বাংলা নিউজ > ময়দান > শতবর্ষে ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের মহান উদ্যোগ, ময়দানের দুঃস্থদের মুখে তুলে দিল খাবার
ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের পক্ষ থেকে মালিদের হাতে খাবার তুলে দেওয়া হচ্ছে (ছবি:ফেসবুক)
ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের পক্ষ থেকে মালিদের হাতে খাবার তুলে দেওয়া হচ্ছে (ছবি:ফেসবুক)

শতবর্ষে ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের মহান উদ্যোগ, ময়দানের দুঃস্থদের মুখে তুলে দিল খাবার

  • এমন পরিস্থিতিতে এগিয়ে এসেছে ইস্টবেঙ্গল ক্লাব। করোনার জন্য ক্লাবের শতবর্ষ সেভাবে উদযাপন করতে পারেনি ইস্টবেঙ্গলের কর্তারা, তার বদলে এই অতিমারীতে সাধারণ মানুষের পাশে থাকার ব্রত নিয়েছেন তাঁরা। আজ শুক্রবার থেকে ময়দান অঞ্চলে দুঃস্থ, অসহায় ও ভবঘুরে মানুষ এবং ময়দানের সব টেন্টের মালিদের মধ্যে খাবার বিতরণ করল তারা।

করোনার এই অতিমারী পরিস্থিতিতে চারিদিকে আতঙ্কের পরিবেশ তৈরি হয়েছে। দেশের সঙ্গে রাজ্যেও বাড়ছে করোনার প্রভাব। এমন অবস্থায় রাজ্যেও আংশিক লকডাউনের পরিস্থিত তৈরি হয়েছে। এমন অবস্থায় ময়দানের ছবিটা আরও খারাপ হয়ে উঠেছে। বর্তমানে ময়দানের মালিদের হাতে কাজ কমেছে, রোজগারও সই রকম নেই। ফাঁকা টেন্টে মালিদের পাশাপাশি যেই সব মানুষ ময়দানকে কেন্দ্র করে রোজগার করতেন, তাদের আজ অভাবে দিন কাটাতে হচ্ছে। এমন অবস্থায় প্রতিদিনের খাবার সংগ্রহ করাই তাদের কাছে দায় হয়ে দাঁড়িয়েছে।

ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের উদ্যোগ (ছবি: ফেসবুক)
ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের উদ্যোগ (ছবি: ফেসবুক)

এমন পরিস্থিতিতে এগিয়ে এসেছে ইস্টবেঙ্গল ক্লাব। করোনার জন্য ক্লাবের শতবর্ষ সেভাবে উদযাপন করতে পারেনি ইস্টবেঙ্গলের কর্তারা, তার বদলে এই অতিমারীতে সাধারণ মানুষের পাশে থাকার ব্রত নিয়েছেন তাঁরা। ময়দানের ক্লাব তাঁবু থেকে আগেও মালিদের সাহায্য করা হয়েছিল, আজ আবার ময়দানের মালিদের জন্য এগিয়ে এল ইস্টবেঙ্গল ক্লাব।

মানুষের পাশে থাকার ব্রত নিয়েছে ইস্টবেঙ্গল ক্লাব। আজ শুক্রবার থেকে ময়দান অঞ্চলে দুঃস্থ, অসহায় ও ভবঘুরে মানুষ এবং ময়দানের সব টেন্টের মালিদের মধ্যে খাবার বিতরণ করল তারা। তাদের ব্রত হল এই অতিমারীতে কাউকে অভুক্ত থাকতে দেবেনা লাল হলুদ ক্লাবের কর্তারা। তাই জন্য খাবার বিতরণের ব্যবস্থা করলো ইস্টবেঙ্গল ক্লাব।

ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের উদ্যোগ (ছবি: ফেসবুক)
ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের উদ্যোগ (ছবি: ফেসবুক)

এই ব্যবস্থা অবশ্য শুধুমাত্র একটি দিনের জন্য নয়, প্রাথমিক পর্যায়ে প্রতিদিন দুই বেলা করে এক মাস পর্যন্ত এই প্রক্রিয়া চলবে। আর এর পরেও সামগ্রিক পরিস্থিতি যতো দিন না অনুকূল হচ্ছে ততদিন পর্যন্ত এই উদ্যোগ নিয়মিত চলবে।

ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের উদ্যোগ (ছবি: ফেসবুক)
ইস্টবেঙ্গল ক্লাবের উদ্যোগ (ছবি: ফেসবুক)

ময়দানের সমস্ত টেন্টের মাঠ কর্মীদের সেই মতো খবর দেওয়া হয়েছে। সবাই দুপুর ঠিক ১২ টা থেকে ১২.৩০ এর মধ্যে ইস্টবেঙ্গল ক্লাবে এসে তাদের জন্য রাখা খাবার সংগ্রহ করে নিতে পারবেন। সন্ধ্যে বেলাতেও ঠিক এরকমই ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। প্রথম দিনের দুপুরে ক্লাবের পক্ষ থেকে প্রায় ১০০ জনের মধ্যে খাবার বিতরণ করা হয়। শতবর্ষে ইস্টবেঙ্গল ক্লাব মানুষের সাথে, মানুষের পাশে থাকতে চায়।

বন্ধ করুন