বাংলা নিউজ > বায়োস্কোপ > করোনা-নিউমোনিয়ায় প্রয়াত ‘কহো না পেয়ার হ্যায়’-এর গীতিকার ইব্রাহিম আশক
ইব্রাহিম আশক
ইব্রাহিম আশক

করোনা-নিউমোনিয়ায় প্রয়াত ‘কহো না পেয়ার হ্যায়’-এর গীতিকার ইব্রাহিম আশক

  • 'কহো না পেয়ার হ্যায়’, ‘কোই মিল গ্যায়া’, ‘কৃষ’, ‘বম্বে টু ব্যংকক’-এর মতো ছবিতে গান লিখেছেন তিনি। ‘কোই মিল গ্যায়া’, ‘কহো না পেয়ার হ্যায়’-এর গীতিকার ইব্রাহিম আশক। তাঁর মৃত্যুতে শোকস্তব্ধ বিনোদন জগত।

প্রয়াত গীতিকার ইব্রাহিম আশক। করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন তিনি। একইসঙ্গে নিউমোনিয়া হয়েছিল। ৭০ বছর বয়সে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন গীতিকার। সংবাদমাধ্যমকে তাঁর মেয়ে মুসাফা জনিয়েছেন, আচমকা শ্বাসকষ্ট শুরু হয় ইব্রাহিম আশকের। তড়িঘড়ি তাঁকে মুম্বইয়ের এক বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। করোনা রিপোর্ট করানো হলে ফলাফল ‘পটিজিভ’ আসে। 

হৃদরোগী ছিলেন গীতিকার। শনিবার সকাল থেকে থেকে আচমকা কাশি এবং রক্তবমি শুরু হয় তাঁর। এদিন সঙ্গে সঙ্গে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে, ভেন্টিলেশনে রাখা হয় তাঁকে। রবিবার বিকেল ৪টে নাগাদ না ফেরার দেশে চলে যান তিনি। চিকিৎসক বলেন, ‘হাসপাতালে আনা হলে দেখা যায়, নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত তিনি'। অনেক চেষ্টার পর বাঁচানো সম্ভব হয়নি তাঁকে। সোমবার মীরা রোডের শ্মশানে তাঁর শেষকৃত্য সম্পন্ন হবে। 

মধ্যপ্রদেশে জন্ম, ১৯৭৪ সালে ইন্দোর বিশ্ববিদ্যায় থেকে হিন্দি সাহিত্যে স্নাতক হন। উর্দু ভাষায় কবিতা লিখেছেন। একসময় সাংবাদিক হিসেবেও কাজ করেছেন। ‘কহো না পেয়ার হ্যায়’, ‘কোই মিল গ্যায়া’, ‘কৃষ’, ‘বম্বে টু ব্যংকক’-এর মতো ছবিতে গান লিখেছেন তিনি। ইব্রাহিম আশকের মৃত্যুতে শোকস্তব্ধ বিনোদন জগত। 

 

 

বন্ধ করুন