বাংলা নিউজ > ময়দান > কোহলিকে ছামিয়া বলার পরে এবার অ্যান্ডারসনকে অসম্মান, সেহওয়াগকে ধারাভাষ্যকারের প্যানেল থেকে সরানোর দাবি

কোহলিকে ছামিয়া বলার পরে এবার অ্যান্ডারসনকে অসম্মান, সেহওয়াগকে ধারাভাষ্যকারের প্যানেল থেকে সরানোর দাবি

অ্যান্ডারসনকে নিয়ে বীরুর মন্তব্যে চটেছেন ক্রিকেটপ্রেমীরা। ছবি- টুইটার।

বিরাট কোহলিকে নিয়ে কুরুচিকর মন্তব্যের পরে এবার অ্যান্ডারসনের বয়স নিয়ে কটাক্ষ বীরেন্দ্র সেহওয়াগের।

ছামিয়ার পরে এবার বুজুর্গ, ধারাভাষ্য দেওয়ার সময় বীরেন্দ্র সেহওয়াগের শব্দচয়নে রেগে লাল ক্রিকেটপ্রেমীরা। সোশ্যাল মিডিয়ায় শুরু হয়েছে বীরুর মুণ্ডপাত। এমনকি তাঁকে ধারাভাষ্যকারের প্যানেল থেকে সরিয়ে দেওয়ার দাবিও তুলছেন নেটিজেনরা।

এজবাস্টন টেস্ট চলাকালীন বিরাট কোহলির নাচ দেখে 'ছামিয়া নাচছে' বলে কুরুচিকর মন্তব্য করেন সেহওয়াগ। যার জন্য ভারতীয় সমর্থকদের রোষের মুখে পড়তে হয়েছে বীরুকে। এবার টেস্টের চতুর্থ দিনে অ্যান্ডারসনকে বুড়ো বলে সম্বোধন করতে শোনা যায় সেহওয়াগকে।

ভারতের দ্বিতীয় ইনিংসের ৭০তম ওভারে ম্যাথিউ পটসের বলে জাদেজাদ ক্যাচ মিস করেন অ্যান্ডারসন। তার পরেই সেহওয়াগকে বলতে শোনা যায় যে, ‘বুজুর্গ (বয়স্ক) অ্যান্ডারসন জাদেজার ক্যাচ ছেড়ে দিয়েছেন।’ টিম ইন্ডিয়ার প্রাক্তন তারকা আরও মন্তব্য করেন যে, ক্যাচ ধরলে ভারতের ইনিংস কার্যত শেষ হয়ে যেত।

আরও পড়ুন:- দ্বিগুণ হল হারের জ্বালা, এজবাস্টন টেস্ট হাতছাড়া করে ঘোর দুঃসংবাদ পেল টিম ইন্ডিয়া

সেওয়াগের বিরুদ্ধে ক্ষোভ।
সেওয়াগের বিরুদ্ধে ক্ষোভ।

অ্যান্ডারসনকে বুড়ো বলে কটাক্ষ করার পরেই নেটিজেনরা সুর চড়ান সেহওয়াগের বিরুদ্ধে। অনেকেরই মত, বীরু ধারাভাষ্য দেওয়ার সময় বাড়াবাড়ি করছেন। অনেকে আবার সরাসরি প্রশ্ন তোলেন যে, সেহওয়াগকে কেন ধারাভাষ্যকারের প্যানেল থেকে সরিয়ে দেওয়া হচ্ছে না।

আরও পড়ুন:- বর্তমান ক্রিকেটারদের মধ্যে সেঞ্চুরির শিখরে জো রুট, কোহলির সামনেই টপকালেন কোহলিকে

সেহওয়াগকে ধারাভাষ্যকারের প্যানেল থেকে সরানোর দাবি।
সেহওয়াগকে ধারাভাষ্যকারের প্যানেল থেকে সরানোর দাবি।

উল্লেখ্য, রবিবার এজবাস্টনে ভারত-ইংল্যান্ড টেস্টের মাঝেই ভাইরাল হয়ে যায় বিরাটের উচ্ছ্বাস প্রকাশের একটি ভিডিয়ো। সম্প্রচারকারী সংস্থার হিন্দি চ্যানেলে ধারাভাষ্য দেওয়ার সময় সেই ভিডিয়োয় সেহওয়াগকে বলতে শোনা যায়, ‘ছামিয়া নাচছে ওখানে।'

পরক্ষণেই কোহলির প্রশংসাও করেন প্রাক্তন ভারতীয় তারকা। তাতে অবশ্য চিঁড়ে ভেজেনি। নেটিজেনদের তুমুল রোষের মুখে পড়েন সেহওয়াগ।

বন্ধ করুন