বাংলা নিউজ > ময়দান > আমি এখানে দাঁড়িয়ে আছি অনুষ্কার জন্য- স্ত্রী ও মেয়েকে সেঞ্চুরি উৎসর্গ কোহলির
বিরাট কোহলি।

আমি এখানে দাঁড়িয়ে আছি অনুষ্কার জন্য- স্ত্রী ও মেয়েকে সেঞ্চুরি উৎসর্গ কোহলির

  • এ দিন কোহলি ৭১তম সেঞ্চুরি করেন। তিনি স্পর্শ করেন রিকি পন্টিংকে। পন্টিংয়েরও ৭১টি সেঞ্চুরি রয়েছে। কোহলি যে প্রাক্তন অজি অধিনায়ককে ছাপিয়ে যাবেন, সে বিষয়ে সন্দেহ নেই। তাঁর আগে শুধু থাকবেন সচিন তেন্ডুলকর। সচিনের সংগ্রহে রয়েছে ১০০টি সেঞ্চুরির রেকর্ড।

অবশেষে শাপমুক্তি। প্রায় তিন বছর অপেক্ষা করার পরে সেঞ্চুরির খরা কাটল কোহলির। বৃহস্পতিবার আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে এশিয়া কাপের সুপার ফোরের শেষ ম্যাচে ৫৩ বলে ব্যক্তিগত শতরান পূর্ণ করেন কোহলি। সেই সঙ্গে গড়ে ফেললেন নয়া নজির। প্রথম প্লেয়ার হিসেবে এশিয়া কাপে সেঞ্চুরি করার রেকর্ড গড়লেন কিং কোহলির।

এ দিন আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে ২ বছর ৯ মাস ১৬ দিন পর সেঞ্চুরি করলেন কিং কোহলি। বিরাট শেষ বার আন্তর্জাতিক সেঞ্চুরি করেছিলেন ২০১৯ সালের নভেম্বরে। কলকাতার ইডেনে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে পিঙ্ক বল টেস্টে শেষবার তিন অঙ্কের ব্যক্তিগত ইনিংস খেলেছিলেন তিনি। অপেক্ষা দীর্ঘ থেকে দীর্ঘতম হয়েছে ক্রমশ। ক্রিকেটপ্রেমীরা চাতক পাখির মতো চেয়ে থেকেছেন কোহলির দিকে। কিন্তু বার বার হতাশ হতে হয়েছে তাঁদের। দীর্ঘ অপেক্ষার পরে অবশেষে সেঞ্চুরির খরা কাটালেন কোহলি।

আরও পড়ুন: Asia Cup-এর মঞ্চে নয়া রেকর্ড কোহলির, সেঞ্চুরিতে সামনে শুধু সচিন

১২২ রানের ঝলমলে ইনিংস খেলার পর অফিসিয়াল ব্রডকাস্টারদের সঙ্গে কথা বলতে গিয়ে বিরাট কোহলি আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েছিলেন। তিনি বলেন, ‘গত আড়াই বছর আমাকে অনেক কিছু শিখিয়েছে। কয়েক মাসের মধ্যে আমার ৩৪ বছর হচ্ছে। দলের পরিবেশ এখন অনেক খোলামেলা এবং দল আমাকে সাহায্যও করেছে। আমি জানি অনেক কথা হচ্ছিল। আমি আমার আংটি চুম্বন করেছি। আসলে আপনি আমাকে এখানে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখছেন, কারণ একজন ব্যক্তি আমার জন্য সব কিছু উৎসর্গ করেছে। আর সেটা হল অনুষ্কা। এই সেঞ্চুরিটি ওকে এবং আমাদের মেয়ে ভামিকার জন্যই।’

আরও পড়ুন: রোহিতদের ম্যাচ শুরুর আগেই স্টেডিয়ামের বাইরে দাউদাউ আগুন-ছড়াল আতঙ্ক

এখানেই থামেননি কোহলি। তিনি আরও বলেছেন, ‘যখন আপনার পাশে এমন কেউ থাকে, যিনি বিষয়গুলিকে ফোকাসে রাখার বিষয়ে কথা বলেন, যেমন অনুষ্কা ছিল, এটি একটি বড় বিষয়। আমি যখন ফিরে আসি, তখন আমি হতাশ ছিলাম না। বরং ছয় সপ্তাহের ছুটির পরে আমি সতেজ হয়ে গিয়েছিলাম। আমি বুঝতে পেরেছিলাম, আমি কতটা ক্লান্ত ছিলাম। তবে টুর্নামেন্ট এর অনুমতি দেয় না, কিন্তু এই বিরতি আমাকে আবার খেলা উপভোগ করতে সাহায্য করেছে।’

এ দিন কোহলি ৭১তম সেঞ্চুরি করেন। তিনি স্পর্শ করেন রিকি পন্টিংকে। পন্টিংয়েরও ৭১টি সেঞ্চুরি রয়েছে। কোহলি যে প্রাক্তন অজি অধিনায়ককে ছাপিয়ে যাবেন, সে বিষয়ে সন্দেহ নেই। তাঁর আগে শুধু থাকবেন সচিন তেন্ডুলকর। সচিনের সংগ্রহে রয়েছে ১০০টি সেঞ্চুরির রেকর্ড।

এশিয়া কাপের শুরু থেকেই ছন্দে ফেরার ইঙ্গিত দিচ্ছিলেন বিরাট কোহলির ব্যাটে। চেনা মেজাজে পাওয়া না গেলেও রান আসছিল। সেই পথেই চলে এল আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে কোহলীর ৭১তম শতরান।

সুপার ফোরে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে ম্যাচে শূন্য রানে সাজঘরে ফিরেছিলেন। আফগানিস্তান ম্যাচে সুদে আসলে পুষিয়ে নিলেন কোহলি। ১০২০ দিন পর শতরান ধরা দিল কোহলির ব্যাটে। কোহলির বৃহস্পতিবারের শতরান একরাশ স্বস্তি নিয়ে এল ক্রিকেট বিশ্বে। এ দিনও শুরুতে কিছুটা ধরে খেলার চেষ্টা করছিলেন তিনি। ব্যাটে-বলে ঠিক মতো স‌ংযোগ হতেই হাত খুলে আফগান বোলারদের শাসন করতে শুরু করেন। শতরান এল ৫৩ বলে। বিরাট ছক্কায় এল বহু কাঙ্খিত এই শতরান। ৬১ বলে ১২২ করে অপরাজিত থাকলেন তিনি। তাঁর ইনিংসে রয়েছে ১২টি চার এবং ছ'টি ছয়। স্ট্রাইকরেট ২০০.০০।

বন্ধ করুন