বাংলা নিউজ > টেকটক > আজ পর্যন্ত চাঁদের অন্যতম স্পষ্ট ছবি, তাক লাগাল ১৬ বছরের প্রথমেশ
ছবি : প্রথমেশের ইনস্টাগ্রাম ও এএনআই (Instagram & ANI)
ছবি : প্রথমেশের ইনস্টাগ্রাম ও এএনআই (Instagram & ANI)

আজ পর্যন্ত চাঁদের অন্যতম স্পষ্ট ছবি, তাক লাগাল ১৬ বছরের প্রথমেশ

কী কী সরঞ্জাম ব্যবহার করা হয়েছে, তার তালিকাও দিয়েছে প্রথমেশ।

আজ পর্যন্ত তোলা চাঁদের অন্যতম সুস্পষ্ট ছবি তুলে তাক লাগালেন পুণের ১৬ বছরের কিশোর। সোশ্যাল মিডিয়ায় তাঁর তোলা চাঁদের ছবি ভাইরাল হওয়ার পর এখন তাঁর প্রশংসায় বিশ্বের তাবড় মহাকাশ পর্যবেক্ষকরা।

প্রথমেশ জাজু নামের ওই কিশোর পুণের বিদ্যাভবন হাইস্কুলের ক্লাস টেনের ছাত্র। আর তাঁর ধ্যানজ্ঞান মহাকাশবিদ্যা ও মহাকাশের ফটোগ্রাফি করা। আর সেই ভালোবাসা থেকেই এবার অসাধ্য সাধন করেছেন প্রথমেশ।

গত ৩ মে পরিকল্পনা করে চাঁদের প্রায় ৫০,০০০ ছবি তোলেন প্রথমেশ। রাত ১টা থেকে ভোর ৫টা পর্যন্ত চলে গোটা প্রক্রিয়া। মোট ৩৮টি প্যানেলের ছবি যুক্ত করে সামনে আসে চাঁদের অন্যতম স্পষ্ট ছবি। এত বেশি রেজোলিউশনের ছবি, তাও আবার একজন অ্যামেচারের তোলা খুবই কম রয়েছে। মোট ৪০ ঘণ্টা সময় লেগেছে ছবিগুলি প্রসেস করতে।

এতগুলো ছবির জন্য মোট কতটা স্পেস লেগেছিল আন্দাজ করতে পারবেন? প্রথমেশ জানিয়েছেন, ছবিগুলি সব মিলিয়ে সাইজ হবে ১৮৬ জিবিরও বেশি।

১৫০০ এবং ৩০০০ mm ফোকাল লেঙ্গথে ৩৮টি প্যানেলে চাঁদের ছবি তোলেন প্রথমেশ। প্রতিটি ছবি ১.২ মেগাপিক্সেলের। অর্থাত্ মোট প্রায় ৫০ মেগাপিক্সেল রেজোলিউশন দাঁড়ায় ছবিটির। যদিও ইনস্টাগ্রামে পোস্টের সময়ে ছবির রেজোলিউশন হ্রাস পেয়েছে। কিন্তু কেউ সম্পূর্ণ রেজোলিউশনে চাঁদের ছবিটি চাইলে তাকে মেসেজ করে জানাতে বলেছেন প্রথমেশ। কী কী সরঞ্জাম ব্যবহার করা হয়েছে, তার তালিকাও দিয়েছে প্রথমেশ। দেখুন তার সেই পোস্ট।

কিন্তু কোথা থেকে এতকিছু শিখলেন ক্লাস টেনের ছাত্র? সংবাদসংস্থা এএনআই-কে দেওয়া সাক্ষাত্কারে তিনি জানয়েছেন, বিভিন্ন আর্টিকেল পড়ে ও ইউটিউবে ভিডিয়ো দেখেই আস্তে আস্তে শিখেছেন। ভবিষ্যতে মহাকাশবিদ্যা নিয়েই পড়াশোনা করতে চান বলে জানিয়েছেন প্রথমেশ। 

বন্ধ করুন