দেন, এর জন্য কঠোর ব্যবস্থা তারা নেবে। তবে পার্থ জিন্দালের টুইটের পরও কিন্তু ছাড় পাবে না বেঙ্গালুরু। শোনা যাচ্ছে, এএফসি-র তরফেও কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে। কারণ সুনীল ছেত্রীর বেঙ্গালুরু এফসি-র জন্যই পুরো টুর্নামেন্ট স্থগিত করে দিতে হয়েছে।

সোমবার রাত সাড়ে আটটা নাগাদ বেঙ্গালুরুতে নেমেছেন সুনীলরা। সব প্লেয়ারকে এখন বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে। তার পর সব প্লেয়ার, কোচ, সাপোর্টিং স্টাফ, প্রত্যেককে বাড়ি ফেরানো হবে।

বেঙ্গালুরুর তরফে একটি বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, ‘বেঙ্গালুরু এফসি-র ২০২১ এএফসি কাপের প্লে অফের ম্যাচ স্থগিত হয়ে গিয়েছে। যতদিন না নতুন নোটিশ পাঠিয়ে এশিয়ান ফুটবল কনফেডারেশন কিছু জানাচ্ছে, ততদিন এই ম্যাচ স্থগিতই থাকবে। রবিরাই এ কথা জানিয়ে দেওয়া হয়েছিল। ক্লাব যত তাড়াতাড়ি সম্ভব সব প্লেয়ার, স্টাফেদের বাড়ি পাঠানোর চেষ্টা করছে।’

বন্ধ করুন