বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > Jitendra Tiwari: জিতেন্দ্র তিওয়ারির আরও ১৪দিন জেল হেফাজত, আদালতে কী বললেন?

Jitendra Tiwari: জিতেন্দ্র তিওয়ারির আরও ১৪দিন জেল হেফাজত, আদালতে কী বললেন?

বিজেপি নেতা জিতেন্দ্র তিওয়ারির জেল হেফাজত। ফাইল ছবি (PTI Photo) (PTI)

জিতেন্দ্রর তরফে দাবি করা হয়েছিল পুলিশি হেফাজতে তাকে মাত্র দু ঘণ্টা জেরা করা হয়েছে। পালটা সরকারি আইনজীবী এনিয়ে জানিয়েছিলেন, তদন্তকারী সংস্থাই এটা ঠিক করে। তাছাড়া পুলিশি হেফাজতের আবেদন কি লেখা ছিল ২৪ ঘণ্টা জেরা করা হবে?

জেল হেফাজতে যেতে হল আসানসোলের বিজেপি নেতা জিতেন্দ্র তিওয়ারিকে। ১৪দিনের জেল হেফাজতে পাঠিয়েছেন আদালত। কম্বল বিতরণে কাণ্ডে একাধিক জনের মৃত্যুর ঘটনায় গ্রেফতার করা হয়েছিল জিতেন্দ্র তিওয়ারিকে। কিন্তু তার জামিন মেলেনি এদিন। তাকে পুলিশি হেফাজতে নেওয়ার জন্য এদিন আবেদন করেছিলেন সরকারি আইনজীবী। তিনি ৫দিনের পুলিশি হেফাজত চেয়েছিলেন। অন্যদিকে জিতেন্দ্রর জামিনের আবেদন করেছিলেন তাঁর আইনজীবী। কিন্তু শেষ পর্যন্ত জেল হেফাজতে যেতে হয়েছে জিতেন্দ্র তিওয়ারিকে।

এদিকে জিতেন্দ্রর তরফে দাবি করা হয়েছিল পুলিশি হেফাজতে তাকে মাত্র দু ঘণ্টা জেরা করা হয়েছে। পালটা সরকারি আইনজীবী এনিয়ে জানিয়েছিলেন, তদন্তকারী সংস্থাই এটা ঠিক করে। তাছাড়া পুলিশি হেফাজতের আবেদন কি লেখা ছিল ২৪ ঘণ্টা জেরা করা হবে?

এদিকে পুলিশি হেফাজত কেন চাইছিলেন সরকারি আইনজীবী? তিনি আদালতের সওয়ালে জানিয়েছেন,পুলিশ হেফাজত শুধু কোনও জিনিস উদ্ধারের জন্য় নয়। ঘটনার অন্তর্নিহিত কারণ জানার জন্যও পুলিশ হেফাজতের ঘটনা হতে পারে। সেই সঙ্গেই আইনজীবী জানিয়েছেন, যে ডেকরেটর সেদিন কাজ করেছিল তার লাইসেন্স নেই। ৩ হাজার কম্বল কেনা হয়েছিল। কিন্তু বিলি করা হয়েছিল প্রায় ৬ হাজার কুপন। পুলিশি তদন্তের এমনই নানা তথ্য তিনি আদালতে তুলে ধরেন।

এদিকে শুনানির একেবারে শেষ পর্বে জিতেন্দ্র নিজেও বলতে ওঠেন। তিনি বলেন, একটি অনুষ্ঠানে দুর্ঘটনার কারণে তিনজন মারা গিয়েছেন। এদের মধ্য়ে দুজন এলাকার ও অপরজন অন্য এলাকার। বাইরের যিনি মারা গিয়েছেন তার পরিবারকে ভুল বুঝিয়ে মামলা করানো হয়েছে। যেখানে অনুষ্ঠান হয়েছে সেখানকার যে পরিবারের লোকজন মারা গিয়েছেন তাদের কেউ মামলা করেননি। কারণ তারা জানতেন এটা নিছক দুর্ঘটনার। এর সঙ্গেই জিতেন্দ্র উল্লেখ করেন একটু ভালো করে বিষয়টি নিয়ে ভাবা হোক।

তার সঙ্গেই জিতেন্দ্র জানিয়েছেন, আমার পরিবারকে অপদস্থ করা হচ্ছে। ছটপুজোতেও হেফাজতে থাকতে হল। আমি রামনবমীর মিছিলে প্রতি বছরই অংশগ্রহণ করি। রায় দেওয়ার আগে অনুগ্রহ করে এই কথাগুলো বিবেচনা করা হোক।

কিন্তু তিনি জামিন পাননি। তাকে যেতে হচ্ছে জেল হেফাজতে। তবে গোটা ঘটনায় নানা চর্চা আসানসোল জুড়ে। বিগত দিনে তৃণমূলে ছিলেন তিনি। পরবর্তীতে তিনি বিজেপিতে আসেন। তবে কম্বল বিতরণের অনুষ্ঠানে পদপিষ্ঠ হয়ে তিন জনের মৃত্যুকে ঘিরে গ্রেফতার হয়েছেন তিনি।

এই খবরটি আপনি পড়তে পারেন HT App থেকেও। এবার HT App বাংলায়। HT App ডাউনলোড করার লিঙ্ক https://htipad.onelink.me/277p/p7me4aup

 

বাংলার মুখ খবর

Latest News

টেস্টে সুযোগ পেলে নিজের সেরাটা উজাড় করে দেব:- আর্শদীপ সিং ট্রেন্টব্রিজ টেস্টে শতরান করে বিরল নজির গড়লেন কাভেম হজ বাংলাদেশে জারি কারফিউ, নামল সেনা! মৃতের সংখ্যা ছাড়াল ১০০, চলছে তুমুল খণ্ডযুদ্ধ বাংলাদেশের জেলে আগুন ধরিয়ে দিলেন বিক্ষোভকারীরা, ডাউকি সীমান্ত দিয়ে ফিরলেন ভারতীয় বাংলাদেশে হিংসা ছড়াচ্ছে মৌলবাদী ও ISI? বড় প্রশ্ন ভারতের প্রাক্তন বিদেশ সচিবের হজের শতরানে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে ফিরল উইন্ডিজ! এখনও পিছিয়ে ৬৫ রানে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে সব থেকে বড় জয় ভারতের! স্মৃতিরা ম্যাচ জিতে গড়লেন ইতিহাস… মা হারা জুহিকে সামলেছিলেন শাহরুখ, এখনও মনে রেখেছেন অভিনেত্রী! ‘‌অসম মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ রাজ্য হবে’‌, হিমন্ত বিশ্বশর্মার মন্তব্যে তুমুল বিতর্ক অজানা পোকার কামড়ে ফোসকা পড়ছে শরীরে, মৃত্যু হয়েছে গৃহবধূর, আতঙ্কে রায়গঞ্জ

Copyright © 2024 HT Digital Streams Limited. All RightsReserved.