বাংলা নিউজ > দেখতেই হবে > পাকিস্তানের রাষ্ট্রীয় 'উপহার' গোপনে বিক্রিবাটা করেছেন ইমরান?

পাকিস্তানের রাষ্ট্রীয় 'উপহার' গোপনে বিক্রিবাটা করেছেন ইমরান?

  • পাক আইন অনুযায়ী কোনও প্রধানমন্ত্রী নিজের পদে থাকাকালীন কোনও উপহার পেলে তা রাষ্ট্রের কাছে জমা করতে হবে। পাকিস্তানের 'তোশাখানা' বা ডিপোজিটারিতে তা রাখতে হয়। পাক প্রধানমন্ত্রীর পদে থাকাকালীন ইমরান খান উপহার হিসাবে পেয়েছিলেন এক নেকলেস। সেই নেকলেস তোশাখানাতে জমা না করে, তা বিক্রি করা হয় বলে অভিযোগ। লাহোরের এক গহনা ব্যবসায়ীর কাছে তা ১৮ কোটি টাকায় বিক্রি করার অভিযোগ রয়েছে। তারপর 'গিফ্ট রিপোসিটারি'তে তার বদলে কিছু লাখ টাকা ইমরান দিয়ে দেন বলে অভিযোগ। নিয়ম অনুযায়ী, রিপোসিটারিতে উপহারটি জমা না দিতে পারলে, বা তার দামের অর্ধেকও দিতে না পারলে তা অবৈধ। বিষয়টি নিয়ে তদন্ত শুরু করেছে পাকিস্তানের ফেডারেল ইনভেস্টিগেশন এজেন্সি। উল্লেখ্য, সদ্য পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর পদ থেকে সরে গিয়েছেন ইমরান। আর তিনি 'প্রাক্তন' হতেই উঠছে এই বিস্ফোরক অভিযোগ। ইমরান বিরোধীদের দাবি রাষ্ট্রের পাওয়া উপহার ইমরান পদে থেকে গোপনে বিক্রিবাটা করে গিয়েছেন।