বাংলা নিউজ > ময়দান > ODI অধিনায়কত্ব যাবে, T20-তে দায়িত্ব ছাড়ার সময় বলা হয়নি বিরাটকে, স্বীকার BCCI-র

বিরাট কোহলির টি-টোয়েন্টি অধিনায়কত্ব ছাড়ার সিদ্ধান্তে সকলে অবাক হয়েছিলেন। তবে সাদা বলের ক্রিকেটে যে একজন অধিনায়কের পক্ষে আছেন নির্বাচকরা, তা সেই সময় বিরাটকে জানানো হয়নি। এমনটাই জানালেন ভারতীয় ক্রিকেটের নির্বাচক কমিটির প্রধান চেতন শর্মা।

শুক্রবার দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে একদিনের সিরিজের দল ঘোষণা করা হয়। তারপরই বিরাটের অধিনায়কত্ব বিতর্ক নিয়ে একের পর এক প্রশ্নে জর্জরিত হন ভারতীয় ক্রিকেটের নির্বাচক কমিটির প্রধান চেতন। তিনি জানান, বিশ্বকাপের ঠিক আগে যখন বিরাট টি-টোয়েন্টি অধিনায়কত্ব ছাড়ার বিষয়ে জানিয়েছিলেন, তখন সকলেই অবাক হয়েছিলেন। ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিসিআই) সকলেই তাঁকে অধিনায়ক থাকার অনুরোধ করেছিলেন। তাতেও কোনও কাজ হয়নি। নিজের সিদ্ধান্তে অনড় ছিলেন বিরাট। সেই পরিস্থিতিতে বিরাটের সিদ্ধান্ত মেনে নিতে বাধ্য হয় বোর্ড। কিন্তু সেইসময় নির্বাচকরা যে সাদা বলের ক্রিকেটে একজন অধিনায়কের পক্ষে আছেন, সে বিষয়ে জানানো হয়নি।

কিন্তু কেন বিরাটকে সেই সময় বিষয়টি জানানো হয়নি? বিশেষত টি-টোয়েন্টিতে অধিনায়কত্ব ছাড়ার পর তিনি যখন স্পষ্টতই জানিয়েছিলেন যে টেস্ট এবং ৫০ ওভারের ক্রিকেটে দলের নেতৃত্ব দিয়ে যেতে চান। চেতনের দাবি, সামনেই টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ছিল। তাই অন্য বিষয় নিয়ে আলোচনা করা হয়নি। তিনি বলেন, ‘ওটা বলার সঠিক সময় ছিল না। আমাদের সামনেই বিশ্বকাপ ছিল। সেই সময় আমাদের ভাবনায় ছিল যে এই বিষয়টা আমাদের দল পারফরম্যান্সের উপর প্রভাব ফেলতে না তো। ওই সময় পুরো বিষয়টি থিতিয়ে যাওয়ার দরকার ছিল। ওটা তো মোটেও বলার সঠিক সময় নয় যে টি-টোয়েন্টির অধিনায়কত্ব ছেড়ে দিলে ৫০ ওভারের ক্রিকেট থেকেও তোমায় সরিয়ে দেওয়া হবে। সবাই (বিরাটকে টি-টোয়েন্টি অধিনায়কত্ব না ছাড়ার জন্য) অনুরোধ করেছিলেন। সেটা ঠিক আছে। কিন্তু মোটেও ওই বিষয়ে (একদিনের অধিনায়কত্ব) আলোচনার জন্য সেটা সঠিক ছিল না। সামনেই আইসিসি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ ছিল। যে টুর্নামেন্টের জন্য আমরা এতদিন ধরে খেটেছি।’

বন্ধ করুন