বাংলা নিউজ > টেকটক > ঋণ দিতে গজিয়ে ওঠা বেআইনি অ্যাপ বন্ধ করে দেবে সরকার, বৈধ তালিকা প্রকাশ করবে RBI
অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন (HT_PRINT)

ঋণ দিতে গজিয়ে ওঠা বেআইনি অ্যাপ বন্ধ করে দেবে সরকার, বৈধ তালিকা প্রকাশ করবে RBI

কীভাবে বেআইনি অ্যাপের জন্য সাধারণ মানুষের ক্ষতি হচ্ছে, তা নিয়ে চিন্তিত অর্থমন্ত্রী। 

ভুলভাল লোন অ্যাপের খপ্পরে পড়ে অনেক মানুষই ঠকছেন। সেই নিয়ে এবার সক্রিয় হলেন অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারামন। তিনি আরবিআইকে একটি সাদা তালিকা বা ওয়াইট লিস্ট বার করতে বলেছেন যেগুলি বিশ্বাসযোগ্য অ্যাপ তাদেরকে নিয়ে। সরকারের আইটি দফতরের কাজ হবে এটা দেখা যে তাদের শিলমোহর দেওয়া অ্যাপই যাতে বিভিন্ন অ্যাপ স্টোরে পাওয়া যায়। অর্থমন্ত্রক একটি বিবৃতির মাধ্যমে এই কথা জানিয়েছে। 

অর্থমন্ত্রক জানিয়েছে যে হাল আমলে একটি উদ্বেগজনক ট্রেন্ড দেখা যাচ্ছে যে বেআইনি লোন অ্যাপগুলি ঋণ দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিচ্ছে বিশেষত গরীব মানুষদের। এরপর অত্যন্ত চড়া সুদ দাবি করা হচ্ছে ও বিভিন্ন লুকনো খরচ থাকছে সেগুলিও চাপিয়ে দেওয়া হচ্ছে ঋণগ্রহীতাদের ওপর। তারপর অদেয় টাকা উদ্ধার করার জন্য ভয় দেখানো থেকে ব্ল্যাকমেল, সবই চলছে বলে অর্থমন্ত্রক জানতে পেরেছে। 

গত মাসেই আরবিআই গাইডলাইন প্রকাশ করেছিল ডিজিটাল ঋণদাতা  প্ল্যাটফর্মগুলির জন্য যে গ্রাহকদের স্বার্থ তাদের নিশ্চিত করতে হবে। অনেক অ্যাপের বিষয়ে অভিযোগ আসার পরেই নড়েচড়ে বসেছে সরকার। বৃহস্পতিবারের বৈঠকে অর্থ, কর্পোরেট বিষয়ক মন্ত্রক, আইটি মন্ত্রকের সচিব পর্যায়ের আমলারা উপস্থিত ছিলেন। কেন্দ্রীয় ব্যাঙ্কের প্রতিনিধিরাও ছিলেন সেখানে। 

অর্থমন্ত্রী বিভিন্ন কর্তাব্যক্তিদের কথা শোনার পর বলেন এই সব বেআইনি ঋণ অ্যাপগুলির সঙ্গে কালো টাকা সাদা করা, ট্যাক্স চুরি, ডেটা বিক্রি প্রভৃতি ইত্যাদি অপরাধমূলক কাজকর্মের যোগ থাকার সম্ভাবনা আছে। তারপরেই ঠিক করা হয় যে রিজার্ভ ব্যাঙ্ক তালিকা ঠিক করবে কোন কোন অ্যাপগুলি চলতে পারে ও সেই অনুযায়ী ব্যবস্থা নেবে আইটি মন্ত্রক। একই সঙ্গে কালো টাকা সাদা করার কাজে কোনও অ্যাকাউন্ট যুক্ত কিনা, সেটাও খতিয়ে দেখা হবে। যে সব পেমেন্ট অ্যাগ্রিগেটরগুলি আছে, তাদের নথিভুক্তিকরণ একটা নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে করে নেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়। যারা ওই বেঁধে দেওয়া সময়সীমার মধ্যে রেজিস্ট্রেশন করবে না, তাদের কাজকর্ম বন্ধ করে দেওয়া হবে বলে কড়া সিদ্ধান্ত  নেওয়া হয় বৈঠকে। 

বন্ধ করুন