বাংলা নিউজ > ময়দান > পন্তের স্টাম্প মিসটাই কি টার্নিং পয়েন্ট? নিজেকে আড়াল করলেন না বাটলার
হারের পরে বিষন্ন বাটলার। ছবি- রয়টার্স (Reuters)

পন্তের স্টাম্প মিসটাই কি টার্নিং পয়েন্ট? নিজেকে আড়াল করলেন না বাটলার

  • সুযোগ দিলে পস্তাতে হবে, ম্যাচ হারার জন্য কার্যত নিজের দোষ স্বীকার করে নিলেন ব্রিটিশ দলনায়ক।

সুযোগ হাতছাড়া করলে পস্তাতে হয়, কোনও রাখঢাক না করে মেনে নিলেন জোস বাটলার। তার উপর পন্তের মতো ক্রিকেটারকে জীবনদান দিলে ফল কী হতে পারে, তা ভালো মতোই টের পেয়ে গেলেন ব্রিটিশ দলনায়ক।

ভারতীয় ইনিংসের ১৬তম ওভারে মইন আলির বলে ঋষভ পন্তকে স্টাম্প-আউট করার সহজ সুযোগ হাতছাড়া করেন জোস বাটলার। পন্ত তখন ১৮ রানে ব্যাট করছিলেন। জীবনদান পাওয়ার পরে আর পিছনে ফিরে তাকাননি ঋষভ। ১২৫ রানের ঝকঝকে ইনিংস খেলে ইংল্যান্ডের কাছ থেকে ম্যাচ তথা সিরিজ ছিনিয়ে নিয়ে যান তিনি। হার্দিক পান্ডিয়াওর একটি হাফ-চান্স মিস করে ইংল্যান্ড।

ম্যাচের শেষে এপ্রসঙ্গে বাটলার বলেন, ‘আমি মনে করি যে, আমরা পর্যাপ্ত রান তুলতে পারিনি। বোলিংয়ে আমাদের শুরুটা ভালো হওয়া দরকার ছিল এবং শুরুটা হয় দুর্দান্ত। আমরা সুযোগ তৈরি করেছিলাম। তবে ওই দু’জনই আমাদের কাছ থেকে ম্যাচ ছিনিয়ে নিয়ে যায়। সেকারণেই আমাদের ম্যাচ হারতে হয়।'

আরও পড়ুন:- IND vs ENG 3rd ODI: হার্দিক-পন্তের সাঁড়াশি আক্রমণে ব্রিটিশ সাম্রাজ্য দখল ভারতের

সঙ্গে বাটলার যোগ করেন, ‘এমন খেলোয়াড়দের সুযোগ দিলে ওরা পালটা আঘাত হানবেই। হার্দিকেরও হাফ-চান্স মিস করেছি আমরা। আমাদের হাতে যা রান ছিল, তাতে (জিততে হলে) সব সুযোগ কাজে লাগাতে হতো।’

আরও পড়ুন:- IND vs ENG: 'ছয় বলে ছ'টা ছক্কা খেলেও পরোয়া নেই যদি উইকেট আসে', স্পষ্টবাক সিরিজ সেরা হার্দিক

উল্লেখ্য, ম্যাঞ্চেস্টারে টস হেরে শুরুতে ব্যাট করতে নামে ইংল্যান্ড। তারা ২৫৯ রানে অল-আউট হয়ে যায়। জবাবে ব্যাট করতে নেমে ভারত ৫ উইকেটে ২৬১ রান তুলে ম্যাচ জিতে যায়। সেই সঙ্গে তিন ম্যাচের ওয়ান ডে সিরিজ ২-১ ব্যবধানে জিতে নেয় টিম ইন্ডিয়া।

বন্ধ করুন