বাংলা নিউজ > বাংলার মুখ > অন্যান্য জেলা > স্ত্রী ও ছেলেকে কুপিয়ে আত্মঘাতী বৃদ্ধ
প্রতীকি ছবি
প্রতীকি ছবি

স্ত্রী ও ছেলেকে কুপিয়ে আত্মঘাতী বৃদ্ধ

  • মা ও ছেলের আর্তনাদ শুনে ছুটে আসেন প্রতিবেশীরা। দুজনে উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে যান তাঁরা। সেখান থেকে তাঁদের উত্তরবঙ্গ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়।

পারিবারিক অশান্তির জেরে ছেলে ও স্ত্রীকে ধারালো অস্ত্রের আঘাত করে আত্মঘাতী হলেন এক বৃদ্ধ। ঘটনা জলপাইগুড়ি জেলার ময়নাগুড়ির পানবাড়ি এলাকায়। মহেন্দ্রনাথ রায় (৬০) নামে ওই বৃদ্ধের আক্রমণে গুরুতর আহত হয়েছেন তাঁর স্ত্রী ও ছেলে।

পরিবারের তরফে জানানো হয়েছে, মহেন্দ্রনাথবাবুর সঙ্গে তাঁর স্ত্রীর বিবাদ দীর্ঘদিনের। স্ত্রীকে সন্দেহ করতেন মহেন্দ্রনাথ রায়। রবিবার গভীর রাতে মত্ত অবস্থায় বাড়ি ফেরেন বৃদ্ধ। ফের শুরু হয় দাম্পত্য কলহ। এর মধ্যে কাটারি নিয়ে স্ত্রী মিনুবালার ওপর আক্রমণ চালান তিনি। মাকে আক্রান্ত হতে দেখে ছুটে আসেন ছেলে রবি। তাঁকেও কাটারির আঘাত করেন অভিযুক্ত। এর পর ঘরে ঢুকে দরজা বন্ধ করে দেন তিনি।

ওদিকে মা ও ছেলের আর্তনাদ শুনে ছুটে আসেন প্রতিবেশীরা। দুজনে উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে যান তাঁরা। সেখান থেকে তাঁদের উত্তরবঙ্গ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়।

প্রাথমিকভাবে আত্মীয় ও প্রতিবেশীরা ভেবেছিলেন স্ত্রী ও ছেলের ওপর হামলা চালিয়ে পালিয়েছেন মহেন্দ্রবাবু। কিন্তু সকালে তাদের ভুল ভাঙে। দরজা খুলে ঘরে ঢুকে বৃদ্ধের ঝুলন্ত দেহ দেখতে পান তাঁরা। দেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তে পাঠায় ময়নাগুড়ি থানার পুলিশ।

 

বন্ধ করুন