জন্মদিনে সচিনকে এভাবেই শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মেয়ে সারা। ছবি- ইনস্টাগ্রাম।
জন্মদিনে সচিনকে এভাবেই শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মেয়ে সারা। ছবি- ইনস্টাগ্রাম।

দেশবাসীর কষ্টের সময়ে জন্মদিনের উৎসব নয়, তবু সচিন ভাসছেন শুভেচ্ছার বন্যায়

  • শুক্রবারই ৪৭-এ পা দিলেন সচিন তেন্ডুলকর।

শুক্রবারই পা দিলেন ৪৭-এ। ক্রিকেট ঈশ্বর আগেই জানিয়েছিলেন এবার জন্মদিনের কোনও উৎসব পালন নয়। পরিবারের সঙ্গে নিতান্ত ঘরোয়া মেজাজেই কাটিয়ে দিতে চান জন্মদিন। করোনার জেরে সারা বিশ্বে যেভাবে মানুষের জীবন বিপন্ন, তাতে তাঁর বার্থডে সেলিব্রেশন মানায় না। এমনটাই মত সচিন তেন্ডুলকরের।

এমন মহানুভবতাই তেন্ডুলকরকে ক্রিকেটপ্রেমীদের মনে ভগবানের আসন এনে দিয়েছে। তিনি বরাবর মানুষের মাঝে, সমর্থকদের সমবেত উদ্দীপণায় থাকতে চেয়েছেন। তাই মানব জাতীর এমন বিপন্নতার দিনে না হয় উৎসব থেকে দূরে থাকলেন সচিন। তবে বিশ্বজোড়া কোটি কোটি সমর্থকরা এমন বিশেষ দিনে সচিনকে সরিয়ে রাখবেন নিজেদের মন থেকে, এটাও সম্ভব নয়। তাই উৎসবে থাকুন বা অন্তরালে, জন্মদিনের শুভেচ্ছায় ভাসছেন মাস্টার ব্লাস্টার।

তেন্ডুলকর জন্মদিনের প্রথম শুভেচ্ছা বার্তা পান মেয়ে সারার কাছ থেকে। ঘড়ির কাঁটা রাত ১২টা ছুঁতেই সারা ইনস্টাগ্রাম স্টোরিতে বাবার সঙ্গে দু'টি ছবি পোস্ট করে লিটল মাস্টারকে জন্মদিনের অভিনন্দন জানান। একটি ছবিতে ছেলেবেলার সারা ও অর্জুনকে কোলে নিয়ে দাঁড়িয়ে রয়েছেন সচিন। অন্য ছবিটি সাম্প্রতিক সময়ের।

তেন্ডুলকরকে জন্মদিনের অভিনন্দন জানাতে তৎপর ছিল বিসিসিআই। রাত ১২টার সময় ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের অফিসিয়াল টুইটার অ্যাকাউন্টে সচিনের ৪১তম টেস্ট সেঞ্চুরির ভিডিও পোস্ট করা হয়। ২০০৮ সালে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে এই সেঞ্চুরিটি সচিন উৎসর্গ করেছিলেন মু্ম্বইয়ে সন্ত্রাসবাদী হামলায় নিহতদের।

সচিনকে জন্মজিনের শুভেচ্ছা জানিয়েছে আইসিসিও। এছাড়া শুভেচ্ছা বার্তা উড়ে এসেছে ক্রীড়াবিশ্বের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে।

বন্ধ করুন