বাংলা নিউজ > ক্রিকেট > এশিয়া কাপ > UP T20 League: তিন বলে তিনটি বোল্ড, রিঙ্কুর মঞ্চে দুরন্ত হ্যাটট্রিক একদা IPL-এ নজর কাড়া তরুণ পেসারের- ভিডিয়ো

UP T20 League: তিন বলে তিনটি বোল্ড, রিঙ্কুর মঞ্চে দুরন্ত হ্যাটট্রিক একদা IPL-এ নজর কাড়া তরুণ পেসারের- ভিডিয়ো

ইউপি টি-২০ লিগের প্রথম হ্যাটট্রিক। ছবি- টুইটার।

Uttar Pradesh T20 League: টানা তিন ম্যাচে শতরান করার পরে ফের ঝোড়ো হাফ-সেঞ্চুরি স্বস্তিকের। উত্তরপ্রদেশ টি-২০ লিগের ইতিহাসে প্রথম হ্যাটট্রিক একদা ভারতীয় দলের সঙ্গে ঘুরে বেড়ানো ২২ বছরের পেসারের।

পরপর ৩ বলে তিনটি উইকেট। তিনটিই বোল্ড। ইউপি টি-২০ লিগের ইতিহাসে প্রথম হ্যাটট্রিক করলেন একদা জাতীয় দলের সঙ্গে ঘুরে বেড়ানো তরুণ পেসার। রিঙ্কু সিং ব্যাট হাতে জ্বলে উঠতে না পারলেও তাই জিততে অসুবিধা হল না মীরাট মাভেরিকসের।

বুধবার উত্তরপ্রদেশ টি-২০ লিগের ১৫তম ম্যাচে লড়াইয়ে নামে মীরাট মাভেরিকস ও লখনউ ফ্যালকনস। কানপুরের গ্রিনপার্ক স্টেডিয়ামে টস হেরে শুরুতে ব্যাট করতে নামে মীরাট। তারা নির্ধারিত ২০ ওভারে ৮ উইকেটের বিনিময়ে ১৯১ রানের বড়সড় ইনিংস গড়ে তোলে। শেষ তিন ম্যাচে টানা তিনটি শতরান করা স্বস্তিক চিকারা এই ম্যাচে ঝোড়ো হাফ-সেঞ্চুরি করেন। নিশ্চিত হাফ-সেঞ্চুরি মাঠে ফেলে আসেন ক্যাপ্টেন মাধব কৌশিক।

স্বস্তিক ৬টি চার ও ৩টি ছক্কার সাহায্যে ৩৯ বলে ৫৬ রান করে সাজঘরে ফেরেন। ৬টি চার ও ২টি ছক্কার সাহায্যে ৩৪ বলে ৪৭ রান করে আউট হন মাধব। রিঙ্কু সিং ১টি ছক্কার সাহায্যে ১০ বলে ১২ রান করে মাঠ ছাড়েন। ২টি চার ও ২টি ছক্কার সাহায্যে ১৩ বলে ২৮ রানের আগ্রাসী ইনিংস খেলে অপরাজিত থাকের ঋতুরাজ শর্মা। যশ গর্গ ২টি চার ও ১টি ছক্কার সাহায্যে ৪ বলে ১৬ রানের যোগদান রাখেন।

আরও পড়ুন:- PAK vs BAN: শাকিব-মুশফিকের মান বাঁচানোর লড়াই ব্যর্থ করে সুপার ফোরে দাপুটে জয় পাকিস্তানের

লখনউয়ের বিক্রান্ত চৌধরী ২ ওভারে ২৮ রান খরচ করলেও ৩টি উইকেট তুলে নেন। ৩ ওভারে ১৮ রান খরচ করে ২টি উইকেট নেন বিপরাজ নিগম। ৪ ওভারে ২৭ রানের বিনিময়ে ১টি উইকেট নেন যশ দয়াল। এছাড়া কৃতজ্ঞ সিং ও হর্ষ ত্যাগী ১টি করে উইকেট পকেটে পোরেন।

জবাবে ব্যাট করতে নেমে লখনউ ১৯.৫ ওভারে ৯ উইকেটের বিনিময়ে ১৫৭ রান তোলে। ক্যাপ্টেন প্রিয়ম গর্গ চোট পেয়ে মাঠ ছাড়েন। তিনি পুনরায় করে ব্যাট করতে নামেননি। তাই লখনউয়ের ইনংস শেষ হয় সেখানেই। ৩৪ রানে ম্যাচ জেতে মীরাট।

আরও পড়ুন:- PAK vs BAN: ক্যাপ্টেন হিসেবে দ্রুততম ২০০০, কোহলির রেকর্ড ভাঙলেন বাবর

বিপরাজ ৬টি চার ও ২টি ছক্কার সাহায্যে ২০ বলে ৪৫ রান করে আউট হন। হর্ষ ত্যাগী ১১, আনজানেয়া সূর্যবংশী ২৩, প্রিয়ম ২৭, আরাধ্য যাদব ১৩ ও মহম্মদ আমন অপরাজিত ২৮ রানের যোগদান রাখেন।

কার্তিক ত্যাগী ২.৫ ওভার বল করে ২৬ রানের বিনিময়ে ৪টি উইকেট দখল করেন। শেষ ওভারের তৃতীয়, চতুর্থ ও পঞ্চম বলে (১৯.৩, ১৯.৪ ও ১৯.৫ ওভারে) যথাক্রমে যশ দয়াল, কার্তিকেয়া জসওয়াল ও বিক্রান্ত চৌধরীকে পরপর বোল্ড করে হ্যাটট্রিক পূর্ণ করেন কার্তিক।

রোহিতদের প্রস্তুতির রোজনামচা, পাল্লা ভারি কোন দলের, ক্রিকেট বিশ্বকাপের বিস্তারিত কভারেজ, সঙ্গে প্রতিটি ম্যাচের লাইভ স্কোরকার্ড বিস্তারিত ক্রীড়াসূচি - এর জন্য চোখুন HT Bangla - তে

বন্ধ করুন