বাংলা নিউজ > টেকটক > IRCTC Ticket Scam: টিকিট রিফান্ডের নামের চলছে বড়সড় জালিয়াতি! সাবধান করল রেল
ফাইল ছবি: আইআরসিটিসি (IRCTC)

IRCTC Ticket Scam: টিকিট রিফান্ডের নামের চলছে বড়সড় জালিয়াতি! সাবধান করল রেল

IRCTC Ticket Refund Scam: সন্দেহজনক কল বা লিঙ্কে উত্তর না দেওয়ার জন্য সতর্ক করেছে IRCTC। এর অন্যথা হলেই হারাতে পারেন অনেক টাকা। দিন দিন অনলাইন টিকিটিং এবং UPI হ্যান্ডেলের মাধ্যমে পেমেন্ট বাড়ছে। আর এই প্রযুক্তিকে কাজে লাগিয়েই ফাঁদ পাতছে প্রতারকরা।

দূরপাল্লার ট্রেনের টিকিট কাটেন? সেক্ষেত্রে থাকুন সতর্ক। টিকিট রিফান্ডিং প্রক্রিয়ার ছদ্মবেশে চলছে বড়সড় জালিয়াতি চক্র। ইতিমধ্যেই এ বিষয়ে যাত্রীদের সতর্ক করেছে ভারতীয় রেল। যাত্রীদের কোনও সন্দেহজনক কল বা লিঙ্কে উত্তর না দেওয়ার জন্য সতর্ক করেছে IRCTC। এর অন্যথা হলেই হারাতে পারেন অনেক টাকা। দিন দিন অনলাইন টিকিটিং এবং UPI হ্যান্ডেলের মাধ্যমে পেমেন্ট বাড়ছে। আর এই প্রযুক্তিকে কাজে লাগিয়েই ফাঁদ পাতছে প্রতারকরা।

কীভাবে প্রতারণা করা হচ্ছে?

প্রথমে আপনার কাছে একটি কল আসবে। তাতে দাবি করা হবে যে সেটি আইআরসিটিসি-র থেকে। টিকিটের টাকা ফেরত দেওয়ার জন্য ব্যাঙ্কের ডিটেইলস সম্পর্কে জানতে চাইবেন তিনি। ইউপিআই আইডি এবং ব্যাঙ্কের ডিটেইলস বলে দিলেই সেটা কাজে লাগাচ্ছে প্রতারকরা। কোনও লিঙ্ক পাঠিয়ে তাতে ক্লিক করতে বলা হচ্ছে। সেটা করলেই হাতিয়ে নেওয়া হচ্ছে তথ্য। তুলে নেওয়া হচ্ছে মোটা টাকা।

আইআরসিটিসি কখনই এভাবে ফোন করে কারও ব্যাঙ্ক ডিটেইলস জানতে চায় না।

নিজের অভিজ্ঞতার কথা টুইটে শেয়ার করেছেন এক ব্যক্তি। তাতে রিপ্লাই করেছে রেল।

আইআরসিটিসি আধিকারিকরা এর বিরুদ্ধে অবিলম্বে পদক্ষেপ নিয়েছেন। টুইট করা ব্যক্তিকে তাঁর পিএনআর নম্বর শেয়ার করতে বলেছেন তাঁরা। তাঁর অভিযোগ নথিভুক্ত করেছে রেল।

এমন প্রতারণার যুগে কীভাবে সাবধান থাকবেন?

১. নিয়মিত পাসওয়ার্ড বদল করুন।

২. ব্রাউজিং হিস্টরি ডিলিট করুন।

৩. শুধুমাত্র সুপরিচিত ব্যাঙ্কিং, টাকা লেনদেনের অ্যাপই ব্যবহার করুন।

কী করবেন না

১. কাউকে ব্যাঙ্কিং ডিটেইলস জানাবেন না। তিনি নিজেকে ব্যাঙ্ককর্মী, রেলকর্মী বা আয়কর দফতরের কর্মী বলে পরিচয় দিলেও নয়। সরকারি কর্মী বা অ্যাপের প্রতিনিধিরা কখনই ফোনে বা মেসেজে এই তথ্যাদি চান না। সরাসরি ব্যাঙ্কে বা দফতরে আসতে বলেন।

২. অচেনা, অজানা ওয়েবসাইট খুলবেন না। মেসেজে ফরোয়ার্ড হয়ে আসা কোনও লিঙ্ক খুলবেন না।

৩. ফোনে ব্যাঙ্কিং ডিটেইলস লিখে বা ছবি তুলে রেখে দেবেন না।

৪. কেউ কোনও অচেনা অ্যাপ ইনস্টল করতে বললে করবেন না।

বন্ধ করুন