বাংলা নিউজ > ময়দান > ছেলেকে নিয়ে যুবরাজ আর হ্যাজেলের আবেগপ্রবণ বার্তা, মন ছুঁয়ে গেল ভক্তদের
মাতৃদিবসে যুবি-হ্যাজেলের বিশেষ বার্তা।
মাতৃদিবসে যুবি-হ্যাজেলের বিশেষ বার্তা।

ছেলেকে নিয়ে যুবরাজ আর হ্যাজেলের আবেগপ্রবণ বার্তা, মন ছুঁয়ে গেল ভক্তদের

  • যুবরাজ সিংয়ের স্ত্রী হ্যাজেল কিচ এই বছরের জানুয়ারিতে একটি ফুটফুটে ছেলের জন্ম দিয়েছেন। যুবি ইনস্টাগ্রামে একটি ভিডিয়ো শেয়ার করেছেন। যে ভিডিয়োটিতে যুবরাজ সিং এবং হ্যাজেল কিচ মিলে তাদের বাব-মা হয়ে ওঠার অভিজ্ঞতাই বর্ণণা করেছেন।

বাবা-মা হওয়ার পর থেকে একেবারে আবেগে ভাসছেন যুবরাজ সিং এবং হ্যাজেল কিচ। যুবি সম্প্রতি মাতৃদিবস উপলক্ষে তাঁর স্ত্রী হ্যাজেলের সঙ্গে তাঁর ছেলেকে নিয়ে একটি ভিডিয়ো শেয়ার করেছেন। যার মাধ্যমে তিনি সুন্দর একটি বার্তা শেয়ার করেছেন। আর এই পোস্টটি শেয়ার করে ভক্তদের আবেগপ্রবণ করে দিছেন যুবরাজ সিং।

যুবরাজ সিংয়ের স্ত্রী হ্যাজেল কিচ এই বছরের জানুয়ারিতে একটি ফুটফুটে ছেলের জন্ম দিয়েছেন। যুবি ইনস্টাগ্রামে একটি ভিডিও শেয়ার করেছেন। যে ভিডিয়োটিতে যুবরাজ সিং এবং হ্যাজেল কিচ মিলে তাদের বাব-মা হয়ে ওঠার অভিজ্ঞতাই বর্ণণা করেছেন। এই ভিডিয়োর মাধ্যমে ভারতকে বিশ্বকাপ জেতানো অলরাউন্ডারের স্ত্রী হ্যাজেল কিচ ভক্তদের সঙ্গে তার নিজের মা হয়ে ওঠার ৯ মাসের মুহূর্তগুলো ভাগ করে নিয়েছেন। তবে এই ভিডিয়োতে যুবরাজ সিংয়ের ছেলের চেহারা খুব একটা স্পষ্ট নয়। সোশ্যাল মিডিয়ায় এই ভিডিয়োটি ভক্তরা বেশ পছন্দও করেছেন।

আরও পড়ুন: ‘ধোনির মতো ভাগ্যবান সকলে হয় না, যারা ম্যানেজমেন্টের সমর্থন পায়’, বিস্ফোরক যুবরাজ

আরও পড়ুন: আবেগের বশে রোহিতকে টেস্ট অধিনায়ক করা হয়, ওর ফিটনেস নিয়ে প্রশ্ন আছে, বোমা যুবির

ভিডিয়োটি শেয়ার করে যুবি সঙ্গে লিখেছেন, ‘এই মাতৃদিবসে একজন বাবা হিসেবে আমার যাত্রা ভাগ করে নিতে পেরে অভিভূত। আমি বিশ্বাস করি, আমরা মায়ের জন্য সবচেয়ে ভালো যে কাজটি করতে পারি, তা হল অভিভাবকত্বের সমান অংশীদার হওয়া। ডায়াপার বদলানো হোক বা খাওয়ানো হোক, আমি সব সময় শিখেছি কিন্তু @hazelkeechofficial ঠিক নিখুঁত ছিল। @philipsavent_india-এর বুটক্যাম্পে একজন বাবার কোচিংয়ে যোগ দিয়েছি এবং বাবাদের সমান ভাবে শিখতে দেখে খুব খুশি। আসুন শুধুমাত্র এই মাতৃ দিবসে নয়, আমাদের জীবনের প্রতিটি দিনে এই প্যারেন্টিং যাত্রায় অংশীদার হওয়ার প্রতিশ্রুতি দিই।’

যুবরাজ সিং ১২ নভেম্বর ২০১৫-এ হ্যাজেল কিচের সঙ্গে বাগদান সেরেছিলেন। এর পর ২০১৬ সালের ৩০ নভেম্বর বিয়ে করেন দু'জনে। যুবরাজ সিং ভারতকে ২০০৭ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ এবং ২০১১ সালের ক্রিকেট বিশ্বকাপ চ্যাম্পিয়ন করতে বড় ভূমিকা নিয়েছিলেন। তাঁর ৬ বলে ৬টি ছক্কা মারার কীর্তি রয়েছে। যুবির বিস্ফোরক ব্যাটিংয়ে পাগল ছিল সবাই। সেই যুবরাজ ক্যান্সারের সঙ্গে লড়াই করে, তাতেও জয়ী হয়েছেন। প্রাক্তন ক্রিকেটার কিন্তু এখনও ক্রিকেট প্রেমীদের মনে আলাদা জায়গা করে রেখেছেন।

বন্ধ করুন