বাংলা নিউজ > ময়দান > ১০০তম টি-টোয়েন্টি ম্যাচে জিম্বাবোয়েকে হারিয়ে নতুন নজির বাংলাদেশের
সৌম্য সরকার।
সৌম্য সরকার।

১০০তম টি-টোয়েন্টি ম্যাচে জিম্বাবোয়েকে হারিয়ে নতুন নজির বাংলাদেশের

  • ২০০৪ সালে ভারতের বিরুদ্ধে ঢাকায় ১০০তম একদিনের ম্যাচে জয় পেয়েছিল বাংলাদেশ। ২০১৭ সালে কলম্বোতে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে ১০০তম টেস্ট জিতেছিল বাংলাদেশ। আর ২০২১ সালে ১০০তম টি-টোয়েন্টি ম্যাচে জিম্বাবোয়ের বিরুদ্ধে জিতল তারা।

জিম্বাবোয়ের বিরুদ্ধে একের পর এক নজির গড়ে চলেছে বাংলাদেশ। এ বার তারা তাদের ১০০তম টি-টোয়েন্টি ম্যাচে জিম্বাবোয়েকে হারিয়ে এক অনন্য নজির গড়ে ফেলল। ১০০তম টেস্ট, একদিনের ম্যাচ এবং টি-টোয়েন্টি তিনটি ফর্ম্যাটেই তারা জয় ফেল। অস্ট্রেলিয়া এবং পাকিস্তানের পর বাংলাদেশই তৃতীয় দল, যারা তিন ফর্ম্যাটেই ১০০তম ম্যাচে জয় পেয়েছে।

২০০৪ সালে ভারতের বিরুদ্ধে ঢাকায় ১০০তম একদিনের ম্যাচে জয় পেয়েছিল বাংলাদেশ। ২০১৭ সালে কলম্বোতে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে ১০০তম টেস্ট জিতেছিল বাংলাদেশ। আর ২০২১ সালে ১০০তম টি-টোয়েন্টি ম্যাচে জিম্বাবোয়ের বিরুদ্ধে জিতল তারা। 

হারারেতে প্রথম টি-টোয়েন্টি ম্যাচে টসে জিতে ব্যাটিং নিয়েছিল জিম্বাবোয়ে। ১৫২ রানে অল আউট হয়ে যায় তারা। মুস্তাফিজুর রহমানদের দাপটে ১৯ ওভারেই জিম্বাবোয়ের ইনিংস গুটিয়ে যায়। মুস্তাফিজুর তিন উইকেট নিয়েছেন। মহম্মদ সইফুদ্দিন এবং শরিফুল ইসলাম ২ উইকেট করে নিয়েছেন। জবাবে ব্যাট করতে নেমে ৭ বল বাকি থাকতেই ২ উইকেট হারিয়ে জয়ের জন্য প্রয়োজনীয় ১৫৩ রান তুলে নেয় বাংলাদেশ। বাংলাদেশের দু'টি উইকেটই পড়েছে রান আউট হওয়ার জন্য। ৫০ রান করে রান আউট হন সৌম্য সরকার। ১ উইকেটও নিয়েছিলেন সৌম্য। ম্যাচের সেরাও হন তিনি। সৌম্য ছাড়াও মহম্মদ মাহমুল্লাহও রান আউট হয়েছেন। বাংলাদেশের মহম্মদ নইম অপরাজিত ৬৩ রান করেছেন।

একদিনের সিরিজে জিম্বাবোয়েকে হোয়াইটওয়াশ করার পর, এবার প্রথম টি-টোয়েন্টি ম্যাচেও তাদের হারাল শাকিব আল হাসানরা। ফের টি-টোয়েন্টি ফর্ম্যাটেও কি বাংলাদেশ পারবে জিম্বাবোয়েকে হোয়াইটওয়াশ করতে?

বন্ধ করুন